ব্যাংক কর্মকর্তাদের দূরদর্শিতায় রক্ষা পেল ব্যবসায়ীর ২৬ লাখ টাকা
jugantor
ব্যাংক কর্মকর্তাদের দূরদর্শিতায় রক্ষা পেল ব্যবসায়ীর ২৬ লাখ টাকা

  অভয়নগর (যশোর) প্রতিনিধি  

২৯ অক্টোবর ২০২০, ২২:০৮:১৮  |  অনলাইন সংস্করণ

যশোরের অভয়নগরে সোনালী ব্যাংকের নওয়াপাড়া শাখায় কর্মকর্তাদের দূরদর্শিতায় এক ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানের ২৬ লাখ টাকা চুরির হাত থেকে রেহাই পেয়েছে। ব্যাংক কর্তৃপক্ষ ব্যাংকের প্রধান গেট বন্ধ করে চোরটিকে আটক করে থানায় সোপর্দ করেছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরের পর সোনালী ব্যাংকের নওয়াপাড়া শাখায় লেনদেন চলাকালে এ ঘটনা ঘটে।

সোনালী ব্যাংকের ম্যানেজার এএসএম শামছুদ্দীন আহমেদ শামীম জানান, বৃহস্পতিবার দুপুরের পরপরই নওয়াপাড়া শহরের মেসার্স তানজীর ট্রেডার্সের একজন কর্মকর্তা ২৬ লাখ টাকা ব্যাংকে জমা দেয়ার উদ্দেশ্যে ক্যাশ কাউন্টারে দাঁড়ান। এ সময় একজন চোর টাকার ব্যাগটিকে আড়াল করে কেটে পাঁচ হাজার টাকা হাতিয়ে নেয়।

তিনি জানান, বিষয়টি ক্যাশ কর্মকর্তা মো. রুহুল আমিনের চোখে পড়লে তিনি চোর চোর বলে চিৎকার দিলে ব্যাংক ম্যানেজার দ্রুতগতিতে ব্যাংকের প্রধান গেট বন্ধ করার নির্দেশ দেন। ম্যানেজারের নির্দেশ পেয়ে নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা আনসার-ভিডিপি সদস্যরা ব্যাংকের প্রধান গেট বন্ধ করে দেন। পরে চোরটিকে আটক করে অভয়নগর থানা পুলিশে খবর দেয় ব্যাংক কর্তৃপক্ষ।

বিষয়টি সম্পর্কে থানার ওসি মো. তাজুল ইসলাম যুগান্তরকে জানান, সংবাদ পেয়ে সোনালী ব্যাংক থেকে মো. রিপন (৫০) নামের এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে।

ব্যাংক কর্মকর্তাদের দূরদর্শিতায় রক্ষা পেল ব্যবসায়ীর ২৬ লাখ টাকা

 অভয়নগর (যশোর) প্রতিনিধি 
২৯ অক্টোবর ২০২০, ১০:০৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

যশোরের অভয়নগরে সোনালী ব্যাংকের নওয়াপাড়া শাখায় কর্মকর্তাদের দূরদর্শিতায় এক ব্যবসায়ী প্রতিষ্ঠানের ২৬ লাখ টাকা চুরির হাত থেকে রেহাই পেয়েছে। ব্যাংক কর্তৃপক্ষ ব্যাংকের প্রধান গেট বন্ধ করে চোরটিকে আটক করে থানায় সোপর্দ করেছে।

বৃহস্পতিবার দুপুরের পর সোনালী ব্যাংকের নওয়াপাড়া শাখায় লেনদেন চলাকালে এ ঘটনা ঘটে।

সোনালী ব্যাংকের ম্যানেজার এএসএম শামছুদ্দীন আহমেদ শামীম জানান, বৃহস্পতিবার দুপুরের পরপরই নওয়াপাড়া শহরের মেসার্স তানজীর ট্রেডার্সের একজন কর্মকর্তা ২৬ লাখ টাকা ব্যাংকে জমা দেয়ার উদ্দেশ্যে ক্যাশ কাউন্টারে দাঁড়ান। এ সময় একজন চোর টাকার ব্যাগটিকে আড়াল করে কেটে পাঁচ হাজার টাকা হাতিয়ে নেয়।

তিনি জানান, বিষয়টি ক্যাশ কর্মকর্তা মো. রুহুল আমিনের চোখে পড়লে তিনি চোর চোর বলে চিৎকার দিলে ব্যাংক ম্যানেজার দ্রুতগতিতে ব্যাংকের প্রধান গেট বন্ধ করার নির্দেশ দেন। ম্যানেজারের নির্দেশ পেয়ে নিরাপত্তার দায়িত্বে থাকা আনসার-ভিডিপি সদস্যরা ব্যাংকের প্রধান গেট বন্ধ করে দেন। পরে চোরটিকে আটক করে অভয়নগর থানা পুলিশে খবর দেয় ব্যাংক কর্তৃপক্ষ।

বিষয়টি সম্পর্কে থানার ওসি মো. তাজুল ইসলাম যুগান্তরকে জানান, সংবাদ পেয়ে সোনালী ব্যাংক থেকে মো. রিপন (৫০) নামের এক ব্যক্তিকে আটক করা হয়েছে।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন