উলিপুরে বৃদ্ধার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার
jugantor
উলিপুরে বৃদ্ধার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

  উলিপুর (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি  

১৭ অক্টোবর ২০২০, ২২:২৭:৫৩  |  অনলাইন সংস্করণ

কুড়িগ্রাম

কুড়িগ্রামের উলিপুরে আট সন্তানের জননী এক বৃদ্ধার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার গভীর রাতে ধরনীবাড়ি গ্রামে।

এলাকাবাসী ও পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার ধরনীবাড়ি ইউনিয়নের ধরনীবাড়ি গ্রামের মুন্সী বছির উদ্দিনের স্ত্রী ৮ সন্তানের জননী হাজরা বেওয়া (৭৪) শুক্রবার গভীর রাতের কোনো এক সময় নিজ শয়ন ঘরে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন।

শনিবার সকালে পরিবারের লোকজন তাকে ডাকাডাকি করে কোনো শব্দ না পেয়ে ঘরের দরজা ভেঙে ঝুলন্ত মরদেহ দেখতে পান। তবে এ বিষয়ে কোনো কিছুই বলতে পারছেন না পরিবারের লোকজন।

পরে পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে। বিষয়টি পুলিশের কাছে সন্দেহজনক মনে হওয়ায় মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য নিয়ে আসতে চাইলে পরিবারের লোকজন বাধা দেন। পরে পুলিশ কৌশলে শনিবার দুপুর আড়াইটার দিকে মরদেহ থানায় নিয়ে আসে। ধরনীবাড়ি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আমিনুল ইসলাম ফুলু ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

উলিপুর থানার ওসি (তদন্ত) রুহুল আমীন জানান, ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে আনা হয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য লাশ কুড়িগ্রাম মর্গে পাঠানো হবে। এ ঘটনায় একটি ইউডি মামলা দায়ের করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট হাতে পেলে মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে।

উলিপুরে বৃদ্ধার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

 উলিপুর (কুড়িগ্রাম) প্রতিনিধি 
১৭ অক্টোবর ২০২০, ১০:২৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
কুড়িগ্রাম
কুড়িগ্রাম

কুড়িগ্রামের উলিপুরে আট সন্তানের জননী এক বৃদ্ধার ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ঘটনাটি ঘটেছে শুক্রবার  গভীর রাতে ধরনীবাড়ি গ্রামে। 

এলাকাবাসী ও পারিবারিক সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার ধরনীবাড়ি ইউনিয়নের ধরনীবাড়ি গ্রামের মুন্সী বছির উদ্দিনের স্ত্রী ৮ সন্তানের জননী হাজরা বেওয়া (৭৪) শুক্রবার গভীর রাতের কোনো এক সময় নিজ শয়ন ঘরে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেন।

শনিবার সকালে পরিবারের লোকজন তাকে ডাকাডাকি করে কোনো শব্দ না পেয়ে ঘরের দরজা ভেঙে ঝুলন্ত মরদেহ দেখতে পান। তবে এ বিষয়ে কোনো কিছুই বলতে পারছেন না পরিবারের লোকজন।

পরে পুলিশ খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়ে মরদেহ উদ্ধার করে। বিষয়টি পুলিশের কাছে সন্দেহজনক মনে হওয়ায় মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য নিয়ে আসতে চাইলে পরিবারের লোকজন বাধা দেন। পরে পুলিশ কৌশলে শনিবার দুপুর আড়াইটার দিকে মরদেহ থানায় নিয়ে আসে। ধরনীবাড়ি ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আমিনুল ইসলাম ফুলু ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

উলিপুর থানার ওসি (তদন্ত) রুহুল আমীন জানান, ঘটনাস্থল থেকে লাশ উদ্ধার করে আনা হয়েছে। ময়নাতদন্তের জন্য লাশ কুড়িগ্রাম মর্গে পাঠানো হবে। এ ঘটনায় একটি ইউডি মামলা দায়ের করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের রিপোর্ট হাতে পেলে মৃত্যুর প্রকৃত কারণ জানা যাবে।
 

 
আরও খবর
 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন