জালিয়াতি মামলায় ইউপি সদস্য কারাগারে
jugantor
জালিয়াতি মামলায় ইউপি সদস্য কারাগারে

  বেতাগী (বরগুনা) প্রতিনিধি  

০১ মার্চ ২০২১, ১২:৫৬:১৯  |  অনলাইন সংস্করণ

মো. হুমায়ন কবির জোমাদ্দার

বরগুনার বেতাগী উপজেলায় প্রতারণা ও জালিয়াতি মামলায় এক ইউপি সদস্য ও প্যানেল চেয়ারম্যান মো. হুমায়ন কবির জোমাদ্দারকে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

রোববার বরগুনা জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. রাসেল মজুমদার এ কারাদণ্ড প্রদান করেন।

মো. হুমায়ন কবির জোমাদ্দার বেতাগী উপজেলার হোসনাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের ৮নং ওয়ার্ডের বর্তমান ইউপি সদস্য ও প্যানেল চেয়ারম্যান।

বেতাগী উপজেলা হোসনাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যন মো. খলিলুর রহমান খান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

জানা যায়, ২০১৯ সালে বেতাগী উপজেলা পরিষদ নির্বাচন চলাকালীন সময়ে হোসনাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের তৎকালীন চেয়ারম্যান মো. মাকসুদুর রহমান ফোরকান উপজেলা নির্বাচনে প্রার্থিতা ঘোষণা দেওয়ায় পরিষদের ১নং প্যানেল চেয়ারম্যান মো. হুমায়ন কবির জোমাদ্দার (ভারপ্রাপ্ত) চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করেন।

ওই সময়ে হোসনাবাদ ইউনিয়নের গোয়াল বাড়িসংলগ্ন গ্রামের বাসিন্দা আবদুল মোতালেব হাওলাদারের সম্পত্তি নিয়ে এলাকায় বিরোধ চলছিল। বিরোধীপক্ষ (ভারপ্রাপ্ত) চেয়ারম্যান হুমায়নের ঘনিষ্ঠ হওয়ায় ও সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডের ইউপি সদস্যের জোগসাজশে আর্থিক লেনদেনের মাধ্যমে একটি ভুয়া অসম্পূর্ণ তথ্যসংবলিত ওয়ারিস সনদপত্র প্রদান করেন।

ফলে ওই কাগজ বরগুনা জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে দাখিল করেন বিরোধীপক্ষ এবং ভুয়া ওয়ারিস সনদপত্র দিয়ে জাল দলিল পর্যন্ত করেন।
কয়েক দিন পরে ভুক্তভোগী আবদুল মোতালেব ভারপ্রাপ্ত ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান, ইউপি সদস্য, প্রতারণার ঘটনায় জড়িত আরও দুজনসহ মোট চারজনের বিরুদ্ধে জালিয়াতির অভিযোগ এনে (৪৬৭, ৪৬৮ ও ৪২০ কার্যবিধি) ধারায় বরগুনা জেলা জজকোর্টে একটি প্রতারণা মামলা করেন, যার মামলা নং-১৯৩/২০১৯।

মামলার আসামিরা হলেন– হোসনাবাদ গ্রামের বাসিন্দা আলতাফ হোসেন, মো. সুলতান, তৎকালীন হোসনাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের (ভারপ্রাপ্ত) চেয়ারম্যান হুমায়ন কবির জোমাদ্দার, ইউপি সদস্য মিজানুর রহমান।

রোববার এ মামলায় হাজির হতে আসা তিন আসামিকে কারাগারে পাঠানো হয়।

জালিয়াতি মামলায় ইউপি সদস্য কারাগারে

 বেতাগী (বরগুনা) প্রতিনিধি 
০১ মার্চ ২০২১, ১২:৫৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
মো. হুমায়ন কবির জোমাদ্দার
মো. হুমায়ন কবির জোমাদ্দার। ছবি: যুগান্তর

বরগুনার বেতাগী উপজেলায় প্রতারণা ও জালিয়াতি মামলায় এক ইউপি সদস্য ও প্যানেল চেয়ারম্যান মো. হুমায়ন কবির জোমাদ্দারকে কারাদণ্ড দেওয়া হয়েছে।

রোববার বরগুনা জেলা ম্যাজিস্ট্রেট মো. রাসেল মজুমদার এ কারাদণ্ড প্রদান করেন।

মো. হুমায়ন কবির জোমাদ্দার বেতাগী উপজেলার হোসনাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের ৮নং ওয়ার্ডের বর্তমান ইউপি সদস্য ও প্যানেল চেয়ারম্যান।

বেতাগী উপজেলা হোসনাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের বর্তমান চেয়ারম্যন মো. খলিলুর রহমান খান এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

জানা যায়, ২০১৯ সালে বেতাগী উপজেলা পরিষদ নির্বাচন চলাকালীন সময়ে হোসনাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের তৎকালীন চেয়ারম্যান মো. মাকসুদুর রহমান ফোরকান উপজেলা নির্বাচনে প্রার্থিতা ঘোষণা দেওয়ায় পরিষদের ১নং প্যানেল চেয়ারম্যান মো. হুমায়ন কবির জোমাদ্দার (ভারপ্রাপ্ত) চেয়ারম্যানের দায়িত্ব পালন করেন।

ওই সময়ে হোসনাবাদ ইউনিয়নের গোয়াল বাড়িসংলগ্ন গ্রামের বাসিন্দা আবদুল মোতালেব হাওলাদারের সম্পত্তি নিয়ে এলাকায় বিরোধ চলছিল। বিরোধীপক্ষ (ভারপ্রাপ্ত) চেয়ারম্যান হুমায়নের ঘনিষ্ঠ হওয়ায় ও সংশ্লিষ্ট ওয়ার্ডের ইউপি সদস্যের জোগসাজশে আর্থিক লেনদেনের মাধ্যমে একটি ভুয়া অসম্পূর্ণ তথ্যসংবলিত ওয়ারিস সনদপত্র প্রদান করেন।

ফলে ওই কাগজ বরগুনা জেলা ম্যাজিস্ট্রেট আদালতে দাখিল করেন বিরোধীপক্ষ এবং ভুয়া ওয়ারিস সনদপত্র দিয়ে জাল দলিল পর্যন্ত করেন।
কয়েক দিন পরে ভুক্তভোগী আবদুল মোতালেব ভারপ্রাপ্ত ইউনিয়ন পরিষদ চেয়ারম্যান, ইউপি সদস্য, প্রতারণার ঘটনায় জড়িত আরও দুজনসহ মোট চারজনের বিরুদ্ধে জালিয়াতির অভিযোগ এনে (৪৬৭, ৪৬৮ ও ৪২০ কার্যবিধি) ধারায় বরগুনা জেলা জজকোর্টে একটি প্রতারণা মামলা করেন, যার মামলা নং-১৯৩/২০১৯।

মামলার আসামিরা হলেন– হোসনাবাদ গ্রামের বাসিন্দা আলতাফ হোসেন, মো. সুলতান, তৎকালীন হোসনাবাদ ইউনিয়ন পরিষদের (ভারপ্রাপ্ত) চেয়ারম্যান হুমায়ন কবির জোমাদ্দার, ইউপি সদস্য মিজানুর রহমান।

রোববার এ মামলায় হাজির হতে আসা তিন আসামিকে কারাগারে পাঠানো হয়।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন