পাবনায় ট্রাকের সঙ্গে সংঘর্ষে অটোরিকশার ২ যাত্রী নিহত  
jugantor
পাবনায় ট্রাকের সঙ্গে সংঘর্ষে অটোরিকশার ২ যাত্রী নিহত  

  পাবনা ও সুজানগর প্রতিনিধি    

২২ জানুয়ারি ২০২১, ১৫:৩১:১৬  |  অনলাইন সংস্করণ

পাবনায় ট্রাকের সঙ্গে সংঘর্ষে সিএনজিচালিত অটোরিকশার দুই যাত্রী নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও তিনজন।

শুক্রবার সকাল ৯টার দিকে পাবনা-সুজানগর মহাসড়কের সদর উপজেলার আতাইকুলা থানার দুবলিয়া নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে।

নিহতরা হলেন- পাবনার সুজানগর উপজেলার ভবানীপুর গ্রামের মৃত মুনা কুণ্ডুর ছেলে ঝন্টু কুণ্ডু (৬০) এবং একই উপজেলার মানিকদীর গ্রামের আবদুল বারেকের স্ত্রী আরিফা খাতুন (৩৩)।

আহতরা হলেন- আবদুল কাদের (৫৫) ও তার স্ত্রী রওশন আরা রেনু (৪৫) ও নিহত আরিফা সুলতানার স্বামী আবদুল বারেক (৫৫)। তাদের সবার বাড়ি সুজানগরে।

আহতদের পাবনা জেনারেল হাসপাতাল ও সুজানগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

ঘন কুয়াশার কারণে দুর্ঘটনাটি ঘটেছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

সদর উপজেলার দুবলিয়া পুলিশ ফাঁড়ির এসআই আবুল কালাম স্থানীয়দের বরাত দিয়ে জানান, পাবনা থেকে কয়লাবাহী একটি ট্রাক সুজানগর অভিমুখে যাচ্ছিল। সুজানগর থেকে সিএনজিচালিত অটোরিকশাটি পাবনা শহরের দিকে আসছিল। সকাল ৯টার দিকে দুবলিয়া গার্লস স্কুলের পাশে গাড়ি দুটির মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে অটোরিকশার পাঁচ যাত্রী গুরুতর আহত হন। তাদের উদ্ধার করে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক দুজনকে মৃত ঘোষণা করেন।

আতাইকুলা থানার ওসি কামরুল ইসলাম যুগান্তরকে জানান, সম্ভবত ঘন কুয়াশার কারণে দুই গাড়ির চালক নিয়ন্ত্রণ হারান। এতে ট্রাকটির সঙ্গে অটোরিকশার সংঘর্ষ হয়।

তিনি জানান, নিহতদের লাশ স্বজনদের কাছে হস্তান্তরের প্রক্রিয়া চলছে। দুর্ঘটনার ব্যাপারে অভিযোগ পাওয়া গেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

পাবনায় ট্রাকের সঙ্গে সংঘর্ষে অটোরিকশার ২ যাত্রী নিহত  

 পাবনা ও সুজানগর প্রতিনিধি   
২২ জানুয়ারি ২০২১, ০৩:৩১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

পাবনায় ট্রাকের সঙ্গে সংঘর্ষে সিএনজিচালিত অটোরিকশার দুই যাত্রী নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন আরও তিনজন। 

শুক্রবার সকাল ৯টার দিকে পাবনা-সুজানগর মহাসড়কের সদর উপজেলার আতাইকুলা থানার দুবলিয়া নামক স্থানে এ দুর্ঘটনা ঘটে। 

নিহতরা হলেন- পাবনার সুজানগর উপজেলার ভবানীপুর গ্রামের মৃত মুনা কুণ্ডুর ছেলে ঝন্টু কুণ্ডু (৬০) এবং একই উপজেলার মানিকদীর গ্রামের আবদুল বারেকের স্ত্রী আরিফা খাতুন (৩৩)। 

আহতরা হলেন- আবদুল কাদের (৫৫) ও তার স্ত্রী রওশন আরা রেনু (৪৫) ও নিহত আরিফা সুলতানার স্বামী আবদুল বারেক (৫৫)। তাদের সবার বাড়ি সুজানগরে। 

আহতদের পাবনা জেনারেল হাসপাতাল ও সুজানগর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করা হয়েছে।

ঘন কুয়াশার কারণে দুর্ঘটনাটি ঘটেছে বলে জানিয়েছে পুলিশ।

সদর উপজেলার দুবলিয়া পুলিশ ফাঁড়ির এসআই আবুল কালাম স্থানীয়দের বরাত দিয়ে জানান, পাবনা থেকে কয়লাবাহী একটি ট্রাক সুজানগর অভিমুখে যাচ্ছিল। সুজানগর থেকে সিএনজিচালিত অটোরিকশাটি পাবনা শহরের দিকে আসছিল। সকাল ৯টার দিকে দুবলিয়া গার্লস স্কুলের পাশে গাড়ি দুটির মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে অটোরিকশার পাঁচ যাত্রী গুরুতর আহত হন। তাদের উদ্ধার করে পাবনা জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক দুজনকে মৃত ঘোষণা করেন।

আতাইকুলা থানার ওসি কামরুল ইসলাম যুগান্তরকে জানান, সম্ভবত ঘন কুয়াশার কারণে দুই গাড়ির চালক নিয়ন্ত্রণ হারান। এতে ট্রাকটির সঙ্গে অটোরিকশার সংঘর্ষ হয়। 

তিনি জানান, নিহতদের লাশ স্বজনদের কাছে হস্তান্তরের প্রক্রিয়া চলছে। দুর্ঘটনার ব্যাপারে অভিযোগ পাওয়া গেলে আইনগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন