চোরাই ৮টি ভ্যানসহ আ'লীগ নেতা গ্রেফতার
jugantor
চোরাই ৮টি ভ্যানসহ আ'লীগ নেতা গ্রেফতার

  কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি  

২৬ অক্টোবর ২০২০, ২১:৫৬:০৯  |  অনলাইন সংস্করণ

যশোরের কেশবপুরে চোরাই মোটর-ভ্যানসহ পৌর ২ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতিসহ ৬ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

তাদের কাছ থেকে ৮টি চোরাই মোটর-ভ্যান, নগদ ২৩ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়েছে।

কেশবপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ওয়াহিদুজ্জামান জানান, কেশবপুর শহরের ভোগতী এলাকার ইউছুফ সরদারের ছেলে হাবিবুর রহমান দীর্ঘদিন ধরে চোরাই মোটর-ভ্যান ক্রয়-বিক্রয়ের সঙ্গে যুক্ত। সোমবার সকালে পুলিশ শহরের হাসপাতাল সড়কের হাবিব গ্যারেজে অভিযান চালিয়ে তাকে আটক করে। পরে মামলা দায়ের করা হয়।

অন্য একটি সূত্র জানায়, রোববার রাতে খুলনার ডুমুরিয়া উপজেলার মালতিয়া গ্রামের মোশারফ গাজীর ছেলে আসিফকে চোরাই মোটর-ভ্যানসহ আটক করে পুলিশ। তার দেয়া তথ্য অনুযায়ী সোমবার সকালে হাবিব গ্যারেজে অভিযান চালানো হয়।

সেখান থেকে হাবিবুর রহমান ও কেশবপুরের ঝিকরা গ্রামের আমজাদ হোসেনের ছেলে শাহাজাহানকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এই চুরির ঘটনায় সন্ধ্যা পর্যন্ত ৬ জনকে আটক করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে ৮টি মোটর-ভ্যান উদ্ধার করা হয়।

কেশবপুর পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কার্তিক চন্দ্র সাহা জানান, হাবিবুর রহমান ২ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি। বর্তমানে নতুন করে ওয়ার্ড কমিটি গঠনের কাজ চলছে। সাবেক সংসদ সদস্যের সময়ে তাকে ২ নম্বর ওয়ার্ড কমিটির সভাপতি করা হয়।

চোরাই ৮টি ভ্যানসহ আ'লীগ নেতা গ্রেফতার

 কেশবপুর (যশোর) প্রতিনিধি 
২৬ অক্টোবর ২০২০, ০৯:৫৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

যশোরের কেশবপুরে চোরাই মোটর-ভ্যানসহ পৌর ২ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতিসহ ৬ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

তাদের কাছ থেকে ৮টি চোরাই মোটর-ভ্যান, নগদ ২৩ হাজার টাকা উদ্ধার করা হয়েছে।

কেশবপুর থানার পরিদর্শক (তদন্ত) ওয়াহিদুজ্জামান জানান, কেশবপুর শহরের ভোগতী এলাকার ইউছুফ সরদারের ছেলে হাবিবুর রহমান দীর্ঘদিন ধরে চোরাই মোটর-ভ্যান ক্রয়-বিক্রয়ের সঙ্গে যুক্ত। সোমবার সকালে পুলিশ শহরের হাসপাতাল সড়কের হাবিব গ্যারেজে অভিযান চালিয়ে তাকে আটক করে। পরে মামলা দায়ের করা হয়।

অন্য একটি সূত্র জানায়, রোববার রাতে খুলনার ডুমুরিয়া উপজেলার মালতিয়া গ্রামের মোশারফ গাজীর ছেলে আসিফকে চোরাই মোটর-ভ্যানসহ আটক করে পুলিশ। তার দেয়া তথ্য অনুযায়ী সোমবার সকালে হাবিব গ্যারেজে অভিযান চালানো হয়।

সেখান থেকে হাবিবুর রহমান ও কেশবপুরের ঝিকরা গ্রামের আমজাদ হোসেনের ছেলে শাহাজাহানকে গ্রেফতার করে পুলিশ। এই চুরির ঘটনায় সন্ধ্যা পর্যন্ত ৬ জনকে আটক করা হয়। এ সময় তাদের কাছ থেকে ৮টি মোটর-ভ্যান উদ্ধার করা হয়।

কেশবপুর পৌর আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক কার্তিক চন্দ্র সাহা জানান, হাবিবুর রহমান ২ নম্বর ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি। বর্তমানে নতুন করে ওয়ার্ড কমিটি গঠনের কাজ চলছে। সাবেক সংসদ সদস্যের সময়ে তাকে ২ নম্বর ওয়ার্ড কমিটির সভাপতি করা হয়।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন