টেকনাফে বিজিবির অভিযানে অস্ত্র ও গুলিসহ ৪ ডাকাত আটক
jugantor
টেকনাফে বিজিবির অভিযানে অস্ত্র ও গুলিসহ ৪ ডাকাত আটক

  কক্সবাজার প্রতিনিধি  

০৩ অক্টোবর ২০২০, ১৯:১৬:৪৯  |  অনলাইন সংস্করণ

টেকনাফে অভিযান চালিয়ে দেশে তৈরি ৬টি অস্ত্র, ১০ রাউন্ড কার্তুজ ও অন্যান্য সরঞ্জামসহ ‘ডাকাত দলের’ ৪ সদস্যকে আটক করেছে বিজিবি।

টেকনাফে অভিযান চালিয়ে দেশে তৈরি ৬টি অস্ত্র, ১০ রাউন্ড কার্তুজ ও অন্যান্য সরঞ্জামসহ ‘ডাকাত দলের’ ৪ সদস্যকে আটক করেছে বিজিবি।
শনিবার ভোরে টেকনাফের হ্নীলা ইউনিয়নের উলুমারী গ্রামে অভিযান চালিয়ে অস্ত্রসহ তাদের আটক করা হয়।

বিজিবির দাবি- ডাকাতির প্রস্তুতিকালে তাদের আটক করা হয়েছে। এ সময় ডাকাত চক্রের আরও ৬-৭ জন পালিয়ে গেছে।
আটককৃতরা হল- উলুমারি গ্রামের মৃত আবুল হোসেনের ছেলে নুরুল আমিন (৩২), মৃত মো. শফির ছেলে আনোয়ার হোসেন (২১), মৃত রুহুল আমিনের ছেলে জাফর আলম (৪২) ও রঙ্গিখালী গ্রামের মৃত মোজাফ্ফর আহমেদের ছেলে নজির আহম্মদ (৫০)।

বিজিবির টেকনাফ-২ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান জানান, একটি সংঘবদ্ধ ডাকাত দল ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছে এমন সংবাদ ছিল। এর পরিপ্রেক্ষিতে বিজিবির একটি দল সেখানে অভিযান চালায়। বিজিবির উপস্থিতি টের পেয়ে ৬-৭ জন ডাকাত পালিয়ে যায়। তবে টহল দল ৪ জনকে আটক করতে সক্ষম হয়। পরে বসতবাড়ি তল্লাশি করে দেশীয় তৈরি ৬টি একনলা বন্দুক, ১০ রাউন্ড কার্তুজ, ৯ রাউন্ড গুলির খোসা, চার রাউন্ড রাইফেলের অ্যামুনেশন, চার রাউন্ড এলএমজি অ্যামুনেশন, চার রাউন্ড প্যারাসুট ফ্লেয়ার, একটি পুলিশ বেল্ট ও একটি মোবাইল ফোন উদ্ধার করা হয়। আটকদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের প্রক্রিয়া চলছে।

টেকনাফে বিজিবির অভিযানে অস্ত্র ও গুলিসহ ৪ ডাকাত আটক

 কক্সবাজার প্রতিনিধি 
০৩ অক্টোবর ২০২০, ০৭:১৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
টেকনাফে অভিযান চালিয়ে দেশে তৈরি ৬টি অস্ত্র, ১০ রাউন্ড কার্তুজ ও অন্যান্য সরঞ্জামসহ ‘ডাকাত দলের’ ৪ সদস্যকে আটক করেছে বিজিবি।
টেকনাফে অভিযান চালিয়ে দেশে তৈরি ৬টি অস্ত্র, ১০ রাউন্ড কার্তুজ ও অন্যান্য সরঞ্জামসহ ‘ডাকাত দলের’ ৪ সদস্যকে আটক করেছে বিজিবি।

টেকনাফে অভিযান চালিয়ে দেশে তৈরি ৬টি অস্ত্র, ১০ রাউন্ড কার্তুজ ও অন্যান্য সরঞ্জামসহ ‘ডাকাত দলের’ ৪ সদস্যকে আটক করেছে বিজিবি।
শনিবার ভোরে টেকনাফের হ্নীলা ইউনিয়নের উলুমারী গ্রামে অভিযান চালিয়ে অস্ত্রসহ তাদের আটক করা হয়। 

বিজিবির দাবি- ডাকাতির প্রস্তুতিকালে তাদের আটক করা হয়েছে। এ সময় ডাকাত চক্রের আরও ৬-৭ জন পালিয়ে গেছে। 
আটককৃতরা হল- উলুমারি গ্রামের মৃত আবুল হোসেনের ছেলে নুরুল আমিন (৩২), মৃত মো. শফির ছেলে আনোয়ার হোসেন (২১), মৃত রুহুল আমিনের ছেলে জাফর আলম (৪২) ও রঙ্গিখালী গ্রামের মৃত মোজাফ্ফর আহমেদের ছেলে নজির আহম্মদ (৫০)।
 
বিজিবির টেকনাফ-২ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক লে. কর্নেল মোহাম্মদ ফয়সল হাসান খান জানান, একটি সংঘবদ্ধ ডাকাত দল ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছে এমন সংবাদ ছিল। এর পরিপ্রেক্ষিতে বিজিবির একটি দল সেখানে অভিযান চালায়। বিজিবির উপস্থিতি টের পেয়ে ৬-৭ জন ডাকাত পালিয়ে যায়। তবে টহল দল ৪ জনকে আটক করতে সক্ষম হয়। পরে বসতবাড়ি তল্লাশি করে দেশীয় তৈরি ৬টি একনলা বন্দুক, ১০ রাউন্ড কার্তুজ, ৯ রাউন্ড গুলির খোসা, চার রাউন্ড রাইফেলের অ্যামুনেশন, চার রাউন্ড এলএমজি অ্যামুনেশন, চার রাউন্ড প্যারাসুট ফ্লেয়ার, একটি পুলিশ বেল্ট ও একটি মোবাইল ফোন উদ্ধার করা হয়। আটকদের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণের প্রক্রিয়া চলছে।
 

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন