নগইতে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে গবেষণা সমীক্ষা চালাতে হবে: পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী
jugantor
নগইতে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে গবেষণা সমীক্ষা চালাতে হবে: পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী

  ফরিদপুর ব্যুরো  

২৪ ডিসেম্বর ২০২০, ২২:৩৭:১৭  |  অনলাইন সংস্করণ

পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক বলেছেন, নদী গবেষণা ইন্সটিটিউট (নগই) ফরিদপুরে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে স্বীকৃত গবেষণা সমীক্ষা চালাতে হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০৪১ সালের মধ্যে দেশকে সমৃদ্ধশালী করে গড়ে তোলার যে মহাপরিকল্পনা গ্রহণ করেছেন তা বাস্তবায়নে নগই ফরিদপুরের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। এ গবেষণা প্রতিষ্ঠানটি আরও কার্যকর দেখতে চাই।

বৃহস্পতিবার বিকালে ফরিদপুরের নদী গবেষণা ইন্সটিটিউটের হলরুমে প্রতিষ্ঠানটির কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সঙ্গে এক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মতবিনিময় সভায় নগইয়ের মহাপরিচালক মো. আলিমুদ্দিনের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন- বিশেষ অতিথি পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মো. রোকন উদ-দৌলা, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সামসুল হক ভোলা, জেলা প্রশাসক অতুল সরকার ও পুলিশ সুপার মো. আলিমুজ্জামান।
পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক প্রতিষ্ঠানটির বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তাদের উদ্দেশে বলেন, আপনারা গবেষণা ও সমীক্ষার মান উন্নয়ন করুন। আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে স্বীকৃতি পায় এমন গবেষণাকর্ম আপনাদের করতে হবে। নগই যেসব ফিজিক্যাল ও ম্যাথমেটিক্যাল সমীক্ষা করে সে ব্যাপারে যেন কোনো প্রশ্ন না উঠে।

তিনি জানান, উপকূল রক্ষায় বিশ্বব্যাংক ১০২ কোটি টাকা ব্যয়ে একটি সমীক্ষা চালাচ্ছে। নগই থাকতে কেন তারা এ কাজ করবে? এ কাজ নগই করলে তাতে আপনারাই লাভবান হতেন।

এ সময় প্রতিমন্ত্রী দেশের বড় বড় নদীতে প্রতি বছর চর পড়ে নাব্যতা হ্রাস ও নৌপথ আটকে যাওয়ার বিষয়টি তুলে ধরে বলেন, একেক সময়ে একেক স্থানে কেন চর পড়ছে এ বিষয়টি আপনারা গবেষণা করে বের করুন।

এ সময় জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সুবল চন্দ্র সাহা, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাসুদুর রহমান, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক আইভি মাসুদ, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক মোল্যা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

নগইতে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে গবেষণা সমীক্ষা চালাতে হবে: পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী

 ফরিদপুর ব্যুরো 
২৪ ডিসেম্বর ২০২০, ১০:৩৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক বলেছেন, নদী গবেষণা ইন্সটিটিউট (নগই) ফরিদপুরে আন্তর্জাতিক পর্যায়ে স্বীকৃত গবেষণা সমীক্ষা চালাতে হবে। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২০৪১ সালের মধ্যে দেশকে সমৃদ্ধশালী করে গড়ে তোলার যে মহাপরিকল্পনা গ্রহণ করেছেন তা বাস্তবায়নে নগই ফরিদপুরের গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রয়েছে। এ গবেষণা প্রতিষ্ঠানটি আরও কার্যকর দেখতে চাই।

বৃহস্পতিবার বিকালে ফরিদপুরের নদী গবেষণা ইন্সটিটিউটের হলরুমে প্রতিষ্ঠানটির কর্মকর্তা-কর্মচারীদের সঙ্গে এক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

মতবিনিময় সভায় নগইয়ের মহাপরিচালক মো. আলিমুদ্দিনের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন- বিশেষ অতিথি পানিসম্পদ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব মো. রোকন উদ-দৌলা, জেলা পরিষদের চেয়ারম্যান সামসুল হক ভোলা, জেলা প্রশাসক অতুল সরকার ও পুলিশ সুপার মো. আলিমুজ্জামান। 
পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ ফারুক প্রতিষ্ঠানটির বৈজ্ঞানিক কর্মকর্তাদের উদ্দেশে বলেন, আপনারা গবেষণা ও সমীক্ষার মান উন্নয়ন করুন। আন্তর্জাতিক পরিমণ্ডলে স্বীকৃতি পায় এমন গবেষণাকর্ম আপনাদের করতে হবে। নগই যেসব ফিজিক্যাল ও ম্যাথমেটিক্যাল সমীক্ষা করে সে ব্যাপারে যেন কোনো প্রশ্ন না উঠে।

তিনি জানান, উপকূল রক্ষায় বিশ্বব্যাংক ১০২ কোটি টাকা ব্যয়ে একটি সমীক্ষা চালাচ্ছে। নগই থাকতে কেন তারা এ কাজ করবে? এ কাজ নগই করলে তাতে আপনারাই লাভবান হতেন।

এ সময় প্রতিমন্ত্রী দেশের বড় বড় নদীতে প্রতি বছর চর পড়ে নাব্যতা হ্রাস ও নৌপথ আটকে যাওয়ার বিষয়টি তুলে ধরে বলেন, একেক সময়ে একেক স্থানে কেন চর পড়ছে এ বিষয়টি আপনারা গবেষণা করে বের করুন।

এ সময় জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি সুবল চন্দ্র সাহা, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাসুদুর রহমান, মহিলা বিষয়ক সম্পাদক আইভি মাসুদ, সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আব্দুর রাজ্জাক মোল্যা প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন