সিনহা হত্যা: মামলা বাতিল চেয়ে করা রিভিশনের শুনানি ফের পেছাল
jugantor
সিনহা হত্যা: মামলা বাতিল চেয়ে করা রিভিশনের শুনানি ফের পেছাল

  কক্সবাজার প্রতিনিধি  

১০ নভেম্বর ২০২০, ২২:৫০:৪৮  |  অনলাইন সংস্করণ

মেজর (অব.) সিনহা মো. রাশেদ খান হত্যা মামলা বাতিল চেয়ে কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতে করা রিভিশন আবেদনের গ্রহণযোগ্যতা নিয়ে শুনানি পিছিয়ে ১৩ ডিসেম্বর করা হয়েছে।

মামলার প্রধান আসামি লিয়াকত আলীর পক্ষে করা রিভিশন আবেদনটির আইনজীবী শুনানির জন্য আদালতে সময় প্রার্থনা করায় জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ ইসমাইল এদিন ধার্য করেন। মঙ্গলবার রিভিশন আবেদনটির গ্রহণযোগ্যতা নিয়ে শুনানির জন্য দিন ধার্য ছিল।

কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের পিপি অ্যাডভোকেট ফরিদুল আলম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

রাষ্ট্রপক্ষ ও বাদী শারমিন শাহরিয়ার ফেরদৌসের পক্ষে রিভিশন আবেদনটির আংশিক শুনানি হয়।

লিয়াকত আলীর পক্ষে অ্যাডভোকেট মো. ফারহান শাহরিয়ার বিন নুর ও অ্যাডভোকেট মাহমুদুল হক (মাহমুদ) ৪ অক্টোবর কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতে রিভিশন আবেদনটি করেছিলেন।

২০ অক্টোবর রিভিশন আবেদন ত্রিপক্ষীয় শুনানির মাধ্যমে আদেশের দিন ধার্য ছিল। অ্যাডভোকেট মো. ফারহান শাহরিয়ার বিন নুর রিভিশন আবেদনটি লিয়াকত আলীর পক্ষে আদালতে দায়ের করলেও কুমিল্লা আইনজীবী সমিতির সদস্য অ্যাডভোকেট মাসুদ সালাহ উদ্দিন ও কুমিল্লার অ্যাডভোকেট এমএম হাসান আদনান রিভিশন আবেদনটি দায়েরের দিন ৪ অক্টোবর ও ২০ অক্টোবর আদালতে শুনানি করেন।

গত ঈদুল আজহার আগের রাতে (৩১ জুলাই) কক্সবাজারের টেকনাফের কাছে বাহারছড়া চেকপোস্টে পুলিশের গুলিতে নিহত হন সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান।

৫ আগস্ট নিহত সিনহার বোন শারমিন শাহরিয়া ফেরদৌস বাদী হয়ে কক্সবাজার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে পরিদর্শক লিয়াকত আলীকে প্রধান, ওসি প্রদীপ কুমার দাশকে দুই নম্বর আসামি করে ৯ জনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের করেন।

৬ আগস্ট বরখাস্ত হওয়া ওসি প্রদীপসহ সাত আসামি কক্সবাজার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে আত্মসমর্পণ করেন। এ পর্যন্ত এই হত্যা মামলায় ১৩ জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।

সিনহা হত্যা: মামলা বাতিল চেয়ে করা রিভিশনের শুনানি ফের পেছাল

 কক্সবাজার প্রতিনিধি 
১০ নভেম্বর ২০২০, ১০:৫০ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

মেজর (অব.) সিনহা মো. রাশেদ খান হত্যা মামলা বাতিল চেয়ে কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতে করা রিভিশন আবেদনের গ্রহণযোগ্যতা নিয়ে শুনানি পিছিয়ে ১৩ ডিসেম্বর করা হয়েছে।

মামলার প্রধান আসামি লিয়াকত আলীর পক্ষে করা রিভিশন আবেদনটির আইনজীবী শুনানির জন্য আদালতে সময় প্রার্থনা করায় জেলা ও দায়রা জজ মোহাম্মদ ইসমাইল এদিন ধার্য করেন। মঙ্গলবার রিভিশন আবেদনটির গ্রহণযোগ্যতা নিয়ে শুনানির জন্য দিন ধার্য ছিল।

কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতের পিপি অ্যাডভোকেট ফরিদুল আলম বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

রাষ্ট্রপক্ষ ও বাদী শারমিন শাহরিয়ার ফেরদৌসের পক্ষে রিভিশন আবেদনটির আংশিক শুনানি হয়।

লিয়াকত আলীর পক্ষে অ্যাডভোকেট মো. ফারহান শাহরিয়ার বিন নুর ও অ্যাডভোকেট মাহমুদুল হক (মাহমুদ) ৪ অক্টোবর কক্সবাজার জেলা ও দায়রা জজ আদালতে রিভিশন আবেদনটি করেছিলেন।

২০ অক্টোবর রিভিশন আবেদন ত্রিপক্ষীয় শুনানির মাধ্যমে আদেশের দিন ধার্য ছিল। অ্যাডভোকেট মো. ফারহান শাহরিয়ার বিন নুর রিভিশন আবেদনটি লিয়াকত আলীর পক্ষে আদালতে দায়ের করলেও কুমিল্লা আইনজীবী সমিতির সদস্য অ্যাডভোকেট মাসুদ সালাহ উদ্দিন ও কুমিল্লার অ্যাডভোকেট এমএম হাসান আদনান রিভিশন আবেদনটি দায়েরের দিন ৪ অক্টোবর ও ২০ অক্টোবর আদালতে শুনানি করেন।

গত ঈদুল আজহার আগের রাতে (৩১ জুলাই) কক্সবাজারের টেকনাফের কাছে বাহারছড়া চেকপোস্টে পুলিশের গুলিতে নিহত হন সেনাবাহিনীর অবসরপ্রাপ্ত মেজর সিনহা মোহাম্মদ রাশেদ খান।

৫ আগস্ট নিহত সিনহার বোন শারমিন শাহরিয়া ফেরদৌস বাদী হয়ে কক্সবাজার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে পরিদর্শক লিয়াকত আলীকে প্রধান, ওসি প্রদীপ কুমার দাশকে দুই নম্বর আসামি করে ৯ জনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের করেন।

৬ আগস্ট বরখাস্ত হওয়া ওসি প্রদীপসহ সাত আসামি কক্সবাজার সিনিয়র জুডিশিয়াল ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে আত্মসমর্পণ করেন। এ পর্যন্ত এই হত্যা মামলায় ১৩ জনকে গ্রেফতার করেছে র‌্যাব।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন

ঘটনাপ্রবাহ : মেজর সিনহার মৃত্যু

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন