গৃহবধূর লাশ উদ্ধার, স্বামী পলাতক 
jugantor
গৃহবধূর লাশ উদ্ধার, স্বামী পলাতক 

  চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি  

২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ১৭:৫৫:৫৭  |  অনলাইন সংস্করণ

চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার লোখনাথপুর গ্রামে নুরজাহান খাতুন (৪৫) নামে এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ঘটনার পর থেকে তার স্বামী জাহান আলী পলাতক রয়েছে।

শনিবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে তার বাড়ি থেকে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। নিহত নুরজাহান লোকনাথপুর গ্রামের জমির উদ্দিনের ছেলে জাহান আলীর স্ত্রী।

গৃহবধূর বড়ভাই সুন্নত আলী দাবি করেন, স্বামী জাহান আলীসহ পরিবারের লোকজন জাহানারা খাতুনকে প্রতিনিয়ত নির্যাতন করত। শুক্রবার তাকে বেধড়ক পিটিয়ে মারাত্মক আহত করে স্বামী জাহান আলী।

ওই রাতেই তার অবস্থার অবনতি ঘটে। পরিবারের লোকজন শনিবার ভোরে তাকে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নেওয়ার পথেই তিনি মারা যান। খবর পেয়ে গৃহবধূর বড়ভাই সুন্নত আলী দামুড়হুদা মডেল থানায় অভিযোগ করলে থানা পুলিশ মরদেহ উদ্ধর করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠায়।

দামুড়হুদা মডেল থানার ওসি আবদুল খালেক জানান, অভিযোগ পেয়ে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। তার শরীরে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তবে ময়নাতদন্তের আগে বলা যাচ্ছে না তাকে হত্যা করা হয়েছে কিনা। তার স্বামী জাহান আলী পলাতক রয়েছে।

গৃহবধূর লাশ উদ্ধার, স্বামী পলাতক 

 চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি 
২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২১, ০৫:৫৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার লোখনাথপুর গ্রামে নুরজাহান খাতুন (৪৫) নামে এক গৃহবধূর লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। ঘটনার পর থেকে তার স্বামী জাহান আলী পলাতক রয়েছে।

শনিবার বেলা সাড়ে ১১টার দিকে তার বাড়ি থেকে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। নিহত নুরজাহান লোকনাথপুর গ্রামের জমির উদ্দিনের ছেলে জাহান আলীর স্ত্রী। 

গৃহবধূর বড়ভাই সুন্নত আলী দাবি করেন, স্বামী জাহান আলীসহ পরিবারের লোকজন জাহানারা খাতুনকে প্রতিনিয়ত নির্যাতন করত। শুক্রবার তাকে বেধড়ক পিটিয়ে মারাত্মক আহত করে স্বামী জাহান আলী। 

ওই রাতেই তার অবস্থার অবনতি ঘটে। পরিবারের লোকজন শনিবার ভোরে তাকে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নেওয়ার পথেই তিনি মারা যান। খবর পেয়ে গৃহবধূর বড়ভাই সুন্নত আলী দামুড়হুদা মডেল থানায় অভিযোগ করলে থানা পুলিশ মরদেহ উদ্ধর করে ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠায়।

দামুড়হুদা মডেল থানার ওসি আবদুল খালেক জানান, অভিযোগ পেয়ে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে। তার শরীরে আঘাতের চিহ্ন রয়েছে। তবে ময়নাতদন্তের আগে বলা যাচ্ছে না তাকে হত্যা করা হয়েছে কিনা। তার স্বামী জাহান আলী পলাতক রয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন