আপনাদের বাংলার মাটি থেকে নির্মূল করব: কৃষিমন্ত্রী
jugantor
আপনাদের বাংলার মাটি থেকে নির্মূল করব: কৃষিমন্ত্রী

  গাজীপুর প্রতিনিধি  

১৪ জানুয়ারি ২০২১, ১৯:৫২:৫৯  |  অনলাইন সংস্করণ

কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক বলেছেন, যারা বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙতে চায় তারা আসলে বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ভাঙতে চায়। এরা পাকিস্তানের পা-চাটা, এরা উচ্ছিষ্ট, এরা বাংলাদেশকে ১৯৪৭ সালে নিয়ে যেতে চায়। আমি তাদের হুশিয়ার করে বলতে চাই- আপনারা আপনাদের লক্ষ্য অর্জনে সফল হবেন না। আমরা আপনাদের বাংলার মাটি থেকে নির্মূল করব।

বৃহস্পতিবার গাজীপুরে বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের (ব্রি) বার্ষিক গবেষণা পর্যালোচনা কর্মশালা ২০১৯-২০২০-এর উদ্বোধনী সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

ব্রি'র বিজ্ঞানীদের উদ্দেশে মন্ত্রী বলেন, দেশের বর্ধিত জনসংখ্যার চাহিদা পূরণের লক্ষ্যে ধান উৎপাদন আরও বাড়ানোর পাশাপাশি কৃষকের জীবনযাত্রার মান উন্নয়নের লক্ষ্যে কাজ করুন। ধানি জমিতে ফসল বাড়ানো, ফসলের উন্নত প্রক্রিয়াজাতকরণ, উন্নত পুষ্টিগুণসম্পন্ন নিরাপদ রপ্তানি সম্ভাবনাময় ধানের জাত উদ্ভাবনেও গুরুত্বারোপ করুন।

তিনি বলেন, প্রতি বর্গকিলোমিটারে সর্বাধিক ঘনবসতির দেশ হওয়া সত্ত্বেও ব্রি'র বিজ্ঞানীদের কল্যাণে দেশ খাদ্য উৎপাদনে স্বনির্ভর হলেও এখন নতুন চ্যালেঞ্জ সামনে এসেছে। তাই উন্নত প্রযুক্তি ব্যবহার করে কৃষির যথাযথ যান্ত্রিকায়ন ও বাণিজ্যিকীকরণ এবং ধান উৎপাদনসহ সার্বিক কৃষি উৎপাদন ব্যবস্থাকে কৃষকের জন্য লাভজনক করতে হবে। এজন্য বিভিন্ন প্রকল্প ও কর্মসূচি বাস্তবায়নের ওপর তিনি গুরুত্বারোপ করেন।

ব্রি'র মহাপরিচালক ড. মো. শাহজাহান কবীরের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল, গাজীপুর সিটি করপোরেশনের মেয়র অ্যাডভোকেট মো. জাহাঙ্গীর আলম, কৃষি মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মেসবাহুল ইসলাম।

আপনাদের বাংলার মাটি থেকে নির্মূল করব: কৃষিমন্ত্রী

 গাজীপুর প্রতিনিধি 
১৪ জানুয়ারি ২০২১, ০৭:৫২ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

কৃষিমন্ত্রী ড. আব্দুর রাজ্জাক বলেছেন, যারা বঙ্গবন্ধুর ভাস্কর্য ভাঙতে চায় তারা আসলে বঙ্গবন্ধুর আদর্শকে ভাঙতে চায়। এরা পাকিস্তানের পা-চাটা, এরা উচ্ছিষ্ট, এরা বাংলাদেশকে ১৯৪৭ সালে নিয়ে যেতে চায়। আমি তাদের হুশিয়ার করে বলতে চাই- আপনারা আপনাদের লক্ষ্য অর্জনে সফল হবেন না। আমরা আপনাদের বাংলার মাটি থেকে নির্মূল করব।

বৃহস্পতিবার গাজীপুরে বাংলাদেশ ধান গবেষণা ইনস্টিটিউটের (ব্রি) বার্ষিক গবেষণা পর্যালোচনা কর্মশালা ২০১৯-২০২০-এর উদ্বোধনী সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

ব্রি'র বিজ্ঞানীদের উদ্দেশে মন্ত্রী বলেন, দেশের বর্ধিত জনসংখ্যার চাহিদা পূরণের লক্ষ্যে ধান উৎপাদন আরও বাড়ানোর পাশাপাশি কৃষকের জীবনযাত্রার মান উন্নয়নের লক্ষ্যে কাজ করুন। ধানি জমিতে ফসল বাড়ানো, ফসলের উন্নত প্রক্রিয়াজাতকরণ, উন্নত পুষ্টিগুণসম্পন্ন নিরাপদ রপ্তানি সম্ভাবনাময় ধানের জাত উদ্ভাবনেও গুরুত্বারোপ করুন।

তিনি বলেন, প্রতি বর্গকিলোমিটারে সর্বাধিক ঘনবসতির দেশ হওয়া সত্ত্বেও ব্রি'র বিজ্ঞানীদের কল্যাণে দেশ খাদ্য উৎপাদনে স্বনির্ভর হলেও এখন নতুন চ্যালেঞ্জ সামনে এসেছে। তাই উন্নত প্রযুক্তি ব্যবহার করে কৃষির যথাযথ যান্ত্রিকায়ন ও বাণিজ্যিকীকরণ এবং ধান উৎপাদনসহ সার্বিক কৃষি উৎপাদন ব্যবস্থাকে কৃষকের জন্য লাভজনক করতে হবে। এজন্য বিভিন্ন প্রকল্প ও কর্মসূচি বাস্তবায়নের ওপর তিনি গুরুত্বারোপ করেন।  

ব্রি'র মহাপরিচালক ড. মো. শাহজাহান কবীরের সভাপতিত্বে উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি ছিলেন যুব ও ক্রীড়া প্রতিমন্ত্রী মো. জাহিদ আহসান রাসেল, গাজীপুর সিটি করপোরেশনের মেয়র অ্যাডভোকেট মো. জাহাঙ্গীর আলম, কৃষি মন্ত্রণালয়ের সচিব মো. মেসবাহুল ইসলাম।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন