সাঁথিয়ায় ১ সন্তানের জননীকে ধর্ষণ,ধর্ষক আটক
jugantor
সাঁথিয়ায় ১ সন্তানের জননীকে ধর্ষণ,ধর্ষক আটক

  সাঁথিয়া (পাবনা) প্রতিনিধি  

২৯ অক্টোবর ২০২০, ১৮:৪০:১৪  |  অনলাইন সংস্করণ

ধর্ষক নজরুলকে (৪২)

পাবনার সাঁথিয়ায় জোরপূর্বক ধর্ষণের স্বীকার হয়েছেন ১ সন্তানের জননী (২৩)। তিনি উপজেলার কাশীনাথপুর ইউনিয়নের শ্রীধরকোড়া গ্রামের বাসিন্দা। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার কাশীনাথপুর ইউনিয়নের শহীদনগর বাজারে ধর্ষকের দোকানে। জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগে ধর্ষিতা নিজেই বাদী হয়ে বুধবার রাতে সাঁথিয়া থানায় মামলা দায়ের করেন। এ ঘটনায় ধর্ষক নজরুলকে (৪২) আটক করে পুলিশ। সে উপজেলার কাশীনাথপুর ইউনিয়নের পাইকরহাটি গ্রামের বারেক মির্জার ছেলে।

সাঁথিয়া থানা ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়,গত ২৭ অক্টোবর দুপুরে সাঁথিয়া উপজেলার শহীদনগর বাজারে ধর্ষিতা ওই মহিলা ধর্ষক নজরুলের দোকানে কসমেটিক কিনতে যান। এক পর্যায়ে লম্পট নজরুল তাকে ফুসলিয়ে দোকানের ভেতরে অবস্থিত তার নিজস্ব গোপন কক্ষে নিয়ে যায়। সেখানে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। বিষয়টি টের পেয়ে স্থানীয়রা কাশিনাথপুর পুলিশ ফাঁড়িতে খবর দেন। খবর পেয়ে ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই নজরুল সঙ্গীয় ফোর্সসহ ওই দোকানে অভিযান চালিয়ে ধর্ষক নজরুলকে আটক করে প্রথমে ফাঁড়িতে পরে থানায় নিয়ে আসে। পরে ধর্ষিতা ওই মহিলা বিষয়টি থানা পুলিশকে খুলে বলেন।

সাঁথিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আসাদুজ্জামান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ধর্ষক নজরুলকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। ধর্ষিতা মেয়েটিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য পাবনা মেডিকেলে পাঠানো হয়েছে।

সাঁথিয়ায় ১ সন্তানের জননীকে ধর্ষণ,ধর্ষক আটক

 সাঁথিয়া (পাবনা) প্রতিনিধি 
২৯ অক্টোবর ২০২০, ০৬:৪০ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
ধর্ষক নজরুলকে (৪২)
ধর্ষক নজরুলকে (৪২)

পাবনার সাঁথিয়ায় জোরপূর্বক ধর্ষণের স্বীকার হয়েছেন ১ সন্তানের জননী (২৩)। তিনি উপজেলার কাশীনাথপুর ইউনিয়নের শ্রীধরকোড়া গ্রামের বাসিন্দা।  ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার  কাশীনাথপুর ইউনিয়নের শহীদনগর বাজারে ধর্ষকের দোকানে। জোরপূর্বক ধর্ষণের অভিযোগে ধর্ষিতা নিজেই বাদী হয়ে বুধবার রাতে সাঁথিয়া থানায় মামলা দায়ের করেন। এ ঘটনায় ধর্ষক নজরুলকে (৪২) আটক করে পুলিশ। সে উপজেলার কাশীনাথপুর ইউনিয়নের পাইকরহাটি গ্রামের বারেক মির্জার ছেলে।

 

সাঁথিয়া থানা ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়,গত ২৭ অক্টোবর দুপুরে সাঁথিয়া উপজেলার শহীদনগর বাজারে ধর্ষিতা ওই মহিলা ধর্ষক নজরুলের দোকানে কসমেটিক কিনতে যান। এক পর্যায়ে লম্পট নজরুল তাকে ফুসলিয়ে দোকানের ভেতরে অবস্থিত তার নিজস্ব গোপন কক্ষে নিয়ে যায়। সেখানে তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণ করে। বিষয়টি টের পেয়ে স্থানীয়রা কাশিনাথপুর পুলিশ ফাঁড়িতে খবর দেন। খবর পেয়ে ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই নজরুল সঙ্গীয় ফোর্সসহ ওই দোকানে অভিযান চালিয়ে ধর্ষক নজরুলকে আটক করে প্রথমে ফাঁড়িতে পরে থানায় নিয়ে আসে। পরে ধর্ষিতা ওই মহিলা বিষয়টি থানা পুলিশকে খুলে বলেন।

 

সাঁথিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) আসাদুজ্জামান ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে বলেন, ধর্ষক নজরুলকে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে। ধর্ষিতা মেয়েটিকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য পাবনা মেডিকেলে পাঠানো হয়েছে।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন