গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতন, দেলোয়ার-কালামের বিরুদ্ধে চার্জ গঠন
jugantor
গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতন, দেলোয়ার-কালামের বিরুদ্ধে চার্জ গঠন

  কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি  

১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৯:১৫:০১  |  অনলাইন সংস্করণ

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ উপজেলার একলাশপুর ইউনিয়নে চাঞ্চল্যকর গৃহবধূকে ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্ত প্রধান আসামি দেলোয়ার বাহিনীর প্রধান দেলোয়ার হোসেন প্রকাশ দেলু ও তার সহযোগী আবুল কালামের বিরুদ্ধে চার্জ গঠন করেছেন আদালত।

বুধবার দুপুরে নোয়াখালী নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিজ্ঞ বিচারক জয়নাল আবেদীন আসামিদের উপস্থিতিতে অভিযোগের শুনানি শেষে চার্জ গঠন করেন।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, আদালতে আসামিদের তাদের নিজেদের বিরুদ্ধে উত্থাপিত অভিযোগ পড়ে শোনান রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) মামুনুর রশিদ লাভলু। এ সময় আসামিরা নিজেদের নির্দোষ দাবি করেন। আদালতে আসামিদের পক্ষে কোনো আইনজীবী উপস্থিত ছিলেন না।

পিপি মামুনুর রশিদ লাভলু আদালতের সিদ্ধান্তের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ২ সেপ্টেম্বর রাতে ওই নারীর আগের স্বামী তার সঙ্গে দেখা করতে তার বাবার বাড়ি একলাশপুর ইউনিয়নের জয়কৃষ্ণপুর গ্রামে এসে তাদের ঘরে ঢুকেন। বিষয়টি দেখে ফেলে স্থানীয় মাদক ব্যবসায়ী ও দেলোয়ার বাহিনীর প্রধান দেলোয়ার।

রাত ১০টার দিকে দেলোয়ার তার লোকজন নিয়ে ওই নারীর ঘরে প্রবেশ করে পরপুরুষের সঙ্গে অনৈতিক কাজ ও তাদের কুপ্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় তাকে মারধর শুরু করে। একপর্যায়ে পিটিয়ে নারীকে বিবস্ত্র করে ভিডিও ধারণ করে। গত ৪ অক্টোবর দুপুরে ওই ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে জেলায় তথা দেশব্যাপী তোলপাড় সৃষ্টি হয়।

এর আগে আবুল কালামের সহযোগিতায় গৃহবধূর বাড়িতে ও বিলে নিয়ে নৌকার মধ্যে ওই গৃহবধূকে একাধিকবার ধর্ষণ করে দেলোয়ার। এ ঘটনায় গৃহবধূ বাদী হয়ে বিবস্ত্র করে নির্যাতন, পর্নোগ্রাফি ও ধর্ষণের ঘটনায় দেলোয়ারের বিরুদ্ধে মোট তিনটি মামলা দায়ের করেন। ৬ অক্টোবর ধর্ষণের অভিযোগে দায়ের করা মামলায় দেলোয়ার ও আবুল কালামকে আসামি করা হয়।

গৃহবধূকে বিবস্ত্র করে নির্যাতন, দেলোয়ার-কালামের বিরুদ্ধে চার্জ গঠন

 কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি 
১৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ০৭:১৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

নোয়াখালীর বেগমগঞ্জ উপজেলার একলাশপুর ইউনিয়নে চাঞ্চল্যকর গৃহবধূকে ধর্ষণের ঘটনায় অভিযুক্ত প্রধান আসামি দেলোয়ার বাহিনীর প্রধান দেলোয়ার হোসেন প্রকাশ দেলু ও তার সহযোগী আবুল কালামের বিরুদ্ধে চার্জ গঠন করেছেন আদালত।

বুধবার দুপুরে নোয়াখালী নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনাল-১ এর বিজ্ঞ বিচারক জয়নাল আবেদীন আসামিদের উপস্থিতিতে অভিযোগের শুনানি শেষে চার্জ গঠন করেন।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, আদালতে আসামিদের তাদের নিজেদের বিরুদ্ধে উত্থাপিত অভিযোগ পড়ে শোনান রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) মামুনুর রশিদ লাভলু। এ সময় আসামিরা নিজেদের নির্দোষ দাবি করেন। আদালতে আসামিদের পক্ষে কোনো আইনজীবী উপস্থিত ছিলেন না।

পিপি মামুনুর রশিদ লাভলু আদালতের সিদ্ধান্তের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ২ সেপ্টেম্বর রাতে ওই নারীর আগের স্বামী তার সঙ্গে দেখা করতে তার বাবার বাড়ি একলাশপুর ইউনিয়নের জয়কৃষ্ণপুর গ্রামে এসে তাদের ঘরে ঢুকেন। বিষয়টি দেখে ফেলে স্থানীয় মাদক ব্যবসায়ী ও দেলোয়ার বাহিনীর প্রধান দেলোয়ার।

রাত ১০টার দিকে দেলোয়ার তার লোকজন নিয়ে ওই নারীর ঘরে প্রবেশ করে পরপুরুষের সঙ্গে অনৈতিক কাজ ও তাদের কুপ্রস্তাবে রাজি না হওয়ায় তাকে মারধর শুরু করে। একপর্যায়ে পিটিয়ে নারীকে বিবস্ত্র করে ভিডিও ধারণ করে। গত ৪ অক্টোবর দুপুরে ওই ভিডিওটি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে পড়লে জেলায় তথা দেশব্যাপী তোলপাড় সৃষ্টি হয়।

এর আগে আবুল কালামের সহযোগিতায় গৃহবধূর বাড়িতে ও বিলে নিয়ে নৌকার মধ্যে ওই গৃহবধূকে একাধিকবার ধর্ষণ করে দেলোয়ার। এ ঘটনায় গৃহবধূ বাদী হয়ে বিবস্ত্র করে নির্যাতন, পর্নোগ্রাফি ও ধর্ষণের ঘটনায় দেলোয়ারের বিরুদ্ধে মোট তিনটি মামলা দায়ের করেন। ৬ অক্টোবর ধর্ষণের অভিযোগে দায়ের করা মামলায় দেলোয়ার ও আবুল কালামকে আসামি করা হয়।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন