নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রশাসনিক ভবনে তালা ঝুলিয়ে শিক্ষার্থীদের অবস্থান
jugantor
নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রশাসনিক ভবনে তালা ঝুলিয়ে শিক্ষার্থীদের অবস্থান

  ত্রিশাল (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি    

০৭ ডিসেম্বর ২০২০, ২০:৫৩:২৯  |  অনলাইন সংস্করণ

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে সোমবার সকালে স্নাতক শেষবর্ষের শিক্ষার্থীরা প্রশাসনিক ভবনে তালা লাগিয়ে চূড়ান্ত পরীক্ষার দাবিতে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন।

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে সোমবার সকালে স্নাতক শেষবর্ষের শিক্ষার্থীরা প্রশাসনিক ভবনে তালা লাগিয়ে চূড়ান্ত পরীক্ষার দাবিতে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন।

৬ ডিসেম্বর ইউজিসির বোর্ড সভা থাকলেও আশানুরূপ কোনো সিদ্ধান্তের খবর না পাওয়ায় শিক্ষার্থীরা আন্দোলনে নেমেছেন। আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা বলেন, জাহাঙ্গীরনগর ও কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে ইতোমধ্যে পরীক্ষা নেয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। তাহলে আমাদের বিশ্ববিদ্যালয় স্থির কেন? এ সময় তারা আগামী সপ্তাহে তাদের চূড়ান্ত পরীক্ষার সম্ভাব্য তারিখ চান এবং নোটিশ আকারে প্রকাশ করতে বলেন।

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. এএইচএম মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, আগামী রোববার ইউজিসির একটি ভার্চুয়াল প্রোগ্রামে সব উপাচার্য মহোদয় একত্রিত হয়ে শেষবর্ষের পরীক্ষার বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানাবেন। উপাচার্য নিশ্চিত করেছেন যে, স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষা নেয়া হবে; তবে আনুষ্ঠানিক সিদ্ধান্ত আগামী রোববার।

নজরুল বিশ্ববিদ্যালয়ে প্রশাসনিক ভবনে তালা ঝুলিয়ে শিক্ষার্থীদের অবস্থান

 ত্রিশাল (ময়মনসিংহ) প্রতিনিধি   
০৭ ডিসেম্বর ২০২০, ০৮:৫৩ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে সোমবার সকালে স্নাতক শেষবর্ষের শিক্ষার্থীরা প্রশাসনিক ভবনে তালা লাগিয়ে চূড়ান্ত পরীক্ষার দাবিতে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন।
জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে সোমবার সকালে স্নাতক শেষবর্ষের শিক্ষার্থীরা প্রশাসনিক ভবনে তালা লাগিয়ে চূড়ান্ত পরীক্ষার দাবিতে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন।

জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলাম বিশ্ববিদ্যালয়ে সোমবার সকালে স্নাতক শেষবর্ষের শিক্ষার্থীরা প্রশাসনিক ভবনে তালা লাগিয়ে চূড়ান্ত পরীক্ষার দাবিতে অবস্থান কর্মসূচি পালন করেন।

 

৬ ডিসেম্বর ইউজিসির বোর্ড সভা থাকলেও আশানুরূপ কোনো সিদ্ধান্তের খবর না পাওয়ায় শিক্ষার্থীরা আন্দোলনে নেমেছেন। আন্দোলনরত শিক্ষার্থীরা বলেন, জাহাঙ্গীরনগর ও কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ে ইতোমধ্যে পরীক্ষা নেয়ার সিদ্ধান্ত হয়েছে। তাহলে আমাদের বিশ্ববিদ্যালয় স্থির কেন? এ সময় তারা আগামী সপ্তাহে তাদের চূড়ান্ত পরীক্ষার সম্ভাব্য তারিখ চান এবং নোটিশ আকারে প্রকাশ করতে বলেন।

 

বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্য প্রফেসর ড. এএইচএম মোস্তাফিজুর রহমান বলেন, আগামী রোববার ইউজিসির একটি ভার্চুয়াল প্রোগ্রামে সব উপাচার্য মহোদয় একত্রিত হয়ে শেষবর্ষের পরীক্ষার বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত জানাবেন। উপাচার্য নিশ্চিত করেছেন যে, স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষা নেয়া হবে; তবে আনুষ্ঠানিক সিদ্ধান্ত আগামী রোববার।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন