শেরপুরে রাজ্জাক হত্যা মামলায় যুবকের ফাঁসি

  শেরপুর প্রতিনিধি ০১ এপ্রিল ২০১৮, ১৯:০৬ | অনলাইন সংস্করণ

শেরপুর

শেরপুরের আব্দুর রাজ্জাক হত্যা মামলায় এক যুবককে মৃত্যুদণ্ড ও দুইজনকে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছেন আদালত। একই সঙ্গে যাবজ্জীবন কারাদণ্ড প্রাপ্ত দুইজনকে ১০ হাজার টাকা করে জরিমানা অনাদায়ে আরও ৪ মাস করে সশ্রম কারাদণ্ডের আদেশ দিয়েছেন আদালত।

রোববার দুপুরে শেরপুরের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ মোছলেহ উদ্দিন আসামিদের অনুপস্থিতিতে দণ্ডাদেশের এ রায় প্রদান করেন।

মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত আসামি নাজমুল (২৫) শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার বরুঙ্গা পোড়াবাড়ী গ্রামের হাবিবুর রহমান ওরফে হবি মিয়ার ছেলে। যাবজ্জীবন কারাদণ্ড প্রাপ্ত আসামিরা হলেন একই গ্রামের মোহাম্মদ আলীর ছেলে সাজু আহমেদ ওরফে খোকন (২০) ও আস্কর আলী ওরফে হানিফ দেওয়ানীর ছেলে মো. মমিন (১৮)। মামলা বিচারাধীন থাকা অবস্থায় আসামিরা উচ্চআদালত থেকে জামিনে মুক্তি পেয়ে পলাতক রয়েছে।

রাষ্ট্রপক্ষে মামলা পরিচালনায় সহায়তা করেন বিশেষ পিপি অ্যাডভোকেট গোলাম কিবরিয়া বুলু ও আসামি পক্ষে মামলা পরিচালনা করেন অ্যাডভোকেট আবু জার গাফ্ফারী।

আদালতের অতিরিক্ত পিপি অ্যাডভোকেট ইমাম হোসেন ঠাণ্ডু মামলার নথির সংক্ষিপ্ত বিবরণ দিয়ে জানান, গত ২০১৫ সালের ২০ ফেব্রুয়ারি আব্দুর রাজ্জাক ও তার অপর তিন বন্ধু ফারুক, শামীম ও ইমন নালিতাবাড়ীর সীমান্তবর্তী মধুটিলা ইকোপার্কে বেড়াতে যান ।

ওইদিন বিকালে তারা বাংলাদেশ-ভারতের ১১১১ নং সীমান্ত পিলারের কাছে গেলে ছিনতাইকারীরা তাদের ওপর হামলা চালিয়ে মোবাইলসহ নগদ টাকা ছিনিয়ে নেয়। এ সময় ছিনতাইকারীদের দা, ডেগার ও ছুরির এলোপাতাড়ি আঘাতে আব্দুর রাজ্জাক নামে একজন ভ্রমণকারী নিহত এবং তার অপর তিন বন্ধু আহত হন।

এলাকার লোকজন নালিতাবাড়ী থানার পুলিশকে জানালে পুলিশ আহত ফারুক, শামীম ও ইমনকে উদ্ধার করে নালিতাবাড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। ওই দিন রাত ৯টার দিকে পুলিশ বরুঙ্গা কালাপানি লাল পাহাড়ের গলাচিপা পাহাড়ের ঢাল থেকে নিহত আব্দুর রাজ্জাকের লাশ উদ্ধার করে শেরপুর জেলা সদর হাসপাতালের মর্গে প্রেরণ করেন।

নিহতের বাবা সোহরাব আলী বাদী হয়ে নালিতাবাড়ী থানায় মামলা দায়ের করেন। পরে পুলিশ প্রযুক্তি ব্যবহার করে আসামিদের গ্রেফতার করেন। আসামিরা হত্যাকাণ্ডের দায় স্বীকার করে আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়। মামলাটি তদন্ত শেষে নালিতাবাড়ী থানার এসআই আরিফ হোসাইন ২০১৫ সালের ৩১ আগস্ট আদালতে চার্জশিট দাখিল করেন ।

বিজ্ঞ আদালত ১৭ জন সাক্ষীর সাক্ষ্য গ্রহণ শেষে রোববার দুপুরে দণ্ডাদেশ প্রদান করেন।

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter