কেসিসি নির্বাচন

বিএনপির মেয়র প্রার্থী মঞ্জুর ১৯ দফা ইশতেহার

  খুলনা ব্যুরো ২৭ এপ্রিল ২০১৮, ০২:২৫ | অনলাইন সংস্করণ

খুলনা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন ২০১৮

খুলনা সিটি কর্পোরেশন (কেসিসি) নির্বাচনে বিএনপি মনোনীত ও ২০ দলীয় জোট সমর্থিত মেয়র প্রার্থী নজরুল ইসলাম মঞ্জু ‘গ্রীন খুলনা, ক্লিন খুলনা’ গড়ার লক্ষ্যে ১৯ দফা নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণা করেছেন।

বৃহস্পতিবার বেলা সাড়ে ১১টায় নগরীর কেডি ঘোষ রোডস্থ দলীয় কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ ইশতেহার ঘোষণা করেন। এ ইশতেহারের এক নম্বরেই মহানগরে নাগরিক শাসন প্রতিষ্ঠার উদ্যোগের বিষয়টি রাখা হয়েছে।

ইশতেহারের অন্যান্য পরিকল্পনার মধ্যে রয়েছে- নাগরিক পরিকল্পনার প্রবর্তন, নাগরিক মর্যাদা ও সম্মান সংরক্ষণ এবং গুনীজন সম্মাননা, জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলায় সহনশীল শহর হিসেবে গড়ে তোলা, সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতির ঐতিহ্য সংরক্ষণ, শিশু-বয়স্ক ও প্রতিবন্ধী সহায়ক পরিকল্পনা, মাদক বিরোধী খুলনা গড়ার অঙ্গীকার, নারী অধিকার প্রতিষ্ঠায় সহায়তা প্রদান, নগরবাসীর স্বাস্থ্য উন্নয়ন, মহানগরীর পার্ক, উদ্যান ও বৃক্ষ সংরক্ষণ, ক্রীড়া, বিনোদন ও শরীর চর্চার সুযোগ সৃষ্টি, ভেজাল মুক্ত বিশুদ্ধ খাদ্য সরবরাহ, মহানগরীর সড়ক উন্নয়ন ও বর্জ্য-বৃষ্টির পানি নিষ্কাশন, শিক্ষা ব্যবস্থার উন্নয়ন, খালিশপুর শিল্পাঞ্চল পুনরুজ্জীবনের পদক্ষেপ, শিল্প ও কলকারখানা স্থাপনে সহযোগিতা দান, সাংস্কৃতিক কর্মকাণ্ডের উন্নয়ন, বিশ্ব ঐতিহ্য সুন্দরবন রক্ষায় ভূমিকা পালন এবং হোল্ডিং ট্যাক্স বৃদ্ধি না করে নতুন হোল্ডিং প্রাপ্তি সহজীকরণ, রিকশা, অটোরিকশা, ভ্যান, ইজিবাইকের লাইসেন্স প্রদান সহজতরকরণ, ক্ষুদ্র যানবাহনের লাইসেন্স প্রাপ্তির অজুহাতে টোকেন বাণিজ্যের নামে অবৈধ ব্যবসা রোধ, শিক্ষার্থীদের বিনামুল্যে ওয়াইফাই তথা ইন্টারনেট ব্যবহার, তথ্য প্রযুক্তি ব্যবহারের মাধ্যমে স্বাবলম্বী হওয়ার জন্য ফ্রিল্যান্সিং সেন্টার স্থাপন, সিটি কর্পোরেশনের আয়ের উৎস্য বৃদ্ধির লক্ষে নতুন মার্কেট নির্মাণ, খুলনার শিল্প বিকাশের স্বার্থে পাইপ লাইনে গ্যাস সংযোগ পেতে ভূমিকা পালন, কেসিসির প্রশাসনিক কাঠামো ঢেলে সাজানো, শ্রমিক-কর্মচারীদের ৯০ মাসের গ্রাচ্যুইটি ফান্ড গঠন, হকার, ক্ষুদ্র যানবাহন শ্রমিকসহ সকল পর্যায়ের শ্রমিকদের পাশে থাকা, হতদরিদ্র ও ছিন্নমুলদের পুনর্বাসনের উদ্যোগসহ নগরীর বিভিন্ন উন্নয়ন কর্মকাণ্ডে তিনি ইশতেহারে আরও ১৮টি উপ-দফাও ঘোষণা করেন।

ইশতেহার ঘোষণা শেষে নজরুল ইসলাম মঞ্জু বলেন, তিনি মেয়র নির্বাচিত হলে খুলনা সিটি কর্পোরেশনকে একটি ‘নাগরিক শাসন’ ভিত্তিক জবাবদিহিমূলক, গণতান্ত্রিক ও স্বচ্ছ প্রতিষ্ঠান হিসেবে গড়ে তোলা হবে। নাগরিকদের ইচ্ছাতেই সিটি কর্পোরেশন পরিচালনা করা হবে। নগর ভবন হবে জনতার ভবন। যে কোনো প্রয়োজনে বাধাহীনভাবে তার সঙ্গে সাক্ষাৎ এবং মেয়রের দরজা সকল নাগরিকের জন্য উন্মুক্ত থাকবে।

আমি কোনো সাহেব হতে চাই না, ‘মঞ্জু’ বা ‘মঞ্জু ভাই’ নামেই আমৃত্যু আমাকে ডাকবেন বলেও উল্লেখ করেন তিনি।

নাগরিক সেবার ক্ষেত্রে আমাদের পূর্বসূরীদের অনবদ্য অবদানসমূহের স্বার্থক স্বীকৃতির মাধ্যমেই খুলনার জন্য আরও আধুনিক ও উন্নত পরিকল্পনা গ্রন্থিত করতে অনুপ্রাণিত ও উদ্যোগী হতে ভোট প্রদান করে তাকে মেয়র নির্বাচিত করতে নগরবাসীর প্রতি আহ্বান জানান তিনি।

ইশতেহার ঘোষণা অনুষ্ঠানে বিএনপির জাতীয় স্থায়ী কমিটির সদস্য ও ২০ দলীয় জোটের নির্বাচন পরিচালনা কমিটির প্রধান সমন্বয়ক গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, সমন্বয়কারী অ্যাডভোকেট এসএম শফিকুল আলম মনা, সদস্য সচিব নগর জামায়াতের সহকারী সেক্রেটারি অ্যাডভোকেট শাহ আলম, মহানগর বিএনপির সিনিয়র সহসভাপতি সাহারুজ্জামান মোর্ত্তজা, জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক আমির এজাজ খান, সাবেক এমপি সেকেন্দার আলী ডালিম, খেলাফত মজলিসের কেন্দ্রীয় নায়েবে আমীর মাওলানা সাখাওয়াত হোসাইন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

ঘটনাপ্রবাহ : খুলনা সিটি কর্পোরেশন নির্বাচন ২০১৮

 

 

জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন
  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
সব খবর

ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক : সাইফুল আলম, প্রকাশক : সালমা ইসলাম

প্রকাশক কর্তৃক ক-২৪৪ প্রগতি সরণি, কুড়িল (বিশ্বরোড), বারিধারা, ঢাকা-১২২৯ থেকে প্রকাশিত এবং যমুনা প্রিন্টিং এন্ড পাবলিশিং লিঃ থেকে মুদ্রিত।

পিএবিএক্স : ৯৮২৪০৫৪-৬১, রিপোর্টিং : ৯৮২৪০৭৩, বিজ্ঞাপন : ৯৮২৪০৬২, ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৩, সার্কুলেশন : ৯৮২৪০৭২। ফ্যাক্স : ৯৮২৪০৬৬ 

E-mail: [email protected]

© সর্বস্বত্ব স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০০০-২০১৮

converter