অপহরণ মামলার ৬ ঘণ্টার মধ্যে শিশু উদ্ধার, ভগ্নিপতি গ্রেফতার
jugantor
অপহরণ মামলার ৬ ঘণ্টার মধ্যে শিশু উদ্ধার, ভগ্নিপতি গ্রেফতার

  সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি  

২২ আগস্ট ২০২১, ১৬:০৭:৫৬  |  অনলাইন সংস্করণ

অপহরণ মামলার ৬ ঘণ্টার মধ্যে শিশু উদ্ধার, ভগ্নিপতি গ্রেফতার

অপহরণ মামলার ৬ ঘণ্টার মধ্যে অপহৃত শিশুকে উদ্ধার করা হয়েছে। অপহরণের অভিযোগে ভগ্নিপতিকে গ্রেফতার করেছে নীলফামারী থানা পুলিশ। রোববার ভোরে সৈয়দপুর শহরের গোলাহাট এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের উদ্ধার ও গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতার আইনুল ইসলাম (৩৫) জেলা সদরের কুন্দপুকুর ইউনিয়নের বানিয়াপাড়া এলাকার আমিনুর রহমানের ছেলে।

এ বিষয়ে পুলিশ জানায়, ইটাখোলা ইউনিয়নের সরকারের মোড় এলাকার আব্দুর রাজ্জাকের বড় মেয়ে রেহানা খাতুনের সঙ্গে সাত বছর আগে বিয়ে হয় আইনুলের। তাদের দুটি সন্তান রয়েছে। তার পরও রেহানার ১৫ বছর বয়সি ছোট বোনকে প্রেমের প্রস্তাবসহ বিভিন্ন সময় কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছিল আইনুল।

এর পর গত ১ আগস্ট বিকালে নাহিন অ্যাগ্রোর সামনের পাকা সড়ক থেকে অটোরিকশাযোগে শ্যালিকাকে অপহরণ করে নিয়ে যায় আইনুল। অনেক খোঁজাখুঁজি করেও সন্ধান না পাওয়ায় শনিবার রাতে থানায় মামলা করেন শিশুর বাবা।

মামলার পরিপ্রেক্ষিতে রোববার ভোরে সৈয়দপুর শহরের গোলাহাট এলাকার একটি বাড়িতে অভিযান চালিয়ে শিশুটিকে উদ্ধার ও আইনুলকে গ্রেফতার করা হয়। নীলফামারী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাহমুদ-উন নবীর নেতৃত্বে অভিযানে অংশ নেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সুবাস চন্দ্র রায়।

নীলফামারী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাহমুদ-উন নবী জানান, শিশুর ডাক্তারি পরীক্ষা শেষে দুজনকে আদালতে তোলা হবে। আদালতের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

অপহরণ মামলার ৬ ঘণ্টার মধ্যে শিশু উদ্ধার, ভগ্নিপতি গ্রেফতার

 সৈয়দপুর (নীলফামারী) প্রতিনিধি 
২২ আগস্ট ২০২১, ০৪:০৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
অপহরণ মামলার ৬ ঘণ্টার মধ্যে শিশু উদ্ধার, ভগ্নিপতি গ্রেফতার
ফাইল ছবি

অপহরণ মামলার ৬ ঘণ্টার মধ্যে অপহৃত শিশুকে উদ্ধার করা হয়েছে। অপহরণের অভিযোগে ভগ্নিপতিকে গ্রেফতার করেছে নীলফামারী থানা পুলিশ। রোববার ভোরে সৈয়দপুর শহরের গোলাহাট এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের উদ্ধার ও গ্রেফতার করা হয়।

গ্রেফতার আইনুল ইসলাম (৩৫) জেলা সদরের কুন্দপুকুর ইউনিয়নের বানিয়াপাড়া এলাকার আমিনুর রহমানের ছেলে।

এ বিষয়ে পুলিশ জানায়, ইটাখোলা ইউনিয়নের সরকারের মোড় এলাকার আব্দুর রাজ্জাকের বড় মেয়ে রেহানা খাতুনের সঙ্গে সাত বছর আগে বিয়ে হয় আইনুলের।  তাদের দুটি সন্তান রয়েছে।  তার পরও রেহানার ১৫ বছর বয়সি ছোট বোনকে প্রেমের প্রস্তাবসহ বিভিন্ন সময় কুপ্রস্তাব দিয়ে আসছিল আইনুল।

এর পর গত ১ আগস্ট বিকালে নাহিন অ্যাগ্রোর সামনের পাকা সড়ক থেকে অটোরিকশাযোগে শ্যালিকাকে অপহরণ করে নিয়ে যায় আইনুল। অনেক খোঁজাখুঁজি করেও সন্ধান না পাওয়ায় শনিবার রাতে থানায় মামলা করেন শিশুর বাবা।

মামলার পরিপ্রেক্ষিতে রোববার ভোরে সৈয়দপুর শহরের গোলাহাট এলাকার একটি বাড়িতে অভিযান চালিয়ে শিশুটিকে উদ্ধার ও আইনুলকে গ্রেফতার করা হয়। নীলফামারী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাহমুদ-উন নবীর নেতৃত্বে অভিযানে অংশ নেন মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা সুবাস চন্দ্র রায়।

নীলফামারী থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মাহমুদ-উন নবী জানান, শিশুর ডাক্তারি পরীক্ষা শেষে দুজনকে আদালতে তোলা হবে। আদালতের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন