‘ইয়াবা সেবনের সময়’ পুকুরে পড়ে যুবকের মৃত্যু 
jugantor
‘ইয়াবা সেবনের সময়’ পুকুরে পড়ে যুবকের মৃত্যু 

  ব্রাহ্মণপাড়া (কুমিল্লা) প্রতিনিধি  

০৬ নভেম্বর ২০২০, ১৫:১৯:০৫  |  অনলাইন সংস্করণ

কুমিল্লার বুড়িচংয়ে পুকুর থেকে আবদুর রউফ মিয়া নামে এক যুবকের লাশ উদ্ধার করেছেন এলাকাবাসী।

বৃহস্পতিবার উপজেলার পীরযাত্রাপুর গ্রামের একটি পুকুর থেকে তার লাশ উদ্ধার করে বিকালেই দাফন করা হয়েছে।

আবদুর রউফ ওই গ্রামের মৃত সামাদ মিয়ার ছেলে। তিনি মাদকসেবী ও মৃগী রোগে আক্রান্ত ছিলেন বলে জানিয়েছে পরিবার।

পরিবার ও এলাকাবাসীর ভাষ্য, বুধবার রাত ১১টার দিকে রউফ মিয়া স্থানীয় এক চায়ের দোকানে আড্ডা শেষে বাড়ি ফিরছিল। তাদের ধারণা, বাড়ির পাশের ওই পুকুর পাড়ে বসে তিনি ইয়াবা সেবন করেন। ওই সময় মৃগী রোগ জোর দিলে তিনি পুকুরের পানিতে পড়ে মারা যান।

বৃহস্পতিবার বাদ আসর রউফ মিয়াকে জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে।

পীরযাত্রাপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জাকির হোসেন জাহের যুগান্তরকে বলেন, রউফ মাদকসেবী ও মৃগী রোগী ছিলেন। ঘটনার দিন রাতে পুকুর পাড়ে বসে মাদক সেবনের সময় হয়তো পুকুরে পড়ে মারা গেছে বলে ধারণা করছি।

পরিবারের কোনো অভিযোগ না থাকায় পুলিশকে না জানিয়ে লাশ দাফন করা হয়েছে বলে জানান তিনি।

‘ইয়াবা সেবনের সময়’ পুকুরে পড়ে যুবকের মৃত্যু 

 ব্রাহ্মণপাড়া (কুমিল্লা) প্রতিনিধি 
০৬ নভেম্বর ২০২০, ০৩:১৯ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

কুমিল্লার বুড়িচংয়ে পুকুর থেকে আবদুর রউফ মিয়া নামে এক যুবকের লাশ উদ্ধার করেছেন এলাকাবাসী। 

বৃহস্পতিবার উপজেলার পীরযাত্রাপুর গ্রামের একটি পুকুর থেকে তার লাশ উদ্ধার করে বিকালেই দাফন করা হয়েছে। 

আবদুর রউফ ওই গ্রামের মৃত সামাদ মিয়ার ছেলে। তিনি মাদকসেবী ও মৃগী রোগে আক্রান্ত ছিলেন বলে জানিয়েছে পরিবার। 

পরিবার ও এলাকাবাসীর ভাষ্য, বুধবার রাত ১১টার দিকে রউফ মিয়া স্থানীয় এক চায়ের দোকানে আড্ডা শেষে বাড়ি ফিরছিল। তাদের ধারণা, বাড়ির পাশের ওই পুকুর পাড়ে বসে তিনি ইয়াবা সেবন করেন। ওই সময় মৃগী রোগ জোর দিলে তিনি পুকুরের পানিতে পড়ে মারা যান। 

বৃহস্পতিবার বাদ আসর রউফ মিয়াকে জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাফন করা হয়েছে। 

পীরযাত্রাপুর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান জাকির হোসেন জাহের যুগান্তরকে বলেন, রউফ মাদকসেবী ও মৃগী রোগী ছিলেন। ঘটনার দিন রাতে পুকুর পাড়ে বসে মাদক সেবনের সময় হয়তো পুকুরে পড়ে মারা গেছে বলে ধারণা করছি। 

পরিবারের কোনো অভিযোগ না থাকায় পুলিশকে না জানিয়ে লাশ দাফন করা হয়েছে বলে জানান তিনি।  

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন