নিখোঁজের ৪ দিন পর খালে মিলল শিশুশ্রমিকের লাশ 
jugantor
নিখোঁজের ৪ দিন পর খালে মিলল শিশুশ্রমিকের লাশ 

  কাশিয়ানী (গোপালগঞ্জ) প্রতিনিধি  

০৬ নভেম্বর ২০২০, ১৪:১৪:৩৩  |  অনলাইন সংস্করণ

শামীম মিয়া

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে নিখোঁজের চার দিন পর খাল থেকে শামীম মিয়া (১২) নামে এক শিশুর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার তালতলা এলাকার একটি খালে তার লাশ দেখে স্থানীয়রা থানায় খবর দেন।

পরে পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠায়।

শামীম মিয়া উপজেলার সাফলীডাঙ্গা গ্রামের মো. আরিফ মিয়ার ছেলে। পেশায় সে ভ্যানচালক ছিল।

স্থানীয়রা জানান, ২ নভেম্বর সকালে ভ্যান নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়। রাতে বাড়িতে ফিরে না আসায় আত্মীয়স্বজনরা বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজিকরে না পেয়ে পরের দিন কাশিয়ানী থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন।

কাশিয়ানী থানার ওসি মো. আজিজুর রহমান যুগান্তরকে বলেন, গত ২ নভেম্বর সকালে শামীম অটোভ্যান নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়। এর পরসে আর বাড়িতে ফিরে আসেনি। বৃহস্পতিবার তালতলা গ্রামের একটি খালের মধ্যে শামীমের লাশ ভাসতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দেন।

পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গোপালগঞ্জ ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। তবে কে বা কারা কী কারণে শিশুটিকে হত্যা করেছেতাএখনও জানা যায়নি।

নিখোঁজের ৪ দিন পর খালে মিলল শিশুশ্রমিকের লাশ 

 কাশিয়ানী (গোপালগঞ্জ) প্রতিনিধি 
০৬ নভেম্বর ২০২০, ০২:১৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
শামীম মিয়া
শামীম মিয়া। ছবি-যুগান্তর

গোপালগঞ্জের কাশিয়ানীতে নিখোঁজের চার দিন পর খাল থেকে শামীম মিয়া (১২) নামে এক শিশুর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। 

বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার তালতলা এলাকার একটি খালে তার লাশ দেখে স্থানীয়রা থানায় খবর দেন। 

পরে পুলিশ এসে লাশ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠায়। 

শামীম মিয়া উপজেলার সাফলীডাঙ্গা গ্রামের মো. আরিফ মিয়ার ছেলে। পেশায় সে ভ্যানচালক ছিল। 

স্থানীয়রা জানান, ২ নভেম্বর সকালে ভ্যান নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়। রাতে বাড়িতে ফিরে না আসায় আত্মীয়স্বজনরা বিভিন্ন স্থানে খোঁজাখুঁজি করে না পেয়ে পরের দিন কাশিয়ানী থানায় একটি সাধারণ ডায়েরি (জিডি) করেন।

কাশিয়ানী থানার ওসি মো. আজিজুর রহমান যুগান্তরকে বলেন, গত ২ নভেম্বর সকালে শামীম অটোভ্যান নিয়ে বাড়ি থেকে বের হয়। এর পর সে আর বাড়িতে ফিরে আসেনি। বৃহস্পতিবার তালতলা গ্রামের একটি খালের মধ্যে শামীমের লাশ ভাসতে দেখে স্থানীয়রা পুলিশকে খবর দেন। 

পরে পুলিশ ঘটনাস্থলে গিয়ে লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য গোপালগঞ্জ ২৫০ শয্যাবিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠায়। তবে কে বা কারা কী কারণে শিশুটিকে হত্যা করেছে তা এখনও জানা যায়নি। 

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন