১৬ ঘণ্টার ব্যবধানে বংশী নদীতে দুই ছাত্রের সলিল সমাধি
jugantor
১৬ ঘণ্টার ব্যবধানে বংশী নদীতে দুই ছাত্রের সলিল সমাধি

  ধামরাই (ঢাকা) প্রতিনিধি  

১১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ১৯:৩০:৩৪  |  অনলাইন সংস্করণ

স্কুলছাত্রের মৃত্যু

ঢাকার ধামরাইয়ের বংশী নদীতে ১৬ ঘণ্টার ব্যবধানে দুইছাত্রের সলিল সমাধির ঘটনা ঘটেছে। ডুবুরিদল ২০ ঘণ্টা পর স্কুলছাত্র ও ৪ ঘণ্টা পর কলেজছাত্রের লাশ উদ্ধার করেছে।

স্থানীয় ও ভুক্তভোগী পরিবার সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার বিকাল ৫টার দিকে ধামরাই সদর ইউনিয়নের হাজিপুর এলাকায় বংশী নদীতে বাবা-মায়ের সঙ্গে নৌকা নিয়ে বেড়াতে যান স্কুলছাত্র রাফিউল ইসলাম রাফি। হাজিপুর গিয়ে রাফির বাবা-মায়ের সঙ্গে রাফি ও তার চাচাতো ভাই রাজন মিয়া নৌকার মধ্যে খেলা করছিল। এ সময় হঠাৎ রাফি নৌকা থেকে বংশী নদীতে পড়ে নিখোঁজ হয়। বড়ভাইকে বাঁচাতে ছোটভাই রাজন পানিতে লাফিয়ে হাবুডুবু খেতে থাকে। এ সময় নদীতে ভ্রমণরত অন্য লোকজন এসে তাকে উদ্ধার করে। কিন্তু রাফিকে পাওয়া যায়নি। পরে শনিবার দুপুরে ডুবুরিদল ২০ ঘণ্টা অভিযানের মাধ্যমে রাফির লাশ উদ্ধার করে।

রাফি ধামরাই পৌরসভার বরাতনগর এলাকার পল্লী চিকিৎসক মো. মনিরুজ্জামান মনিরের একমাত্র ছেলে ও ধামরাই সরকারী হার্ডিঞ্জ স্কুল অ্যান্ড কলেজের নবম শ্রেণীর ছাত্র।

অপর ঘটনাটি ঘটে শনিবার দুপুর ১২টার দিকে ধামরাইয়ের কুল্লা ইউনিয়নের রূপনগর বংশী সেতুতে। সাভার মডেল কলেজের ছাত্র ও সাভার ব্যাংক কলোনির বাসিন্দা মো. রাফিজুল ইসলাম কয়েকজন বন্ধুর সঙ্গে বংশী নদীতে গোসল করতে যান। রাফি বন্ধুদের সঙ্গে রূপনগর বংশী ব্রিজের ওপর থেকে পানিতে লাফ দেওয়ার পর নিঁখোজ হন। দুই বন্ধু মিলে তাকে খুঁজতে থাকে আর বাকিরা ভয়ে চলে যায়।

রাফিজুলের বাড়ির লোকজন খবর পেয়ে বিষয়টি ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশনকে জানায়।এরপর ডুবুরিদল এসে উদ্ধার কাজ শুরু করে। দীর্ঘ ৪ ঘণ্টা অভিযানের পর রাফিজুলের লাশ উদ্ধার করেন তারা। ধামরাই উপজেলা ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশন অফিসার মো. সোহেল রানা বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

১৬ ঘণ্টার ব্যবধানে বংশী নদীতে দুই ছাত্রের সলিল সমাধি

 ধামরাই (ঢাকা) প্রতিনিধি 
১১ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৭:৩০ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
স্কুলছাত্রের মৃত্যু
বাবা-মায়ের সঙ্গে নদীতে পড়ে নিহত স্কুলছাত্র রাফি। ছবি: যুগান্তর

ঢাকার ধামরাইয়ের বংশী নদীতে ১৬ ঘণ্টার ব্যবধানে দুইছাত্রের সলিল সমাধির ঘটনা ঘটেছে। ডুবুরিদল ২০ ঘণ্টা পর স্কুলছাত্র ও ৪ ঘণ্টা পর কলেজছাত্রের লাশ উদ্ধার করেছে।

স্থানীয় ও ভুক্তভোগী পরিবার সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার বিকাল ৫টার দিকে ধামরাই সদর ইউনিয়নের হাজিপুর এলাকায় বংশী নদীতে বাবা-মায়ের সঙ্গে নৌকা নিয়ে বেড়াতে যান স্কুলছাত্র রাফিউল ইসলাম রাফি। হাজিপুর গিয়ে রাফির বাবা-মায়ের সঙ্গে রাফি ও তার চাচাতো ভাই রাজন মিয়া নৌকার মধ্যে খেলা করছিল। এ সময় হঠাৎ রাফি নৌকা থেকে বংশী নদীতে পড়ে নিখোঁজ হয়। বড়ভাইকে বাঁচাতে ছোটভাই রাজন পানিতে লাফিয়ে হাবুডুবু খেতে থাকে। এ সময় নদীতে ভ্রমণরত অন্য লোকজন এসে তাকে উদ্ধার করে। কিন্তু রাফিকে পাওয়া যায়নি। পরে শনিবার দুপুরে ডুবুরিদল ২০ ঘণ্টা অভিযানের মাধ্যমে রাফির লাশ উদ্ধার করে।

রাফি ধামরাই পৌরসভার বরাতনগর এলাকার পল্লী চিকিৎসক মো. মনিরুজ্জামান মনিরের একমাত্র ছেলে ও ধামরাই সরকারী হার্ডিঞ্জ স্কুল অ্যান্ড কলেজের নবম শ্রেণীর ছাত্র।

অপর ঘটনাটি ঘটে শনিবার দুপুর ১২টার দিকে ধামরাইয়ের কুল্লা ইউনিয়নের রূপনগর বংশী সেতুতে। সাভার মডেল কলেজের ছাত্র ও সাভার ব্যাংক কলোনির বাসিন্দা মো. রাফিজুল ইসলাম কয়েকজন বন্ধুর সঙ্গে বংশী নদীতে গোসল করতে যান। রাফি বন্ধুদের সঙ্গে রূপনগর বংশী ব্রিজের ওপর থেকে পানিতে লাফ দেওয়ার পর নিঁখোজ হন। দুই বন্ধু মিলে তাকে খুঁজতে থাকে আর বাকিরা ভয়ে চলে যায়।
 
রাফিজুলের বাড়ির লোকজন খবর পেয়ে বিষয়টি ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশনকে জানায়।এরপর ডুবুরিদল এসে উদ্ধার কাজ শুরু করে। দীর্ঘ ৪ ঘণ্টা অভিযানের পর রাফিজুলের লাশ উদ্ধার করেন তারা। ধামরাই উপজেলা ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্স স্টেশন অফিসার মো. সোহেল রানা বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন