গাছ লাগানোকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় নিহত ১
jugantor
গাছ লাগানোকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় নিহত ১

  বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি   

৩০ জুলাই ২০২১, ২২:২৬:২৪  |  অনলাইন সংস্করণ

দিনাজপুরের বীরগঞ্জে রাস্তার ধারে গাছ লাগানোকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় মো. আবছার আলী (৫২) নামে একজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন তার ছোট ভাই মো. আনোয়ারুল ইসলাম (৪৫)।

নিহত আবছার আলী উপজেলার ভোগনগর ইউনিয়নের এলাইগাঁও গ্রামের মৃত লাল চান্দের ছেলে।

শুক্রবার দুপুর ২টায় উপজেলার ভোগনগর ইউনিয়নের এলাইগাঁও গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনায় আহত মো. আনোয়ারুল ইসলাম জানান, বৃহস্পতিবার বাড়ির পাশে রাস্তার ধারে বেশ কিছু ইউক্যালিপটাস গাছের চারা রোপণ করেন তিনি। শুক্রবার সকালে প্রতিবেশী দবির উদ্দিনের ছেলে মো. তরিকুল ইসলাম (৪২) রোপণকৃত চারাগুলি তুলে নিয়ে যায়। এতে বাধা দিলে তরিকুল পরিবারের লোকজন নিয়ে তাকে মারধর করেন।

পরে বিষয়টি তিনি লিখিতভাবে বীরগঞ্জ থানাকে অবহিত করেন। এরপর দুপুরে জুমার নামাজ পড়ে মসজিদ থেকে বাড়ি ফেরার পথে তরিকুল ইসলামের নেতৃত্বে তার পরিবারের লোকজন আনোয়ারুল ইসলাম ও তার বড় ভাই আবছার আলীর ওপর লাঠি-সোটা দিয়ে হামলা চালান। এতে তারা দুই ভাই গুরুতর আহত হন।

স্থানীয় লোকজন তাদেরকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক আবছার আলীকে মৃত ঘোষণা করেন।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে মেডিকেল অফিসার ডা. মো. তানভীর তালুকদার বলেন, হাসপাতালে নিয়ে আসার আগেই আবছার আলীর মৃত্যু হয়। ময়না তদন্ত ছাড়া এই মুহূর্তে মৃত্যুর প্রকৃত কারণ বলা সম্ভব নয়।

ঘটনার পর থেকে হত্যাকাণ্ডে অভিযুক্ত তরিকুল ইসলাম সপরিবারে পলাতক থাকায় তাদের মন্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি।

এ বিষয়ে বীরগঞ্জ সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মো. আব্দুল ওয়ারেছ বলেন, আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। দোষীদেরগ্রেফতারে পুলিশ অভিযান শুরু করেছে।

বীরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল মতিন প্রধান বলেন, লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ এবং মামলা এবং প্রস্তুতি চলছে।

গাছ লাগানোকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় নিহত ১

 বীরগঞ্জ (দিনাজপুর) প্রতিনিধি  
৩০ জুলাই ২০২১, ১০:২৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

দিনাজপুরের বীরগঞ্জে রাস্তার ধারে গাছ লাগানোকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় মো. আবছার আলী (৫২) নামে একজন নিহত হয়েছেন। এ ঘটনায় আহত হয়েছেন তার ছোট ভাই মো. আনোয়ারুল ইসলাম (৪৫)।

নিহত আবছার আলী উপজেলার ভোগনগর ইউনিয়নের এলাইগাঁও গ্রামের মৃত লাল চান্দের ছেলে।

শুক্রবার দুপুর ২টায় উপজেলার ভোগনগর ইউনিয়নের এলাইগাঁও গ্রামে এ ঘটনা ঘটে।

ঘটনায় আহত মো. আনোয়ারুল ইসলাম জানান, বৃহস্পতিবার বাড়ির পাশে রাস্তার ধারে বেশ কিছু ইউক্যালিপটাস গাছের চারা রোপণ করেন তিনি। শুক্রবার সকালে প্রতিবেশী দবির উদ্দিনের ছেলে মো. তরিকুল ইসলাম (৪২) রোপণকৃত চারাগুলি তুলে নিয়ে যায়। এতে বাধা দিলে তরিকুল পরিবারের লোকজন নিয়ে তাকে মারধর করেন।

পরে বিষয়টি তিনি লিখিতভাবে বীরগঞ্জ থানাকে অবহিত করেন। এরপর দুপুরে জুমার নামাজ পড়ে মসজিদ থেকে বাড়ি ফেরার পথে তরিকুল ইসলামের নেতৃত্বে তার পরিবারের লোকজন আনোয়ারুল ইসলাম ও তার বড় ভাই আবছার আলীর ওপর লাঠি-সোটা দিয়ে হামলা চালান। এতে তারা দুই ভাই গুরুতর আহত হন।

স্থানীয় লোকজন তাদেরকে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যায়। সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক আবছার আলীকে মৃত ঘোষণা করেন। 

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে মেডিকেল অফিসার ডা. মো. তানভীর তালুকদার বলেন, হাসপাতালে নিয়ে আসার আগেই আবছার আলীর মৃত্যু হয়। ময়না তদন্ত ছাড়া এই মুহূর্তে মৃত্যুর প্রকৃত কারণ বলা সম্ভব নয়। 

ঘটনার পর থেকে হত্যাকাণ্ডে অভিযুক্ত তরিকুল ইসলাম সপরিবারে পলাতক থাকায় তাদের মন্তব্য নেওয়া সম্ভব হয়নি। 

এ বিষয়ে বীরগঞ্জ সার্কেলের সিনিয়র সহকারী পুলিশ সুপার মো. আব্দুল ওয়ারেছ বলেন, আমরা ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেছি। দোষীদের গ্রেফতারে পুলিশ অভিযান শুরু করেছে।

বীরগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আব্দুল মতিন প্রধান বলেন, লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মর্গে প্রেরণ এবং মামলা এবং প্রস্তুতি চলছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন