ইউএনও ওয়াহিদার ওপর হামলা

ঘোড়াঘাট থানার ওসি আমিরুল ইসলাম প্রত‌্যাহার

  দিনাজপুর প্রতিনিধি ১১ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১২:৫১:১২ | অনলাইন সংস্করণ

ওসি আমিরুল ইসলাম। ছবি-যুগান্তর

ইউএনও ওয়াহিদা খানম ও তার বাবার ওপর হামলার ঘটনায় দিনাজপুরের ঘোড়াঘাট থানার ওসি আমিরুল ইসলামকে প্রত‌্যাহার করা হয়েছে।

শুক্রবার সকালে তাকে প্রত‌্যাহার করা হয় বলে নিশ্চিত করেছেন দিনাজপুরের পুলিশ সুপার মোহাম্মদ আনোয়ার হোসেন।

তিনি যুগান্তরকে জানান, ‘ওসি আমিরুল ইসলামকে প্রত্যাহার করে দিনাজপুর পুলিশ লাইনে আনা হয়েছে।’

এদিকে ইউএনও ওয়াহিদার ওপর হামলার ঘটনায় তার বড় ভাই শেখ ফরিদ উদ্দীনের দায়েরকৃত মামলাটি ইতিমধ্যেই ঘোড়াঘাট থানা থেকে স্থানান্তর করে দিনাজপুর ডিবি পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। মামলাটির তদন্তকারী কর্মকর্তা নিযুক্ত করা হয়েছে দিনাজপুর ডিবি পুলিশের ওসি ইমাম জাফরকে।

এছাড়া এ মামলায় রিমান্ডে নেয়া ৩ জন আসামির মধ্যে ২ জনকে (রঙমিস্ত্রি নবীরুল ইসলাম ও সান্টু কুমার দাস) ৭ দিনের রিমান্ড শেষে আজ শুক্রবার আদালতে হাজির করা হবে।

বিষয়টি নিশ্চিত করে তদন্তকারী কর্মকর্তা ইমাম জাফর যুগান্তরকে জানান, আজ বিকালে আসামি নবীরুল ইসলাম ও সান্টু কুমার দাসকে আদালতে হাজির করা হবে। গ্রেফতারকৃত অপর আসামি আসাদুল ইসলামের ৭ দিনের রিমান্ড শেষ হবে আগামীকাল শনিবার।

প্রসঙ্গত গত ২ সেপ্টেম্বর বুধবার দিনগত রাতে সরকারি বাসভবনে ঢুকে ঘোড়াঘাট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা ওয়াহিদা খানম ও তার বাবা মুক্তিযোদ্ধা ওমর আলী শেখকে নির্মমভাবে হাতুড়ি দিয়ে পিটিয়ে জখম করে দুর্বৃত্তরা।

বর্তমানে ইউএনও ওয়াহিদা খানম ঢাকার নিউরো সায়েন্সেস হাসপাতাল এবং তার বাবা রংপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন।

ঘটনাপ্রবাহ : ইউএনও ওয়াহিদার ওপর হামলা

আরও
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন

সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত