দুই পক্ষের সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে কিশোর নিহত 
jugantor
দুই পক্ষের সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে কিশোর নিহত 

  নরসিংদী প্রতিনিধি  

১৭ মে ২০২১, ২৩:৩৮:৩৪  |  অনলাইন সংস্করণ

সংঘর্ষ

নরসিংদীর রায়পুরায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দু’দলের সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে ইয়াছিন (১২) নামে এক কিশোর নিহত হয়েছে। এতে ৩ জন গুলিবিদ্ধসহ আহত হয়েছেন অন্তত ১০ জন। এ সময় বেশ কয়েকটি বাড়ি ঘরে ভাংচুর ও অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটে।

সোমবার সন্ধ্যায় উপজেলার কাচারিকান্দি গ্রামের শাহ আলম মেম্বার ও ফজলু মেম্বারের সমর্থিতদের মধ্যে এ ঘটনা ঘটে।

গুলিবিদ্ধ ৩ জন হলেন রুবেল, বাহক ও সাগর। তাদেরকে বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনার সত্যতাটি নিশ্চিত করেছে রায়পুরা থানার সেকেন্ড অফিসার দেব দুলাল দে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, এলাকার আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে রায়পুরা উপজেলার চরাঞ্চল পাড়াতলী ইউনিয়নের কাচারিকান্দী গ্রামের শাহ আলম মেম্বার ও ফজলু মেম্বারের সমর্থিতদের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। এরই জের ধরে সোমবার সন্ধ্যায় দুই দল সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এ সময় উভয় গ্রুপের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়াসহ গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটে।

এতে প্রতিপক্ষের গুলিতে ইয়াছিনের বুকে গুলিবিদ্ধ হয়। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে রায়পুরা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে তাকে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

রায়পুরা থানার এসআই রেজাউল করিম বলেন, সংঘর্ষে একজন নিহত হয়েছে। ঘটনার পরপরই ওসি তদন্তসহ পুলিশের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে রয়েছেন। পরিস্থিতি এখন নিয়ন্ত্রণে রয়েছে।

দুই পক্ষের সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে কিশোর নিহত 

 নরসিংদী প্রতিনিধি 
১৭ মে ২০২১, ১১:৩৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
সংঘর্ষ
সংঘষের সময় অগ্নিসংযোগ

নরসিংদীর রায়পুরায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে দু’দলের সংঘর্ষে গুলিবিদ্ধ হয়ে ইয়াছিন (১২) নামে এক কিশোর নিহত হয়েছে। এতে ৩ জন গুলিবিদ্ধসহ আহত হয়েছেন অন্তত ১০ জন। এ সময় বেশ কয়েকটি বাড়ি ঘরে ভাংচুর ও অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটে।

সোমবার সন্ধ্যায় উপজেলার কাচারিকান্দি গ্রামের শাহ আলম মেম্বার ও ফজলু মেম্বারের সমর্থিতদের মধ্যে এ ঘটনা ঘটে। 

গুলিবিদ্ধ ৩ জন হলেন রুবেল, বাহক ও সাগর। তাদেরকে বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। ঘটনার সত্যতাটি নিশ্চিত করেছে রায়পুরা থানার সেকেন্ড অফিসার দেব দুলাল দে। 

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, এলাকার আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে রায়পুরা উপজেলার চরাঞ্চল পাড়াতলী ইউনিয়নের কাচারিকান্দী গ্রামের শাহ আলম মেম্বার ও ফজলু মেম্বারের সমর্থিতদের মধ্যে দীর্ঘদিন ধরে বিরোধ চলে আসছিল। এরই জের ধরে সোমবার সন্ধ্যায় দুই দল সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়ে। এ সময় উভয় গ্রুপের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়াসহ গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটে। 

এতে প্রতিপক্ষের গুলিতে ইয়াছিনের বুকে গুলিবিদ্ধ হয়। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে রায়পুরা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে তাকে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত ডাক্তার তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

রায়পুরা থানার এসআই রেজাউল করিম বলেন, সংঘর্ষে একজন নিহত হয়েছে। ঘটনার পরপরই ওসি তদন্তসহ পুলিশের কর্মকর্তারা ঘটনাস্থলে রয়েছেন। পরিস্থিতি এখন নিয়ন্ত্রণে রয়েছে। 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন