পারিবারিক শত্রুতায় কবর খুঁড়ে লাশ উপড়ে ফেলার চেষ্টা
jugantor
পারিবারিক শত্রুতায় কবর খুঁড়ে লাশ উপড়ে ফেলার চেষ্টা

  তালতলী (বরগুনা) প্রতিনিধি  

২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ২০:৫৪:২১  |  অনলাইন সংস্করণ

বরগুনার তালতলী উপজেলার নলবুনিয়ায় পারিবারিক শত্রুতার জের ধরে কবর কেটে লাশ উপড়ে ফেলার চেষ্টা করেন রবিউল নামের এক বখাটে যুবক। সোমবার মৃত রুহুল আমিনের বোন অজুফা তালতলী প্রেস ক্লাবে এসে এ অভিযোগ করেন।

অভিযোগে জানা গেছে, উপজেলার নলবুনিয়া এলাকার ছোহরাফের ছেলে রুহুল আমিন গত ১০ বছর আগে মারা গেলে তখন তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়। ছোহরাফের ভাই সাইদুর রহমানের ছেলে রবিউল ইসলামের একটি মারামারি মামলার সাক্ষী দেন মৃত রুহুল আমিনের বোন অজুফা। তারই জের ধরে গত শনিবার প্রকাশ্যে রবিউল পারিবারিক করবস্থান থেকে মৃত ব্যক্তির লাশ উপড়ে ফেলার জন্য কবরটি কোদাল দিয়ে কেটে বাঁশ উপরে ফেলছে।

এ সময় রবিউলের সঙ্গে রামদা ছিল। কেউ নিষেধ করলে তাকে খুন জখমের হুমকি দেয়। ভয়ে কেউ পাশে যেতে পারেনি তখন। পরে রুহুল আমিনের বোন অজুফা বেগম তালতলী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

তালতলী থানার ওসি মো. কামরুজ্জামান মিয়া বলেন, কবরস্থান উপড়ে ফেলার বিষয়ে একটি অভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। ঘটনার সত্য-মিথ্যা যাচাই করে অভিযুক্ত রবিউলের বিরুদ্ধে মামলা নেয়া হবে।

পারিবারিক শত্রুতায় কবর খুঁড়ে লাশ উপড়ে ফেলার চেষ্টা

 তালতলী (বরগুনা) প্রতিনিধি 
২৮ সেপ্টেম্বর ২০২০, ০৮:৫৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

বরগুনার তালতলী উপজেলার নলবুনিয়ায় পারিবারিক শত্রুতার জের ধরে কবর কেটে লাশ উপড়ে ফেলার চেষ্টা করেন রবিউল নামের এক বখাটে যুবক। সোমবার মৃত রুহুল আমিনের বোন অজুফা তালতলী প্রেস ক্লাবে এসে এ অভিযোগ করেন।

অভিযোগে জানা গেছে, উপজেলার নলবুনিয়া এলাকার ছোহরাফের ছেলে রুহুল আমিন গত ১০ বছর আগে মারা গেলে তখন তাকে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়। ছোহরাফের ভাই সাইদুর রহমানের ছেলে রবিউল ইসলামের একটি মারামারি মামলার সাক্ষী দেন মৃত রুহুল আমিনের বোন অজুফা। তারই জের ধরে গত শনিবার প্রকাশ্যে রবিউল পারিবারিক করবস্থান থেকে মৃত ব্যক্তির লাশ উপড়ে ফেলার জন্য কবরটি কোদাল দিয়ে কেটে বাঁশ উপরে ফেলছে।

এ সময় রবিউলের সঙ্গে রামদা ছিল। কেউ নিষেধ করলে তাকে খুন জখমের হুমকি দেয়। ভয়ে কেউ পাশে যেতে পারেনি তখন। পরে রুহুল আমিনের বোন অজুফা বেগম তালতলী থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করেন।

তালতলী থানার ওসি মো. কামরুজ্জামান মিয়া বলেন, কবরস্থান উপড়ে ফেলার বিষয়ে একটি অভিযোগ পেয়ে ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে। ঘটনার সত্য-মিথ্যা যাচাই করে অভিযুক্ত রবিউলের বিরুদ্ধে মামলা নেয়া হবে।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন