শরণখোলায় রক্তাক্ত লরিচালকের লাশ উদ্ধার
jugantor
শরণখোলায় রক্তাক্ত লরিচালকের লাশ উদ্ধার

  শরণখোলা (বাগেরহাট) প্রতিনিধি  

২৯ এপ্রিল ২০২১, ১৪:৪৬:০১  |  অনলাইন সংস্করণ

শরণখোলায় রক্তাক্ত লরিচালকের লাশ উদ্ধার

বাগেরহাটের শরণখোলা উপজেলায় অহিদুজ্জামান সবুজ (৩২) নামে এক লরিচালকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার সকালে নির্মাণাধীন বেড়িবাঁধের ব্লক ইয়ার্ড থেকে ওই চালকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

নিহত সবুজ উপজেলার বকুলতলা গ্রামের নওয়াব হোসেন মধুর ছেলে।
এ ঘটনায় পুলিশ চাল রায়েন্দা গ্রামের আ. রশিদ হাওলাদারের ছেলে শহিদুল ইসলামকে (৪০) জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে।

এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার চাল রায়েন্দা এলাকায় উপকূল রক্ষা বেড়িবাঁধ নির্মাণ প্রকল্পের চায়নার ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান সিএইচডাব্লিউইর ব্লক নির্মাণ ইয়ার্ডের লরিচালক অহিদুজ্জামান সবুজ ও গাড়িচালক শহিদুল কেয়ারিংয়ের কাজ করছিলেন।

সকাল ৯টার দিকে হঠাৎ লরির চাকার পাশে অহিদুল ইসলাম সবুজের রক্তাক্ত মরদেহ দেখতে পেয়ে শহিদুল আশপাশের লোকজনকে খবর দেয়। পরে পুলিশ এসে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নিয়ে যায়।

শরণখোলা থানার ওসি মো. সাইদুর রহমান জানান, নিহত সবুজের মাথা থেঁতলানোসহ ডান হাত ও বাঁ পা ভাঙা রক্তাক্ত আবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে। কাজের স্থানে শহিদুল ছাড়া আর কেউ না থাকায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাকে আটক করা হয়েছে। তবে ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে এটি হত্যা না দুর্ঘটনা তা নিশ্চিত হওয়া যাবে।

শরণখোলায় রক্তাক্ত লরিচালকের লাশ উদ্ধার

 শরণখোলা (বাগেরহাট) প্রতিনিধি 
২৯ এপ্রিল ২০২১, ০২:৪৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
শরণখোলায় রক্তাক্ত লরিচালকের লাশ উদ্ধার
ছবি: যুগান্তর

বাগেরহাটের শরণখোলা উপজেলায় অহিদুজ্জামান সবুজ (৩২) নামে এক লরিচালকের মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার সকালে নির্মাণাধীন বেড়িবাঁধের ব্লক ইয়ার্ড থেকে ওই চালকের মরদেহ উদ্ধার করা হয়।

নিহত সবুজ উপজেলার বকুলতলা গ্রামের নওয়াব হোসেন মধুর ছেলে।
এ ঘটনায় পুলিশ চাল রায়েন্দা গ্রামের আ. রশিদ হাওলাদারের ছেলে শহিদুল ইসলামকে (৪০) জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে।

এলাকাবাসী ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, উপজেলার চাল রায়েন্দা এলাকায় উপকূল রক্ষা বেড়িবাঁধ নির্মাণ প্রকল্পের চায়নার ঠিকাদারি প্রতিষ্ঠান সিএইচডাব্লিউইর ব্লক নির্মাণ ইয়ার্ডের লরিচালক অহিদুজ্জামান সবুজ ও গাড়িচালক শহিদুল কেয়ারিংয়ের কাজ করছিলেন।

সকাল ৯টার দিকে হঠাৎ লরির চাকার পাশে অহিদুল ইসলাম সবুজের রক্তাক্ত মরদেহ দেখতে পেয়ে শহিদুল আশপাশের লোকজনকে খবর দেয়।  পরে পুলিশ এসে মরদেহ উদ্ধার করে ময়নাতদন্তের জন্য নিয়ে যায়।

শরণখোলা থানার ওসি মো. সাইদুর রহমান জানান, নিহত সবুজের মাথা থেঁতলানোসহ ডান হাত ও বাঁ পা ভাঙা রক্তাক্ত আবস্থায় উদ্ধার করা হয়েছে। কাজের স্থানে শহিদুল ছাড়া আর কেউ না থাকায় জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাকে আটক করা হয়েছে।  তবে ময়নাতদন্তের রিপোর্ট পেলে এটি হত্যা না দুর্ঘটনা তা নিশ্চিত হওয়া যাবে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন