আওয়ামী লীগের হরতালে থমকে গেছে কোম্পানীগঞ্জ! (ভিডিও)
jugantor
আওয়ামী লীগের হরতালে থমকে গেছে কোম্পানীগঞ্জ! (ভিডিও)

  কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি  

১৩ জুন ২০২১, ২২:১৪:২৯  |  অনলাইন সংস্করণ

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদলকে পিটিয়ে জখম করার প্রতিবাদে আওয়ামী লীগের ডাকা ৪৮ ঘণ্টার হরতালের দ্বিতীয় দিনও কার্যত অচল হয়ে পড়ে পুরো উপজেলা। থমকে গেছে কোম্পানীগঞ্জের ব্যবসা-বাণিজ্যসহ সব কিছু।

রোববার সকালে বসুরহাট নতুন বাসস্ট্যান্ড এলাকায় চট্টগ্রামের উদ্দেশে ছেড়ে যাওয়া বসুরহাট এক্সপ্রেসের একটি বাস ভাংচুর করে পিকেটাররা। এ সময় আহত হন গাড়ির চালক, সুপারভাইজার ও হেলপার।

ভোর থেকে উপজেলার চরফকিরা, চরকাঁকড়া, রামপুর, মুছাপুর, চরএলাহী, চরহাজারী, চরপার্বতী, সিরাজপুরসহ সমগ্র এলাকায় সর্বাত্মক হরতাল পালিত হচ্ছে। হরতালকারীরা সব সড়কে গাছ কেটে, গাছের গুঁড়ি ফেলে, টায়ার জ্বালিয়ে ও বৈদ্যুতিক পিলার দিয়ে ব্যারিকেড সৃষ্টি করে অচলাবস্থা তৈরি করে বিক্ষোভ মিছিল করছে।

প্রায় আড়াইশ পুলিশ, র‌্যাবসহ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী হরতাল ঠেকাতে মাঠে থাকলেও হরতালকারীরা বেপরোয়া হয়ে ওঠেছে। পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস সদস্যরা রাস্তায় কেটে ফেলা গাছ ও প্রতিবন্ধকতা অপসারণ করলেও পুনরায় রাস্তায় ব্যারিকেড দিচ্ছেন আন্দোলনকারীরা। সোমবার দুপুর ১২টায় ৪৮ ঘণ্টা ডাকা হরতালের সময় শেষ হবে।

উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদলের ওপর হামলার প্রতিবাদে- মেয়র আবদুল কাদের মির্জাকে দল থেকে বহিষ্কার ও গ্রেফতারের দাবিতে চলমান আন্দোলনের পরবর্তী কর্মসূচি সোমবার দুপুরে ঘোষণা করার কথা রয়েছে।

এদিকে হরতালের প্রথমদিন শনিবার দুপুরে চরকাঁকড়া ইউনিয়নের টেকেরবাজারে পুলিশের সঙ্গে হরতালকারীদের সংঘর্ষের ঘটনায় ওই রাতে কোম্পানীগঞ্জ থানার এসআই মো. নিজাম উদ্দিন বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছেন।

মামলায় মিজানুর রহমান বাদল অনুসারী উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা ফখরুল ইসলাম সবুজকে প্রধান আসামি করে ১৩ জনের নাম উল্লেখসহ ১০০-১৫০ জনকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে।

এতে থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আবুল কালাম আজাদসহ চারজন পুলিশ আহত ও হরতাল ঠেকাতে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে ৩৪ রাউন্ড গুলিবর্ষণের বিষয়টি উল্লেখ করেছেন বলে নিশ্চিত করেন বাদী পুলিশের এসআই মো. নিজাম উদ্দিন। তবে এ ঘটনায় কাউকে আটক করতে পারেনি পুলিশ।

কাদের মির্জার ভাগিনা ও উপজেলা আওয়ামী লীগের মুখপাত্র মাহবুবুর রশিদ মঞ্জু জানান, প্রয়োজনে ১০০ লাশ পড়বে তারপরও কাদের মির্জাকে গ্রেফতারের আগপর্যন্ত আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা ঘরে ফিরবে না।

কোম্পানীগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আবুল কালাম আজাদ জানান, পুলিশসহ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী মাঠে রয়েছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক। পুলিশের দায়ের করা মামলাটি রেকর্ড করা হয়েছে। তবে বাদল আহতের ঘটনায় এখনো কোনো অভিযোগ পাওয়া যায়নি, পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এর আগে শনিবার সকাল ৯টার দিকে বসুরহাটের মেয়র আবদুল কাদের মির্জার নেতৃত্বে প্রতিপক্ষ আওয়ামী লীগ নেতা ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদলের ওপর বসুরহাট বাজারে হামলা চালানো হয়। এতে বাদলসহ সাবেক ছাত্রনেতা হাসিব আহসান আলাল আহত হন। তাদের উদ্ধার করে ঢাকা ট্রমা সেন্টারে ভর্তি করা হয়েছে। পরে এ ঘটনায় কাদের মির্জার গ্রেফতার দাবিতে ৪৮ ঘণ্টার হরতাল ঘোষণা করে উপজেলা আওয়ামী লীগ।

আওয়ামী লীগের হরতালে থমকে গেছে কোম্পানীগঞ্জ! (ভিডিও)

 কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি 
১৩ জুন ২০২১, ১০:১৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জে সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদলকে পিটিয়ে জখম করার প্রতিবাদে আওয়ামী লীগের ডাকা ৪৮ ঘণ্টার হরতালের দ্বিতীয় দিনও কার্যত অচল হয়ে পড়ে পুরো উপজেলা। থমকে গেছে কোম্পানীগঞ্জের ব্যবসা-বাণিজ্যসহ সব কিছু।

রোববার সকালে বসুরহাট নতুন বাসস্ট্যান্ড এলাকায় চট্টগ্রামের উদ্দেশে ছেড়ে যাওয়া বসুরহাট এক্সপ্রেসের একটি বাস ভাংচুর করে পিকেটাররা। এ সময় আহত হন গাড়ির চালক, সুপারভাইজার ও হেলপার।

ভোর থেকে উপজেলার চরফকিরা, চরকাঁকড়া, রামপুর, মুছাপুর, চরএলাহী, চরহাজারী, চরপার্বতী, সিরাজপুরসহ সমগ্র এলাকায় সর্বাত্মক হরতাল পালিত হচ্ছে। হরতালকারীরা সব সড়কে গাছ কেটে, গাছের গুঁড়ি ফেলে, টায়ার জ্বালিয়ে ও বৈদ্যুতিক পিলার দিয়ে ব্যারিকেড সৃষ্টি করে অচলাবস্থা তৈরি করে বিক্ষোভ মিছিল করছে।

প্রায় আড়াইশ পুলিশ, র‌্যাবসহ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী হরতাল ঠেকাতে মাঠে থাকলেও হরতালকারীরা বেপরোয়া হয়ে ওঠেছে। পুলিশ ও ফায়ার সার্ভিস সদস্যরা রাস্তায় কেটে ফেলা গাছ ও প্রতিবন্ধকতা অপসারণ করলেও পুনরায় রাস্তায় ব্যারিকেড দিচ্ছেন আন্দোলনকারীরা। সোমবার দুপুর ১২টায় ৪৮ ঘণ্টা ডাকা হরতালের সময় শেষ হবে।

উপজেলা আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদলের ওপর হামলার প্রতিবাদে- মেয়র আবদুল কাদের মির্জাকে দল থেকে বহিষ্কার ও গ্রেফতারের দাবিতে চলমান আন্দোলনের পরবর্তী কর্মসূচি সোমবার দুপুরে ঘোষণা করার কথা রয়েছে।

এদিকে হরতালের প্রথমদিন শনিবার দুপুরে চরকাঁকড়া ইউনিয়নের টেকেরবাজারে পুলিশের সঙ্গে হরতালকারীদের সংঘর্ষের ঘটনায় ওই রাতে কোম্পানীগঞ্জ থানার এসআই মো. নিজাম উদ্দিন বাদী হয়ে একটি মামলা দায়ের করেছেন।

মামলায় মিজানুর রহমান বাদল অনুসারী উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা ফখরুল ইসলাম সবুজকে প্রধান আসামি করে ১৩ জনের নাম উল্লেখসহ ১০০-১৫০ জনকে অজ্ঞাত আসামি করা হয়েছে।

এতে থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আবুল কালাম আজাদসহ চারজন পুলিশ আহত ও হরতাল ঠেকাতে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে ৩৪ রাউন্ড গুলিবর্ষণের বিষয়টি উল্লেখ করেছেন বলে নিশ্চিত করেন বাদী পুলিশের এসআই  মো. নিজাম উদ্দিন। তবে এ ঘটনায় কাউকে আটক করতে পারেনি পুলিশ।

কাদের মির্জার ভাগিনা ও উপজেলা আওয়ামী লীগের মুখপাত্র মাহবুবুর রশিদ মঞ্জু জানান, প্রয়োজনে ১০০ লাশ পড়বে তারপরও কাদের মির্জাকে গ্রেফতারের আগপর্যন্ত আওয়ামী লীগের নেতাকর্মীরা ঘরে ফিরবে না।

কোম্পানীগঞ্জ থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আবুল কালাম আজাদ জানান, পুলিশসহ আইনশৃঙ্খলা রক্ষাকারী বাহিনী মাঠে রয়েছে। পরিস্থিতি স্বাভাবিক। পুলিশের দায়ের করা মামলাটি রেকর্ড করা হয়েছে। তবে বাদল আহতের ঘটনায় এখনো কোনো অভিযোগ পাওয়া যায়নি, পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এর আগে শনিবার সকাল ৯টার দিকে বসুরহাটের মেয়র আবদুল কাদের মির্জার নেতৃত্বে প্রতিপক্ষ আওয়ামী লীগ নেতা ও সাবেক উপজেলা চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান বাদলের ওপর বসুরহাট বাজারে হামলা চালানো হয়। এতে বাদলসহ সাবেক ছাত্রনেতা হাসিব আহসান আলাল আহত হন। তাদের উদ্ধার করে ঢাকা ট্রমা সেন্টারে ভর্তি করা হয়েছে। পরে এ ঘটনায় কাদের মির্জার গ্রেফতার দাবিতে ৪৮ ঘণ্টার হরতাল ঘোষণা করে উপজেলা আওয়ামী লীগ।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন