একসঙ্গে তিন শিশুর জন্ম, মারা গেল একজন
jugantor
একসঙ্গে তিন শিশুর জন্ম, মারা গেল একজন

  বুড়িচং (কুমিল্লা) প্রতিনিধি  

০৯ জুন ২০২১, ২০:৫৬:২০  |  অনলাইন সংস্করণ

নবজাতক

কুমিল্লার বুড়িচংয়ে একসঙ্গে তিনটি ছেলে সন্তান প্রসব করেন রোমা আক্তার নামে এক প্রসূতি। সোমবার সকালে কুমিল্লা শহরের বেসরকারি পিপলস হাসপাতালে শিশু তিনটির জন্ম হয়। এর মধ্যে একজন মারা যান।

রোমা আক্তার বুড়িচং উপজেলার বাকশীমূল উত্তরপাড়া সাবেক মেম্বার মোসলেম উদ্দিনের বাড়ির গেদু মিয়ার দ্বিতীয় সন্তান অটোরিকশা চালক মো. আব্দুল জলিলের স্ত্রী।

বুধবার সকালে এসব তথ্য জানান রোমার পরিবার।

পরিবার সূত্রে জানা যায়, প্রসব বেদনা নিয়ে কুমিল্লা টমছম ব্রিজ সংলগ্নে পিপলস হাসপাতালে ভর্তি হন রোমা আক্তার। অবস্থা বিবেচনা করে সোমবার সকাল ৬টার সময় তার অপারেশন করা হয়। ওই সময় একসঙ্গে জন্ম নেয় রোমা আক্তারের ১ ছেলে ২ মেয়ে সন্তান।

পরিবার জানায়, নবজাতকরা ও তাদের মা তেমনটা সুস্থ নাই। শিশুটির মা রোমা আক্তার পিপলস হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। তিন শিশু সন্তানকে কুমিল্লা মেডিকেল হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নেওয়া হয়। খুব পরিতাপের বিষয় হলো এক শিশুকে বাঁচানো গেলো না।

জানা যায়, আব্দুল জলিলের বিয়ের প্রায় ১০ বছর তাদের কোলজুড়ে ওই তিন শিশুর জন্ম হয়।

পরিবার সূত্রে আরও জানা যায়, আব্দুল জলিল পেশায় একজন ব্যাটারি চালিত অটোরিকশা চালক। হাসপাতালে শিশুটির জন্ম হওয়ায় এই পর্যন্ত প্রায় ৫০ হাজার টাকা খরচ হয়। এতো টাকা খরচ করার পরেও এক মেয়ে শিশু সন্তানকে বাঁচানো গেলো না। বাকি ২ শিশুকে বাঁচাতে চিকিৎসা বাবদ এখন প্রচুর অর্থের প্রয়োজন। এতো অর্থ একসঙ্গে করা তার পক্ষে একা সম্ভব নয়।

একসঙ্গে তিন শিশুর জন্ম, মারা গেল একজন

 বুড়িচং (কুমিল্লা) প্রতিনিধি 
০৯ জুন ২০২১, ০৮:৫৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
নবজাতক
ফাইল ছবি

কুমিল্লার বুড়িচংয়ে একসঙ্গে তিনটি ছেলে সন্তান প্রসব করেন রোমা আক্তার নামে এক প্রসূতি। সোমবার সকালে কুমিল্লা শহরের বেসরকারি পিপলস হাসপাতালে শিশু তিনটির জন্ম হয়। এর মধ্যে একজন মারা যান।

রোমা আক্তার বুড়িচং উপজেলার বাকশীমূল উত্তরপাড়া সাবেক মেম্বার মোসলেম উদ্দিনের বাড়ির গেদু মিয়ার দ্বিতীয় সন্তান অটোরিকশা চালক মো. আব্দুল জলিলের স্ত্রী। 

বুধবার সকালে এসব তথ্য জানান রোমার পরিবার।

পরিবার সূত্রে জানা যায়, প্রসব বেদনা নিয়ে কুমিল্লা টমছম ব্রিজ সংলগ্নে পিপলস হাসপাতালে ভর্তি হন রোমা আক্তার। অবস্থা বিবেচনা করে সোমবার সকাল ৬টার সময় তার অপারেশন করা হয়। ওই সময় একসঙ্গে জন্ম নেয় রোমা আক্তারের ১ ছেলে ২ মেয়ে সন্তান।

পরিবার  জানায়, নবজাতকরা ও তাদের মা তেমনটা সুস্থ নাই। শিশুটির মা রোমা আক্তার পিপলস হাসপাতালে চিকিৎসাধীন আছেন। তিন শিশু সন্তানকে কুমিল্লা মেডিকেল হাসপাতালে চিকিৎসার জন্য নেওয়া হয়। খুব পরিতাপের বিষয় হলো এক শিশুকে বাঁচানো গেলো না।

জানা যায়, আব্দুল জলিলের বিয়ের প্রায় ১০ বছর তাদের কোলজুড়ে ওই তিন শিশুর জন্ম হয়।

পরিবার সূত্রে আরও জানা যায়, আব্দুল জলিল পেশায় একজন ব্যাটারি চালিত অটোরিকশা চালক। হাসপাতালে শিশুটির জন্ম হওয়ায় এই পর্যন্ত প্রায় ৫০ হাজার টাকা খরচ হয়। এতো টাকা খরচ করার পরেও এক মেয়ে শিশু সন্তানকে বাঁচানো গেলো না। বাকি ২ শিশুকে বাঁচাতে চিকিৎসা বাবদ এখন প্রচুর অর্থের প্রয়োজন। এতো অর্থ একসঙ্গে করা তার পক্ষে একা সম্ভব নয়।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন