নারী পোশাক শ্রমিককে পালাক্রমে ধর্ষণ
jugantor
নারী পোশাক শ্রমিককে পালাক্রমে ধর্ষণ

  কালিয়াকৈর (গাজীপুর) প্রতিনিধি  

১৩ জুন ২০২১, ২২:৩৪:২৭  |  অনলাইন সংস্করণ

গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার রতনপুর এলাকায় সুতা তৈরির কারখানার এক নারী শ্রমিককে পালাক্রমে ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। এ অভিযোগে শনিবার রাতে দুই ধর্ষককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

গ্রেফতারকৃতরা হলো- উপজেলার রতনপুর গ্রামের বাবুল হোসেনের ছেলে নাইম হোসেন (২৬) ও একই গ্রামের জইনুদ্দিনের ছেলে আনোয়ার হোসেন (২৫)। এ ঘটনায় রাতেই ওই নারী বাদী হয়ে তিন যুবকের নামে মামলা দায়ের করেন।

পুলিশ ও মামলার এজাহারে জানা যায়, ওই নারী শ্রমিক গত ৯ জুন বিকালে রতনপুর রেলস্টেশন এলাকায় দুই বান্ধবী নিয়ে বেড়াতে যান। সেখান থেকে আসামিরা ওই নারী শ্রমিককে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে মরারটেক নামক এলাকার গজারিবনের ভিতর নিয়ে যায়। সেখানে তাকে জোরপূর্বক পালাক্রমে ধর্ষণ করে।

পরে বিষয়টি ওই নারীর বান্ধবীরা তার বাসায় জানালে বাসার লোকজন ওই গজারিবনে গিয়ে তাকে উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসা দেন। এ ঘটনায় গত শনিবার বিকালে ওই নারী শ্রমিক বাদী হয়ে কালিয়াকৈর থানায় অভিযোগ দিলে পুলিশ বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে দুই ধর্ষককে গ্রেফতার করে।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মাহবুব রহমান জানান, ওই নারী শ্রমিকের মামলার জের ধরে দুই আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অপর আসামি নাহিদকেও গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। এছাড়া ওই নারীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গ্রেফতার আসামিদের রোববার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

নারী পোশাক শ্রমিককে পালাক্রমে ধর্ষণ

 কালিয়াকৈর (গাজীপুর) প্রতিনিধি 
১৩ জুন ২০২১, ১০:৩৪ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

গাজীপুরের কালিয়াকৈর উপজেলার রতনপুর এলাকায় সুতা তৈরির কারখানার এক নারী শ্রমিককে পালাক্রমে ধর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। এ অভিযোগে শনিবার রাতে দুই ধর্ষককে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। 

গ্রেফতারকৃতরা হলো- উপজেলার রতনপুর গ্রামের বাবুল হোসেনের ছেলে নাইম হোসেন (২৬) ও একই গ্রামের জইনুদ্দিনের ছেলে আনোয়ার হোসেন (২৫)। এ ঘটনায় রাতেই ওই নারী বাদী হয়ে তিন যুবকের নামে মামলা দায়ের করেন।

পুলিশ ও মামলার এজাহারে জানা যায়, ওই নারী শ্রমিক গত ৯ জুন বিকালে রতনপুর রেলস্টেশন এলাকায় দুই বান্ধবী নিয়ে বেড়াতে যান। সেখান থেকে আসামিরা ওই নারী শ্রমিককে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে মরারটেক নামক এলাকার গজারিবনের ভিতর নিয়ে যায়। সেখানে তাকে জোরপূর্বক পালাক্রমে ধর্ষণ করে।

পরে বিষয়টি ওই নারীর বান্ধবীরা তার বাসায় জানালে বাসার লোকজন ওই গজারিবনে গিয়ে তাকে উদ্ধার করে প্রাথমিক চিকিৎসা দেন। এ ঘটনায় গত শনিবার বিকালে ওই নারী শ্রমিক বাদী হয়ে কালিয়াকৈর থানায় অভিযোগ দিলে পুলিশ বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালিয়ে দুই ধর্ষককে গ্রেফতার করে।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই মাহবুব রহমান জানান, ওই নারী শ্রমিকের মামলার জের ধরে দুই আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে। অপর আসামি নাহিদকেও গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে। এছাড়া ওই নারীকে ডাক্তারি পরীক্ষার জন্য গাজীপুর শহীদ তাজউদ্দীন আহমদ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। গ্রেফতার আসামিদের রোববার দুপুরে আদালতের মাধ্যমে জেলহাজতে প্রেরণ করা হয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন