জানমালের নিরাপত্তা চেয়ে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সংবাদ সম্মেলন
jugantor
জানমালের নিরাপত্তা চেয়ে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সংবাদ সম্মেলন

  দোয়ারাবাজার (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি  

২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০, ১৪:১১:১০  |  অনলাইন সংস্করণ

জানমালের নিরাপত্তা চেয়ে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সংবাদ সম্মেলন

জানমালের নিরাপত্তা চেয়ে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারের এক মুক্তিযোদ্ধা পরিবার।

উপজেলার বগুলাবাজার ইউনিয়নের মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেন মাস্টার ও তার পরিবারের সদস্যরা চরম নিরাপত্তাহীনতার অভিযোগ তুলেছেন।

বুধবার সন্ধ্যায় সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেনের স্ত্রী লতিফা বেগম বলেন, আমার বাবা আবদুল মোতালিব মারা যাওয়ার আগে স্থানীয় বগুলাবাজারে সাড়ে সাত শতক ভূমি রেজিস্ট্রি করে দেন তার স্ত্রীর নামে। ওই ভূমির সূত্র ধরেই চলছে একের পর এক হুমকি-ধমকি ও ভিটেমাটি দখলের পাঁয়তারা।

বগুলা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আহমদ আলী আপন, শাহজাহান কবির ইকবাল, শারফুল ইসলাম, সুলতান, সিকান্দার আলী, নিলুফা, লুৎফা, মাসুদ, আনোয়ারা বেগম, মনির হোসেনসহ একটি ভূমিখেকো চক্রের হুমকিতে প্রতিটি মুহূর্ত আতঙ্কিত।

শুধু তাই নয়, আমার মেয়ে শাহনাজ পারভীন শিল্পী ও জামাতা আবদুর রউফের বাড়িতেও একইভাবে হুমকি-ধমকি দিচ্ছে। বাড়ির মেয়েদের উসকানিমূলক গালাগালসহ এসিড নিক্ষেপের হুমকিও দিয়ে আসছে। প্রতিপক্ষের লোকজন যে কোনো সময় আমাদের প্রাণহানিসহ ব্যাপক ক্ষতিসাধন করতে পারে।

মূল ঘটনা আড়াল করতেই তারা আমাদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে ভিত্তিহীন অপপ্রচার চালাচ্ছে। ওই শক্তিশালী ভূমিখেকো চক্রের কবল থেকে আমাদের জানমাল ও ইজ্জতের নিরাপত্তা চেয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জরুরি হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

সংবাদ সম্মেলনে আরও বক্তব্য দেন মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেন, শাহনাজ পারভীন শিল্পী, মনিরুল হাসান দেলোয়ার, যোবায়ের হাসান প্রমুখ।

জানমালের নিরাপত্তা চেয়ে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সংবাদ সম্মেলন

 দোয়ারাবাজার (সুনামগঞ্জ) প্রতিনিধি 
২৪ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০২:১১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
জানমালের নিরাপত্তা চেয়ে মুক্তিযোদ্ধা পরিবারের সংবাদ সম্মেলন
ছবি: যুগান্তর

জানমালের নিরাপত্তা চেয়ে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেছেন সুনামগঞ্জের দোয়ারাবাজারের এক মুক্তিযোদ্ধা পরিবার।

উপজেলার বগুলাবাজার ইউনিয়নের মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেন মাস্টার ও তার পরিবারের সদস্যরা চরম নিরাপত্তাহীনতার অভিযোগ তুলেছেন।

বুধবার সন্ধ্যায় সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেনের স্ত্রী লতিফা বেগম বলেন, আমার বাবা আবদুল মোতালিব মারা যাওয়ার আগে স্থানীয় বগুলাবাজারে সাড়ে সাত শতক ভূমি রেজিস্ট্রি করে দেন তার স্ত্রীর নামে। ওই ভূমির সূত্র ধরেই চলছে একের পর এক হুমকি-ধমকি ও ভিটেমাটি দখলের পাঁয়তারা।

বগুলা ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান আহমদ আলী আপন, শাহজাহান কবির ইকবাল, শারফুল ইসলাম, সুলতান, সিকান্দার আলী, নিলুফা, লুৎফা, মাসুদ, আনোয়ারা বেগম, মনির হোসেনসহ একটি ভূমিখেকো চক্রের হুমকিতে প্রতিটি মুহূর্ত আতঙ্কিত।

শুধু তাই নয়, আমার মেয়ে শাহনাজ পারভীন শিল্পী ও জামাতা আবদুর রউফের বাড়িতেও একইভাবে হুমকি-ধমকি দিচ্ছে। বাড়ির মেয়েদের উসকানিমূলক গালাগালসহ এসিড নিক্ষেপের হুমকিও দিয়ে আসছে। প্রতিপক্ষের লোকজন যে কোনো সময় আমাদের প্রাণহানিসহ ব্যাপক ক্ষতিসাধন করতে পারে।

মূল ঘটনা আড়াল করতেই তারা আমাদের বিরুদ্ধে বিভিন্ন সংবাদমাধ্যমে ভিত্তিহীন অপপ্রচার চালাচ্ছে। ওই শক্তিশালী ভূমিখেকো চক্রের কবল থেকে আমাদের জানমাল ও ইজ্জতের নিরাপত্তা চেয়ে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার জরুরি হস্তক্ষেপ কামনা করছি।

সংবাদ সম্মেলনে আরও বক্তব্য দেন মুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেন, শাহনাজ পারভীন শিল্পী, মনিরুল হাসান দেলোয়ার, যোবায়ের হাসান প্রমুখ।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন