শিক্ষার্থীর গোপন ভিডিও ভাইরালের ভয় দেখিয়ে টাকা দাবি
jugantor
শিক্ষার্থীর গোপন ভিডিও ভাইরালের ভয় দেখিয়ে টাকা দাবি

  পটুয়াখালী ও দক্ষিণ প্রতিনিধি  

২০ এপ্রিল ২০২১, ২১:১২:৩৪  |  অনলাইন সংস্করণ

পটুয়াখালীতে এক কলেজ শিক্ষার্থীর গোপন ভিডিও ভাইরালের ভয় দেখিয়ে মোটা অংকের টাকা দাবির অভিযোগে এক যুবককে আটক করেছে র‌্যাব। আটককৃত যুবক মো. হামিদুর নুর রানা (২৩) পটুয়াখালীর দুমকি উপজেলার কার্তিকপাশা গ্রামের আব্দুর রাজ্জাক শিকদারের ছেলে।

অভিযোগের ভিত্তিতে গত ১৯ এপ্রিল পটুয়াখালী র‌্যাব-৮ এর সদস্যরা ওই যুবককে আটক করলেও জিজ্ঞাসাবাদের কারণে ওই দিন রাতে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।

অভিযোগের বরাত দিয়ে পটুয়াখালী ক্যাম্পের ভারপ্রাপ্ত কোম্পানি কমান্ডার মো. রবিউল ইসলাম বলেন, অন্তত তিন মাস পূর্বে ফেসবুকের মাধ্যমে ভিকটিমের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক হয় আটককৃত রানার। সম্পর্কের সূত্র ধরে ভিকটিমকে নিয়ে কুয়াকাটা রোজ হোটেলে রাতযাপন করে রানা। ওই সময়ে রানা কৌশলে হোটেলে গোপন দৃশ্য ধারণ করে। পরে তা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়ার ভয় দেখিয়ে ওই কলেজ শিক্ষার্থীর কাছ থেকে মোটা অংকের অর্থ দাবি করে রানা।

তিনি বলেন, কোনো উপায়ান্ত না পেয়ে কলেজ শিক্ষার্থী র‌্যাবের সহায়তা চেয়ে লিখিত অভিযোগ করেন। র‌্যাবের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে অভিযুক্ত ব্যক্তি তার দোষ স্বীকার করেছে। রানাকে দুমকি থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

শিক্ষার্থীর গোপন ভিডিও ভাইরালের ভয় দেখিয়ে টাকা দাবি

 পটুয়াখালী ও দক্ষিণ প্রতিনিধি 
২০ এপ্রিল ২০২১, ০৯:১২ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

পটুয়াখালীতে এক কলেজ শিক্ষার্থীর গোপন ভিডিও ভাইরালের ভয় দেখিয়ে মোটা অংকের টাকা দাবির অভিযোগে এক যুবককে আটক করেছে র‌্যাব। আটককৃত যুবক মো. হামিদুর নুর রানা (২৩) পটুয়াখালীর দুমকি উপজেলার কার্তিকপাশা গ্রামের আব্দুর রাজ্জাক শিকদারের ছেলে।

অভিযোগের ভিত্তিতে গত ১৯ এপ্রিল পটুয়াখালী র‌্যাব-৮ এর সদস্যরা ওই যুবককে আটক করলেও জিজ্ঞাসাবাদের কারণে ওই দিন রাতে এ তথ্য নিশ্চিত করা হয়েছে।

অভিযোগের বরাত দিয়ে পটুয়াখালী ক্যাম্পের ভারপ্রাপ্ত কোম্পানি কমান্ডার মো. রবিউল ইসলাম বলেন, অন্তত তিন মাস পূর্বে ফেসবুকের মাধ্যমে ভিকটিমের সঙ্গে প্রেমের সম্পর্ক হয় আটককৃত রানার। সম্পর্কের সূত্র ধরে ভিকটিমকে নিয়ে কুয়াকাটা রোজ হোটেলে রাতযাপন করে রানা। ওই সময়ে রানা কৌশলে হোটেলে গোপন দৃশ্য ধারণ করে। পরে তা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে ছড়িয়ে দেয়ার ভয় দেখিয়ে ওই কলেজ শিক্ষার্থীর কাছ থেকে মোটা অংকের অর্থ দাবি করে রানা।

তিনি বলেন, কোনো উপায়ান্ত না পেয়ে কলেজ শিক্ষার্থী র‌্যাবের সহায়তা চেয়ে লিখিত অভিযোগ করেন। র‌্যাবের প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে অভিযুক্ত ব্যক্তি তার দোষ স্বীকার করেছে। রানাকে দুমকি থানায় হস্তান্তর করা হয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন