হাসপাতালে স্ত্রীকে রেখে পালাল স্বামী-স্বজনরা
jugantor
হাসপাতালে স্ত্রীকে রেখে পালাল স্বামী-স্বজনরা

  বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি  

২৫ এপ্রিল ২০২১, ২১:৩৯:২১  |  অনলাইন সংস্করণ

দিনাজপুরের কাহারোল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে স্ত্রী আজিফা বেগমের (২৩) লাশ রেখেই পালিয়ে গেছে স্বামী রায়হান আলী রুবেল। পাশাপাশি বাড়ি ছেড়ে লাপাত্তা হয়েছে পরিবারের লোকজন।

এ ঘটনায় কাহারোল থানা পুলিশ একটি অস্বাভাবিক মৃত্যু মামলা দায়ের করে গৃহবধূ আজিফার লাশ ময়নাতদন্তের জন্য দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেছে।

পুলিশ জানায়, কাহারোল উপজেলার টিপিকুড়া গ্রামের রায়হান আলী রুবেলের স্ত্রী আজিফা বেগম শনিবার সন্ধ্যায় নিজ বাড়ির শয়নকক্ষে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা চালায়। স্বামী রুবেল ও প্রতিবেশীরা রাতে তাকে কাহারোল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এরপর হাসপাতালে স্ত্রী আজিফার লাশ রেখেই লাপাত্তা হয় স্বামী রুবেল।

রোববার সকালে কাহারোল থানা পুলিশ হাসপাতাল থেকে লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করে।

বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করে কাহারোল থানার ওসি ফেরদৌস আলী জানান, এ বিষয়ে একটি অস্বাভাবিক মৃত্যুর (ইউডি) মামলা দায়ের করা হয়েছে এবং লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের ভিত্তিতেই পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

তিনি জানান, এ ঘটনার পর স্বামী ও তার পরিবারের লোকজন বাড়ি ছেড়ে পালিয়েছে।

হাসপাতালে স্ত্রীকে রেখে পালাল স্বামী-স্বজনরা

 বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি 
২৫ এপ্রিল ২০২১, ০৯:৩৯ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

দিনাজপুরের কাহারোল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে স্ত্রী আজিফা বেগমের (২৩) লাশ রেখেই পালিয়ে গেছে স্বামী রায়হান আলী রুবেল। পাশাপাশি বাড়ি ছেড়ে লাপাত্তা হয়েছে পরিবারের লোকজন।

এ ঘটনায় কাহারোল থানা পুলিশ একটি অস্বাভাবিক মৃত্যু মামলা দায়ের করে গৃহবধূ আজিফার লাশ ময়নাতদন্তের জন্য দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করেছে।

পুলিশ জানায়, কাহারোল উপজেলার টিপিকুড়া গ্রামের রায়হান আলী রুবেলের স্ত্রী আজিফা বেগম শনিবার সন্ধ্যায় নিজ বাড়ির শয়নকক্ষে গলায় ওড়না পেঁচিয়ে আত্মহত্যার চেষ্টা চালায়। স্বামী রুবেল ও প্রতিবেশীরা রাতে তাকে কাহারোল উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এরপর হাসপাতালে স্ত্রী আজিফার লাশ রেখেই লাপাত্তা হয় স্বামী রুবেল।

রোববার সকালে কাহারোল থানা পুলিশ হাসপাতাল থেকে লাশটি উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য দিনাজপুর এম আব্দুর রহিম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে প্রেরণ করে।

বিষয়টির সত্যতা নিশ্চিত করে কাহারোল থানার ওসি ফেরদৌস আলী জানান, এ বিষয়ে একটি অস্বাভাবিক মৃত্যুর (ইউডি) মামলা দায়ের করা হয়েছে এবং লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ করা হয়েছে। ময়নাতদন্তের ভিত্তিতেই পরবর্তী আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

তিনি জানান, এ ঘটনার পর স্বামী ও তার পরিবারের লোকজন বাড়ি ছেড়ে পালিয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও খবর
 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন