ক্ষেতলালের শাহিন বেঁচে থাকার স্বপ্ন দেখছে
jugantor
ক্ষেতলালের শাহিন বেঁচে থাকার স্বপ্ন দেখছে

  ক্ষেতলাল (জয়পুরহাট) প্রতিনিধি  

২৫ জানুয়ারি ২০২১, ২২:৫৭:০৮  |  অনলাইন সংস্করণ

শাহিন (২৪)

জয়পুরহাটের ক্ষেতলালে হুইপ স্বপনের মহানুভবতায় শাহিন (২৪) বেঁচে থাকার স্বপ্ন দেখছেন। হুইপ স্বপনের নির্দেশে জয়পুরহাট জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ শাহিনকে প্রাথমিকভাবে জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করেছে।
রোববার উপজেলার কনিয়াপাড়া গ্রামের অসহায় বিধবা মুর্শিদা বানুর একমাত্র ছেলে অসুস্থ শাহিনকে নিয়ে স্থানীয় সংবাদকর্মী দৈনিক যুগান্তর প্রতিনিধি হাসান আলী ও মিজানুর রহমার নির্মিত একটি ভিডিওচিত্র ওই দিন বিকাল ৫টায় সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করলে তা ভাইরাল হয়। ভিডিওচিত্রটি বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের হুইপ এবং জয়পুরহাট-২ আসনের এমপি আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপনের দৃষ্টিগোচর হয়।


সোমবার তিনি জরুরিভিত্তিতে জয়পুরহাট জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের একটি মেডিকেল টিম ও ক্ষেতলাল উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোস্তাকিম মণ্ডল, উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আব্দুল মজিদ মোল্লাকে অসুস্থ শাহিনের বাড়িতে পাঠান। মেডিকেল টিম তাৎক্ষণিক সিদ্ধান্তে অসুস্থ শাহিনকে নিবিড় পর্যবেক্ষণ ও পরবর্তী করণীয় নির্ধারণের জন্য অ্যাম্বুলেন্সযোগে জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে নিয়ে গেছেন।


মেডিকেল টিমের প্রধান ছিলেন উপ-পরিচালক পরিবার পরিকল্পনা ও বিএমএ সাধারণ সম্পাদক জয়পুরহাট এর ডা. জোবায়ের গালিব, ক্ষেতলাল উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আতাউর রহমান।
ডা. জোবায়ের গালিব বলেন, মাননীয় হুইপ মহোদয় তাকে পরামর্শ প্রদান করেন- অসহায় এ ছেলেটির চিকিৎসার বিষয়ে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে।


এ সময় উপস্থিত ছিলেন- ক্ষেতলাল উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোস্তাকিম মণ্ডল, উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আব্দুল মজিদ মোল্লা, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার আজাহার আলী, বড়াইল ইউপি সদস্য নজরুল ইসলাম বাবলু, ক্ষেতলাল রিপোর্টার্স ক্লাবের সভাপতি সাংবাদিক মিজানুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক হাসান আলী, ক্ষেতলাল প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আজিজুল হক প্রমুখ।


এর আগে সকালে বড়াইল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আবু রাশেদ আলমগীর ও মামুদপুর ইউনিয়নের সম্ভাব্য চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী নূরুন্নবী চৌধুরী রতন, স্থানীয় স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন “স্বপ্ন সবার হাসি মুখ” অসুস্থ শাহিনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে তার মায়ের হাতে কিছু আর্থিক সহায়তা তুলে দেন।

ক্ষেতলালের শাহিন বেঁচে থাকার স্বপ্ন দেখছে

 ক্ষেতলাল (জয়পুরহাট) প্রতিনিধি 
২৫ জানুয়ারি ২০২১, ১০:৫৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
শাহিন (২৪)
শাহিন (২৪)

জয়পুরহাটের ক্ষেতলালে হুইপ স্বপনের মহানুভবতায় শাহিন (২৪) বেঁচে থাকার স্বপ্ন দেখছেন। হুইপ স্বপনের নির্দেশে জয়পুরহাট জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ শাহিনকে প্রাথমিকভাবে জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে ভর্তি করেছে।
রোববার উপজেলার কনিয়াপাড়া গ্রামের অসহায় বিধবা মুর্শিদা বানুর একমাত্র ছেলে অসুস্থ শাহিনকে নিয়ে স্থানীয় সংবাদকর্মী  দৈনিক যুগান্তর প্রতিনিধি হাসান আলী ও মিজানুর রহমার নির্মিত একটি ভিডিওচিত্র ওই দিন বিকাল ৫টায় সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্ট করলে তা ভাইরাল হয়। ভিডিওচিত্রটি বাংলাদেশ জাতীয় সংসদের হুইপ এবং জয়পুরহাট-২ আসনের এমপি আবু সাঈদ আল মাহমুদ স্বপনের দৃষ্টিগোচর হয়। 


সোমবার তিনি জরুরিভিত্তিতে জয়পুরহাট জেলা স্বাস্থ্য বিভাগের একটি মেডিকেল টিম ও ক্ষেতলাল উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোস্তাকিম মণ্ডল, উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আব্দুল মজিদ মোল্লাকে অসুস্থ শাহিনের বাড়িতে পাঠান। মেডিকেল টিম তাৎক্ষণিক সিদ্ধান্তে অসুস্থ শাহিনকে নিবিড় পর্যবেক্ষণ ও পরবর্তী করণীয় নির্ধারণের জন্য অ্যাম্বুলেন্সযোগে জয়পুরহাট জেলা আধুনিক হাসপাতালে নিয়ে গেছেন।


মেডিকেল টিমের প্রধান ছিলেন উপ-পরিচালক পরিবার পরিকল্পনা ও বিএমএ সাধারণ সম্পাদক জয়পুরহাট এর ডা. জোবায়ের গালিব, ক্ষেতলাল উপজেলা পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. আতাউর রহমান।
ডা. জোবায়ের গালিব বলেন, মাননীয় হুইপ মহোদয় তাকে পরামর্শ প্রদান করেন- অসহায় এ ছেলেটির চিকিৎসার বিষয়ে দ্রুত ব্যবস্থা নিতে। 


এ সময় উপস্থিত ছিলেন- ক্ষেতলাল উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোস্তাকিম মণ্ডল, উপজেলা আওয়ামী লীগের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি আব্দুল মজিদ মোল্লা, উপজেলা মুক্তিযোদ্ধা সংসদের সাবেক কমান্ডার আজাহার আলী, বড়াইল ইউপি সদস্য নজরুল ইসলাম বাবলু, ক্ষেতলাল রিপোর্টার্স ক্লাবের সভাপতি সাংবাদিক মিজানুর রহমান, সাধারণ সম্পাদক হাসান আলী, ক্ষেতলাল প্রেস ক্লাবের সাধারণ সম্পাদক আজিজুল হক প্রমুখ।


এর আগে সকালে বড়াইল ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আবু রাশেদ আলমগীর ও মামুদপুর ইউনিয়নের সম্ভাব্য চেয়ারম্যান পদপ্রার্থী নূরুন্নবী চৌধুরী রতন, স্থানীয় স্বেচ্ছাসেবী সংগঠন “স্বপ্ন সবার হাসি মুখ” অসুস্থ শাহিনের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে তার মায়ের হাতে কিছু আর্থিক সহায়তা তুলে দেন।
 

 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন