বিজয়ী ২ কাউন্সিলরকে আ.লীগ থেকে বহিষ্কার
jugantor
বিজয়ী ২ কাউন্সিলরকে আ.লীগ থেকে বহিষ্কার

  দাগনভূঞা (ফেনী) প্রতিনিধি  

২০ জানুয়ারি ২০২১, ১৪:৫৬:৩৭  |  অনলাইন সংস্করণ

বিজয়ী ২ কাউন্সিলরকে আ.লীগ থেকে বহিষ্কার

ফেনীর দাগনভূঞায় দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের কাউন্সিলর পদে বিজয়ী দুই প্রার্থীকে বহিষ্কার করেছে উপজেলা আওয়ামী লীগ।

অন্যদিকে উপজেলা যুবলীগ ও ছাত্রলীগ তাদের তিন নেতাকেও বহিষ্কার করেছে বলে জানা গেছে।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় উপজেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগ এক সভায় এ সিদ্ধান্ত নিয়ে বিবৃতি দেওয়া হয়।

দলীয় সূত্রে জানা যায়, গত ১৭ জানুয়ারি অনুষ্ঠিতব্য দাগনভূঞা পৌরসভা নির্বাচনের পরের দিন ১নং ওয়ার্ডের আলাইয়ারপুর গ্রামের ডিশ ব্যবসায়ী ইসমাঈল হোসেন বাবু এবং তার ছোট ভাই মো. ইব্রাহিমকে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে ১নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ও কাউন্সিলর প্রার্থী জাকের হোসেন ও তার কর্মী জনি।

অন্যদিকে ৮নং ওয়ার্ডের গনিপুর বাজারের হারুণ মেটালের মো. হারুণকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে ৮নং ওয়ার্ডের বিজয়ী কাউন্সিলর ও ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জিয়াউল হক জিয়া।

অন্যদিকে ওই ওয়ার্ডে যুবলীগ সভাপতি সাইফুল ইসলাম ও সেক্রেটারি মোহাম্মদ রতন, ছাত্রলীগের ওয়ার্ড সভাপতি মাঈন উদ্দিন রিপনকে দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গেও অভিযোগে বহিষ্কার করে।

এ ঘটনা জেলা আওয়ামী লীগ ও উপজেলা আওয়ামী লীগের নজরে এলে তাদের নিজ নিজ দলীয় পদসহ দলের প্রাথমিক সদস্যপদ থেকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়।

উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জয়নাল আবেদীন মামুন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

উল্লেখ্য, জিয়াউল হক জিয়া দলীয় সিদ্ধান্ত অমান্য করে বিদ্রোহী প্রার্থী হয়ে নির্বাচনে কাউন্সিলর নির্বাচিত হয়েছিলেন।

বিজয়ী ২ কাউন্সিলরকে আ.লীগ থেকে বহিষ্কার

 দাগনভূঞা (ফেনী) প্রতিনিধি 
২০ জানুয়ারি ২০২১, ০২:৫৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
বিজয়ী ২ কাউন্সিলরকে আ.লীগ থেকে বহিষ্কার
ফাইল ছবি

ফেনীর দাগনভূঞায় দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের কাউন্সিলর পদে বিজয়ী দুই প্রার্থীকে বহিষ্কার করেছে উপজেলা আওয়ামী লীগ।

অন্যদিকে উপজেলা যুবলীগ ও ছাত্রলীগ তাদের তিন নেতাকেও বহিষ্কার করেছে বলে জানা গেছে।

মঙ্গলবার সন্ধ্যায় উপজেলা আওয়ামী লীগ, যুবলীগ ও ছাত্রলীগ এক সভায় এ সিদ্ধান্ত নিয়ে বিবৃতি দেওয়া হয়।

দলীয় সূত্রে জানা যায়, গত ১৭ জানুয়ারি অনুষ্ঠিতব্য দাগনভূঞা পৌরসভা নির্বাচনের পরের দিন ১নং ওয়ার্ডের আলাইয়ারপুর গ্রামের ডিশ ব্যবসায়ী ইসমাঈল হোসেন বাবু এবং তার ছোট ভাই মো. ইব্রাহিমকে কুপিয়ে গুরুতর আহত করে ১নং ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সভাপতি ও কাউন্সিলর প্রার্থী জাকের হোসেন ও তার কর্মী জনি।

অন্যদিকে ৮নং ওয়ার্ডের গনিপুর বাজারের হারুণ মেটালের মো. হারুণকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে ৮নং ওয়ার্ডের বিজয়ী কাউন্সিলর ও ওয়ার্ড আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জিয়াউল হক জিয়া।

অন্যদিকে ওই ওয়ার্ডে যুবলীগ সভাপতি সাইফুল ইসলাম ও সেক্রেটারি মোহাম্মদ রতন, ছাত্রলীগের ওয়ার্ড সভাপতি মাঈন উদ্দিন রিপনকে দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গেও অভিযোগে বহিষ্কার করে।

এ ঘটনা জেলা আওয়ামী লীগ ও উপজেলা আওয়ামী লীগের নজরে এলে তাদের নিজ নিজ দলীয় পদসহ দলের প্রাথমিক সদস্যপদ থেকে সাময়িক বহিষ্কার করা হয়।

উপজেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক জয়নাল আবেদীন মামুন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

উল্লেখ্য, জিয়াউল হক জিয়া দলীয় সিদ্ধান্ত অমান্য করে বিদ্রোহী প্রার্থী হয়ে নির্বাচনে কাউন্সিলর নির্বাচিত হয়েছিলেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন