বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে কলেজ শিক্ষার্থীকে হত্যা
jugantor
বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে কলেজ শিক্ষার্থীকে হত্যা

  রাজশাহী ব্যুরো  

২৪ জানুয়ারি ২০২১, ১৭:৪৫:৫৩  |  অনলাইন সংস্করণ

বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়ে রাজশাহী সরকারি কলেজের এক শিক্ষার্থীকে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। শনিবার রাতে রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলার কামারপাড়া টাঙন গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত যুবকের নাম শাফিউল ইসলাম (২৫)। তিনি ওই গ্রামের সাইদুল ইসলামের ছেলে। শাফিউল রাজশাহী কলেজের হিসাববিজ্ঞান বিভাগের মাস্টার্সের শিক্ষার্থী ছিলেন বলে মোহনপুর থানা পুলিশ জানিয়েছে।

থানার পরিদর্শক (তদন্ত) তৌহিদুর রহমান জানান, রোববার সকালে বাড়ি থেকে ১৫০ গজ দূরে আমবাগানে শাফিউলের লাশ দেখতে পেয়ে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেন।

তিনি জানান, রাত ৮টার দিকে শাফিউলকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়েছিলেন আবদুল বারী (৩৫) নামে এলাকার এক ব্যক্তি। তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে বলেও জানান পুলিশ পরিদর্শক তৌহিদুর রহমান।

এদিকে মোহনপুর থানার ওসি তৌহিদুল ইসলাম জানান, নিহত শাফিউলের লাশের মাথা, কপাল ও চোখের নিচে জখম পাওয়া গেছে। পলিথিন দিয়ে তার মাথা পেঁচানো ছিল। গলায় পেঁচানো ছিল রশি। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজের মর্গে পাঠানো হয়েছে। কী কারণে এ হত্যাকাণ্ড তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। এ নিয়ে থানায় হত্যা মামলা দায়ের করা হবে বলেও জানান ওসি।

বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে কলেজ শিক্ষার্থীকে হত্যা

 রাজশাহী ব্যুরো 
২৪ জানুয়ারি ২০২১, ০৫:৪৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়ে রাজশাহী সরকারি কলেজের এক শিক্ষার্থীকে হত্যার অভিযোগ পাওয়া গেছে। শনিবার রাতে রাজশাহীর মোহনপুর উপজেলার কামারপাড়া টাঙন গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

নিহত যুবকের নাম শাফিউল ইসলাম (২৫)। তিনি ওই গ্রামের সাইদুল ইসলামের ছেলে। শাফিউল রাজশাহী কলেজের হিসাববিজ্ঞান বিভাগের মাস্টার্সের শিক্ষার্থী ছিলেন বলে মোহনপুর থানা পুলিশ জানিয়েছে।

থানার পরিদর্শক (তদন্ত) তৌহিদুর রহমান জানান, রোববার সকালে বাড়ি থেকে ১৫০ গজ দূরে আমবাগানে শাফিউলের লাশ দেখতে পেয়ে স্থানীয়রা পুলিশে খবর দেন।

তিনি জানান, রাত ৮টার দিকে শাফিউলকে বাড়ি থেকে ডেকে নিয়ে গিয়েছিলেন আবদুল বারী (৩৫) নামে এলাকার এক ব্যক্তি। তাকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করা হয়েছে বলেও জানান পুলিশ পরিদর্শক তৌহিদুর রহমান।

এদিকে মোহনপুর থানার ওসি তৌহিদুল ইসলাম জানান, নিহত শাফিউলের লাশের মাথা, কপাল ও চোখের নিচে জখম পাওয়া গেছে। পলিথিন দিয়ে তার মাথা পেঁচানো ছিল। গলায় পেঁচানো ছিল রশি। লাশ ময়নাতদন্তের জন্য রাজশাহী মেডিকেল কলেজের মর্গে পাঠানো হয়েছে। কী কারণে এ হত্যাকাণ্ড তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। এ নিয়ে থানায় হত্যা মামলা দায়ের করা হবে বলেও জানান ওসি।

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন