২০ গুণ বেশি ভোট পেয়ে নৌকাকে ডোবাল বিদ্রোহী
jugantor
২০ গুণ বেশি ভোট পেয়ে নৌকাকে ডোবাল বিদ্রোহী

  সফিকুল ইসলাম, জলঢাকা (নীলফামারী)  

৩১ জানুয়ারি ২০২১, ১৮:০৮:৫৯  |  অনলাইন সংস্করণ

নীলফামারীর জলঢাকায় ৩০ জানুয়ারি পৌরসভা নির্বাচনে ২০ গুণ বেশি ভোট পেয়ে আওয়ামী লীগ প্রার্থীকে হারিয়ে বিজয়ী হয়েছেন নৌকার বিদ্রোহী প্রার্থী ইলিয়াস হোসেন বাবলু। তাকে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত ঘোষণা করা হয়েছে।

ফলাফলে দেখা গেছে, নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী মো. মোহসীন ভোট পেয়েছেন ৭৬৫। অন্যদিকে নারিকেল গাছ প্রতীক নিয়ে সচেতন নাগরিক সমাজের ব্যানারে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী ইলিয়াস হোসেন বাবলু পেয়েছেন ১৪ হাজার ৭৯৮ ভোট।

তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী বর্তমান মেয়র ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে ফাহমিদ ফয়সাল চৌধুরী কমেট ভোট পেয়েছেন ১০ হাজার ৬০৮।

এছাড়াও জাতীয় পার্টির মনোনীত প্রার্থী লাঙ্গল প্রতীকে আফরোজা পারভীন ৪২ ভোট, স্বতন্ত্র প্রার্থী সাবিনা আক্তার (মোবাইল ফোন) পেয়েছেন ১২২, জিয়াউর রহমান চৌধুরী (জগ) প্রতীক নিয়ে ৫৮৫ ভোট পেয়েছেন।

ভোট গণনা শেষে শনিবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে ফলাফল ঘোষণা করেন জলঢাকা পৌরসভা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. ফজলুল করিম। এ সময় তিনি বলেন, জলঢাকা পৌরসভার সাধারণ নির্বাচনে সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত বিরতিহীন শান্তিপূর্ণভাবে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। ১৫টি কেন্দ্রের ভোট গণনা শেষে স্বতন্ত্র প্রার্থী ইলিয়াস হোসেন বাবলু ১৪ হাজার ৭৯৮ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন।

তিনি বলেন, জলঢাকা পৌরসভায় মোট ৩৩ হাজার ৬৩৪ ভোটারের মধ্যে ১৫টি কেন্দ্রের প্রাপ্ত ভোট ২৭ হাজার ৩৩৪। শতকরা হিসেবে জলঢাকা পৌরসভার ভোটের হার ৮১.৩ শতাংশ।

আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থীর ভরাডুবি ও শোচনীয় পরাজয়ে দলীয় নেতাদের ওপর ক্ষোভ প্রকাশ করছেন তৃণমূল নেতাকর্মীরা।

২০ গুণ বেশি ভোট পেয়ে নৌকাকে ডোবাল বিদ্রোহী

 সফিকুল ইসলাম, জলঢাকা (নীলফামারী) 
৩১ জানুয়ারি ২০২১, ০৬:০৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

নীলফামারীর জলঢাকায় ৩০ জানুয়ারি পৌরসভা নির্বাচনে ২০ গুণ বেশি ভোট পেয়ে আওয়ামী লীগ প্রার্থীকে হারিয়ে বিজয়ী হয়েছেন নৌকার বিদ্রোহী প্রার্থী ইলিয়াস হোসেন বাবলু। তাকে বেসরকারিভাবে নির্বাচিত ঘোষণা করা হয়েছে।

ফলাফলে দেখা গেছে, নির্বাচনে নৌকার প্রার্থী মো. মোহসীন ভোট পেয়েছেন ৭৬৫। অন্যদিকে নারিকেল গাছ প্রতীক নিয়ে সচেতন নাগরিক সমাজের ব্যানারে আওয়ামী লীগের বিদ্রোহী প্রার্থী ইলিয়াস হোসেন বাবলু পেয়েছেন ১৪ হাজার ৭৯৮ ভোট।

তার নিকটতম প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী বর্তমান মেয়র ধানের শীষ প্রতীক নিয়ে ফাহমিদ ফয়সাল চৌধুরী কমেট ভোট পেয়েছেন ১০ হাজার ৬০৮।

এছাড়াও জাতীয় পার্টির মনোনীত প্রার্থী লাঙ্গল প্রতীকে আফরোজা পারভীন ৪২ ভোট, স্বতন্ত্র প্রার্থী সাবিনা আক্তার (মোবাইল ফোন) পেয়েছেন ১২২, জিয়াউর রহমান চৌধুরী (জগ) প্রতীক নিয়ে ৫৮৫ ভোট পেয়েছেন।

ভোট গণনা শেষে শনিবার রাত সাড়ে ১২টার দিকে ফলাফল ঘোষণা করেন জলঢাকা পৌরসভা নির্বাচন কর্মকর্তা মো. ফজলুল করিম। এ সময় তিনি বলেন, জলঢাকা পৌরসভার সাধারণ নির্বাচনে সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত বিরতিহীন শান্তিপূর্ণভাবে ভোটগ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়। ১৫টি কেন্দ্রের ভোট গণনা শেষে স্বতন্ত্র প্রার্থী ইলিয়াস হোসেন বাবলু ১৪ হাজার ৭৯৮ ভোট পেয়ে বেসরকারিভাবে মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন।

তিনি বলেন, জলঢাকা পৌরসভায় মোট ৩৩ হাজার ৬৩৪ ভোটারের মধ্যে ১৫টি কেন্দ্রের প্রাপ্ত ভোট ২৭ হাজার ৩৩৪। শতকরা হিসেবে জলঢাকা পৌরসভার ভোটের হার ৮১.৩ শতাংশ।

আওয়ামী লীগ সমর্থিত প্রার্থীর ভরাডুবি ও শোচনীয় পরাজয়ে দলীয় নেতাদের ওপর ক্ষোভ প্রকাশ করছেন তৃণমূল নেতাকর্মীরা।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন