ব্রাহ্মণবাড়িয়া কারাগারে সাজাপ্রাপ্ত কয়েদির মৃত্যু
jugantor
ব্রাহ্মণবাড়িয়া কারাগারে সাজাপ্রাপ্ত কয়েদির মৃত্যু

  যুগান্তর প্রদতিবেদন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া  

২৫ জুন ২০২১, ০২:২৭:৫১  |  অনলাইন সংস্করণ

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কারাগারে বাবুল (৪৯) নামে সাজাপ্রাপ্ত এক কয়েদির মৃত্যু হয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া থেকে অসুস্থ অবস্থায় কুমিল্লা নিয়ে যাওয়ার পথে তিনি মৃত্যুবরণ করেন।

তিনি পাঁচ বছরের সাজাপ্রাপ্ত কয়েদি। বাবুল ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবা উপজেলার বায়েক ইউনিয়নের বায়েক গ্রামের মালেক মিয়ার ছেলে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কারাগারের জেল সুপার ইকবাল হোসেন জানান, সাজাপ্রাপ্ত আসামি বাবুল আগে থেকেই উচ্চ রক্তচাপে ভোগছিলেন। হঠাৎ করে বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে অসুস্থ হয়ে পড়লে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসক তাকে কুমিল্লা হাসপাতালে রেফার করেন। অ্যাম্বুলেন্সে করে কুমিল্লায় চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়ার পথে মারা যান তিনি।

বাবুলের বড় ভাই নওয়াব মিয়া বলেন, আমার ভাই বাবুল দুটি মামলায় পাঁচ বছরের সাজাপ্রাপ্ত ছিলেন। দুই বছর ধরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কারাগারে ছিলেন। জেলখানা থেকে আমাদের জানানো হয়েছিল তিনি অসুস্থ। পরে তার মৃত্যুর খবর পাই। ভাইয়ের জন্য কষ্ট হচ্ছে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া কারাগারে সাজাপ্রাপ্ত কয়েদির মৃত্যু

 যুগান্তর প্রদতিবেদন, ব্রাহ্মণবাড়িয়া 
২৫ জুন ২০২১, ০২:২৭ এএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কারাগারে বাবুল (৪৯) নামে সাজাপ্রাপ্ত এক কয়েদির মৃত্যু হয়েছে।

বৃহস্পতিবার রাত সাড়ে ১০টার দিকে ব্রাহ্মণবাড়িয়া থেকে অসুস্থ অবস্থায় কুমিল্লা নিয়ে যাওয়ার পথে তিনি মৃত্যুবরণ করেন।

তিনি পাঁচ বছরের সাজাপ্রাপ্ত কয়েদি। বাবুল ব্রাহ্মণবাড়িয়ার কসবা উপজেলার বায়েক ইউনিয়নের বায়েক গ্রামের মালেক মিয়ার ছেলে।

ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কারাগারের জেল সুপার ইকবাল হোসেন জানান, সাজাপ্রাপ্ত আসামি বাবুল আগে থেকেই উচ্চ রক্তচাপে ভোগছিলেন। হঠাৎ করে বৃহস্পতিবার রাত ৮টার দিকে অসুস্থ হয়ে পড়লে জেলা সদর হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখানে চিকিৎসক তাকে কুমিল্লা হাসপাতালে রেফার করেন। অ্যাম্বুলেন্সে করে কুমিল্লায় চিকিৎসার জন্য নিয়ে যাওয়ার পথে মারা যান তিনি।

বাবুলের বড় ভাই নওয়াব মিয়া বলেন, আমার ভাই বাবুল দুটি মামলায় পাঁচ বছরের সাজাপ্রাপ্ত ছিলেন। দুই বছর ধরে ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা কারাগারে ছিলেন। জেলখানা থেকে আমাদের জানানো হয়েছিল তিনি অসুস্থ। পরে তার মৃত্যুর খবর  পাই। ভাইয়ের জন্য কষ্ট হচ্ছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন