বিষপানে কলেজছাত্রের আত্মহত্যা, কারণ নিয়ে বিতর্ক
jugantor
বিষপানে কলেজছাত্রের আত্মহত্যা, কারণ নিয়ে বিতর্ক

  কালকিনি (মাদারীপুর) প্রতিনিধি  

২৮ ডিসেম্বর ২০২০, ১৯:৩৬:৪৭  |  অনলাইন সংস্করণ

মাদারীপুরের কালকিনিতে মো. রাব্বি মুন্সি (১৭) নামে এক কলেজছাত্র বিষপানে আত্মহত্যা করেছে। তবে আত্মহত্যার কারণ নিয়ে দেখা দিয়েছে বিতর্ক।

নিহতের পরিবারের দাবি, তালাকপ্রাপ্তা কিশোরীর যন্ত্রণায় আত্মহত্যা করেছে রাব্বি। তবে ওই কিশোরী দাবি করেছে, তাকে বিয়ে করতে চেয়েছিল রাব্বি।

সোমবার ভোরে ওই কলেজছাত্রের চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয়েছে। নিহত রাব্বি উপজেলার ডাসার ডিকে আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজের এইচএসসির প্রথম বর্ষের ছাত্র।

নিহতের পরিবার ও এলাকা সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার পূর্বমাইজপাড়া গ্রামের সেলিম মিয়ার কলেজপড়ুয়া ছেলে রাব্বি মুন্সি রোববার সন্ধ্যার পরে তার নিজ ঘরে বসে বিষপান করে। পরে তাকে পরিবারের লোকজন গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় মাদারীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। কিন্তু সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

নিহত কলেজছাত্রের বাবা সেলিম মিয়া বলেন, আমাদের পাশের বাড়ির একটি মেয়ে প্রতিনিয়ত আমাদের বাড়িতে যাতায়াত করত। ওই মেয়েটি তালাকপ্রাপ্তা। সে বিভিন্ন সময় আমার ছেলের কাছে জোরপূর্বক বিয়ে বসার জন্য জ্বালাতন করত। কিন্তু আমার ছেলে এত তাড়াতাড়ি কাউকে বিয়ে করতে রাজি হয়নি। ওই মেয়ের যন্ত্রণা থেকে রেহাই পেতেই আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছে আমার ছেলে।

অভিযুক্ত ওই কিশোরী উল্টো অভিযোগ করে বলেন, আমাকে বিয়ে করার জন্য রাব্বি প্রস্তাব দিয়েছে; কিন্তু আমি রাজি হয়নি। সে কিসের জন্য আত্মহত্যা করেছে সেটা আমি জানি না।

এ ব্যাপারে উপজেলার ডাসার থানার ওসি মুহাম্মদ আবদুল ওহাব বলেন, কলেজছাত্রের আত্মহত্যার বিষয়টি আমি জেনেছি। তার লাশ বরিশাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

বিষপানে কলেজছাত্রের আত্মহত্যা, কারণ নিয়ে বিতর্ক

 কালকিনি (মাদারীপুর) প্রতিনিধি 
২৮ ডিসেম্বর ২০২০, ০৭:৩৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

মাদারীপুরের কালকিনিতে মো. রাব্বি মুন্সি (১৭) নামে এক কলেজছাত্র বিষপানে আত্মহত্যা করেছে। তবে আত্মহত্যার কারণ নিয়ে দেখা দিয়েছে বিতর্ক।

নিহতের পরিবারের দাবি, তালাকপ্রাপ্তা কিশোরীর যন্ত্রণায় আত্মহত্যা করেছে রাব্বি। তবে ওই কিশোরী দাবি করেছে, তাকে বিয়ে করতে চেয়েছিল রাব্বি।

সোমবার ভোরে ওই কলেজছাত্রের চিকিৎসাধীন অবস্থায় মৃত্যু হয়েছে। নিহত রাব্বি উপজেলার ডাসার ডিকে আইডিয়াল স্কুল অ্যান্ড কলেজের এইচএসসির প্রথম বর্ষের ছাত্র।

নিহতের পরিবার ও এলাকা সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার পূর্বমাইজপাড়া গ্রামের সেলিম মিয়ার কলেজপড়ুয়া ছেলে রাব্বি মুন্সি রোববার সন্ধ্যার পরে তার নিজ ঘরে বসে বিষপান করে। পরে তাকে পরিবারের লোকজন গুরুতর অসুস্থ অবস্থায় মাদারীপুর সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। কিন্তু সেখানে তার অবস্থার অবনতি হলে বরিশাল শেরেবাংলা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

নিহত কলেজছাত্রের বাবা সেলিম মিয়া বলেন, আমাদের পাশের বাড়ির একটি মেয়ে প্রতিনিয়ত আমাদের বাড়িতে যাতায়াত করত। ওই মেয়েটি তালাকপ্রাপ্তা। সে বিভিন্ন সময় আমার ছেলের কাছে জোরপূর্বক বিয়ে বসার জন্য জ্বালাতন করত। কিন্তু আমার ছেলে এত তাড়াতাড়ি কাউকে বিয়ে করতে রাজি হয়নি। ওই মেয়ের যন্ত্রণা থেকে রেহাই পেতেই আত্মহত্যার পথ বেছে নিয়েছে আমার ছেলে।

অভিযুক্ত ওই কিশোরী উল্টো অভিযোগ করে বলেন, আমাকে বিয়ে করার জন্য রাব্বি প্রস্তাব দিয়েছে; কিন্তু আমি রাজি হয়নি। সে কিসের জন্য আত্মহত্যা করেছে সেটা আমি জানি না।

এ ব্যাপারে উপজেলার ডাসার থানার ওসি মুহাম্মদ আবদুল ওহাব বলেন, কলেজছাত্রের আত্মহত্যার বিষয়টি আমি জেনেছি। তার লাশ বরিশাল মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন