দাগনভূঞায় অপহরণের তিন দিন পর কিশোরী উদ্ধার, গ্রেফতার ২
jugantor
দাগনভূঞায় অপহরণের তিন দিন পর কিশোরী উদ্ধার, গ্রেফতার ২

  দাগনভূঞা (ফেনী) প্রতিনিধি  

১৩ জানুয়ারি ২০২১, ১৮:৩১:৪৯  |  অনলাইন সংস্করণ

গ্রেফতার

দাগনভূঞায় অপহরণের তিন দিন পর অপহৃত এক কিশোরীকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় পৌর শহরের জিরোপয়েন্ট থেকে অপহরণকারী রবিউল হোসেন (২০) ও আবদুল মতিনকে (৩৫) গ্রেফতার করে পুলিশ। তারা উপজেলার উত্তর চন্ডিপুর গ্রামের মৌলভীবাড়ির মৃত আবদুর রাজ্জাকের ছেলে।

পুলিশ সূত্র জানায়, প্রেমের প্রস্তাব ও বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ১৩ বছর বয়সী মাদ্রাসা পড়ুয়া ছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করতো রবিউল হোসেন। গত ৯ জানুয়ারি বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে বাড়ি থেকে বের করে চট্টগ্রাম নিয়ে যায় বখাটে রবিউল। মেয়েটির মা ও স্বজনরা পুলিশকে অবহিত করলে অভিযান চালিয়ে অপহৃত মাদ্রাসা পড়ুয়া কিশোরীকে উদ্ধার করে। কিশোরীকে জিজ্ঞাসাবাদে আসামিদের বিরুদ্ধে মামলার তদন্ত ও পলাতক আসামিদের গ্রেফতার অব্যাহত রয়েছে বলে জানায় পুলিশ। কিশোরীর মা বিবি খোদেজা ৫ জনকে আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করেন।

দাগনভূঞা থানার ওসি মো. ইমতিয়াজ আহমেদ জানান, গ্রেফতারকৃত ২ আসামিকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

দাগনভূঞায় অপহরণের তিন দিন পর কিশোরী উদ্ধার, গ্রেফতার ২

 দাগনভূঞা (ফেনী) প্রতিনিধি 
১৩ জানুয়ারি ২০২১, ০৬:৩১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
গ্রেফতার
গ্রেফতার

দাগনভূঞায় অপহরণের তিন দিন পর অপহৃত এক কিশোরীকে উদ্ধার করেছে পুলিশ। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় পৌর শহরের জিরোপয়েন্ট থেকে অপহরণকারী রবিউল হোসেন (২০) ও আবদুল মতিনকে (৩৫) গ্রেফতার করে পুলিশ। তারা উপজেলার উত্তর চন্ডিপুর গ্রামের মৌলভীবাড়ির মৃত আবদুর রাজ্জাকের ছেলে।

পুলিশ সূত্র জানায়, প্রেমের প্রস্তাব ও বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে ১৩ বছর বয়সী মাদ্রাসা পড়ুয়া ছাত্রীকে উত্ত্যক্ত করতো রবিউল হোসেন। গত ৯ জানুয়ারি বিয়ের প্রলোভন দেখিয়ে বাড়ি থেকে বের করে চট্টগ্রাম নিয়ে যায় বখাটে রবিউল। মেয়েটির মা ও স্বজনরা পুলিশকে অবহিত করলে অভিযান চালিয়ে অপহৃত মাদ্রাসা পড়ুয়া কিশোরীকে উদ্ধার করে। কিশোরীকে জিজ্ঞাসাবাদে আসামিদের বিরুদ্ধে মামলার তদন্ত ও পলাতক আসামিদের গ্রেফতার অব্যাহত রয়েছে বলে জানায় পুলিশ। কিশোরীর মা বিবি খোদেজা ৫ জনকে আসামি করে থানায় মামলা দায়ের করেন।

দাগনভূঞা থানার ওসি মো. ইমতিয়াজ আহমেদ জানান, গ্রেফতারকৃত ২ আসামিকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে প্রেরণ করা হয়েছে।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন