অবসরের আগেই সড়কে প্রাণ হারালেন এসআই
jugantor
অবসরের আগেই সড়কে প্রাণ হারালেন এসআই

  ছাগলনাইয়া (ফেনী) প্রতিনিধি  

১৮ জুন ২০২১, ১১:৫২:২৮  |  অনলাইন সংস্করণ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় সড়ক দুর্ঘটনায় গোলাম মোস্তফা (৫৭) নামে এক পুলিশের এসআই নিহত হয়েছেন।

বৃহস্পতিবার রাতে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

এদিন রাত ৯টা ৫০ মিনিটের দিকে ডিউটি চলাকালীন কসবা থানা এলাকার কালামোড়া প্রধান সড়ক পার হতে গিয়ে দুর্ঘটনার শিকার হন তিনি।

এসআই গোলাম মোস্তফা কসবা থানায় কর্মরত ছিলেন। তিনি ফুলগাজীর আনন্দপুর ইউনিয়নের কৈথারা গ্রামের মৃত আলী আজমের ছেলে।

নিহতের শ্যালক কাজী মিলন জানান, কসবার প্রধান সড়ক পার হওয়ার সময় দ্রুতগামী পিকআপভ্যান গোলাম মোস্তফাকে চাপা দেয়। স্থানীয়রা মুমূর্ষু অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে ব্রাম্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় দুই ঘণ্টা পর মারা যান তিনি।

ঘাতক পিকআপভ্যান ও চালককে আটক করতে পারেনি পুলিশ।

কাজী মিলন জানান, তার ভগ্নিপতির চাকরি আর মাত্র এক বছর ছিল। অবসরে যাওয়ার প্রস্তুতিও নিয়েছিলেন।

তার এক ছেলে এক মেয়ে রয়েছে। গোলাম মোস্তফা ১৯৯৫ সালে ছাগলনাইয়ার মহামায়া ইউনিয়নের পশ্চিম দেবপুর গ্রামের মৃত ফয়েজ আহাম্মদের মেয়ে সাবিনা ইয়াসমিন শিল্পীকে বিয়ে করেন।

অবসরের আগেই সড়কে প্রাণ হারালেন এসআই

 ছাগলনাইয়া (ফেনী) প্রতিনিধি 
১৮ জুন ২০২১, ১১:৫২ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবায় সড়ক দুর্ঘটনায় গোলাম মোস্তফা (৫৭) নামে এক পুলিশের এসআই নিহত হয়েছেন। 

বৃহস্পতিবার রাতে ব্রাহ্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় মারা যান তিনি।

এদিন রাত ৯টা ৫০ মিনিটের দিকে ডিউটি চলাকালীন কসবা থানা এলাকার কালামোড়া প্রধান সড়ক পার হতে গিয়ে দুর্ঘটনার শিকার হন তিনি।

এসআই গোলাম মোস্তফা কসবা থানায় কর্মরত ছিলেন। তিনি ফুলগাজীর আনন্দপুর ইউনিয়নের কৈথারা গ্রামের মৃত আলী আজমের ছেলে। 

নিহতের শ্যালক কাজী মিলন জানান, কসবার প্রধান সড়ক পার হওয়ার সময় দ্রুতগামী পিকআপভ্যান গোলাম মোস্তফাকে চাপা দেয়। স্থানীয়রা মুমূর্ষু অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে ব্রাম্মণবাড়িয়া সদর হাসপাতালে নিয়ে যান। সেখানে চিকিৎসাধীন অবস্থায় দুই ঘণ্টা পর মারা যান তিনি।

ঘাতক পিকআপভ্যান ও চালককে আটক করতে পারেনি পুলিশ। 

কাজী মিলন জানান, তার ভগ্নিপতির চাকরি আর মাত্র এক বছর ছিল। অবসরে যাওয়ার প্রস্তুতিও নিয়েছিলেন। 

তার এক ছেলে এক মেয়ে রয়েছে। গোলাম মোস্তফা ১৯৯৫ সালে ছাগলনাইয়ার মহামায়া ইউনিয়নের পশ্চিম দেবপুর গ্রামের মৃত ফয়েজ আহাম্মদের মেয়ে সাবিনা ইয়াসমিন শিল্পীকে বিয়ে করেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন