হাসপাতালে আগুন, রোগীদের হুলুস্থুল
jugantor
হাসপাতালে আগুন, রোগীদের হুলুস্থুল

  ফরিদপুর ব্যুরো  

২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ২১:১৮:৪১  |  অনলাইন সংস্করণ

ফরিদপুর শহরের প্রাণকেন্দ্র মুজিব সড়কে অবস্থিত বহুতল বেসরকারি হাসপাতাল আরোগ্য সদনের সম্প্রসারিত ভবনের ৮ম তলায় অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। রোববার বেলা ৩টার দিকে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

খবর পেয়ে দ্রুত পাশেই থাকা ফায়ার সার্ভিস পৌঁছে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এদিকে হাসপাতালে আগুনের খবরে হুলুস্থুল পড়ে যায়।

এ সময় হাসপাতালে ভর্তি শতাধিক রোগী ও তাদের স্বজন এবং ডাক্তার দেখাতে আসা শতাধিক মানুষ আতঙ্কে রাস্তায় নেমে আসেন। বিপাকে পড়েন বৃদ্ধ ও গুরুতর রোগীর স্বজনরা। এ সময় শহরের প্রধান সড়কে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

ফায়ার সার্ভিস ও হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, হাসপাতালের সম্প্রসারিত ভবনের ৮ তলার ৮০১ নম্বর কেবিনে বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়। আগুনে ওই কক্ষের সরঞ্জাম পুড়ে গেলেও ছড়ানোর আগেই তা নিভিয়ে ফেলা হয়। কিন্তু ধোঁয়ার কারণে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।

ফায়ার সার্ভিসের উপ-পরিচালক শিপলু আহমেদ জানান, বেলা ৩টায় আমরা ম্যাসেজ রিসিভ করি, ঘটনাস্থল ফায়ার সার্ভিসের পাশে হওয়ায় সঙ্গে সঙ্গে পুরো টিম নিয়ে উপস্থিত হয়ে আগুন নেভানোর কাজ শুরু করি। বেলা ৩টা ১৫ মিনিটে আগুন নেভাতে সক্ষম হই। আমরা একই সঙ্গে আগুন নেভানো ও হাসপাতালের বিভিন্ন ফ্লোরে থাকা রোগীদের সরিয়ে নিতেও কাজ করি। এ সময় ধোঁয়ায় আচ্ছন্ন হয়ে আমাদের দুই কর্মী আহত হন। তাদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

হাসপাতালে আগুন, রোগীদের হুলুস্থুল

 ফরিদপুর ব্যুরো 
২৬ সেপ্টেম্বর ২০২১, ০৯:১৮ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ফরিদপুর শহরের প্রাণকেন্দ্র মুজিব সড়কে অবস্থিত বহুতল বেসরকারি হাসপাতাল আরোগ্য সদনের সম্প্রসারিত ভবনের ৮ম তলায় অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। রোববার বেলা ৩টার দিকে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

খবর পেয়ে দ্রুত পাশেই থাকা ফায়ার সার্ভিস পৌঁছে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এদিকে হাসপাতালে আগুনের খবরে হুলুস্থুল পড়ে যায়।

এ সময় হাসপাতালে ভর্তি শতাধিক রোগী ও তাদের স্বজন এবং ডাক্তার দেখাতে আসা শতাধিক মানুষ আতঙ্কে রাস্তায় নেমে আসেন। বিপাকে পড়েন বৃদ্ধ ও গুরুতর রোগীর স্বজনরা। এ সময় শহরের প্রধান সড়কে যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

ফায়ার সার্ভিস ও হাসপাতাল সূত্রে জানা গেছে, হাসপাতালের সম্প্রসারিত ভবনের ৮ তলার ৮০১ নম্বর কেবিনে বৈদ্যুতিক শর্টসার্কিট থেকে আগুনের সূত্রপাত হয়। আগুনে ওই কক্ষের সরঞ্জাম পুড়ে গেলেও ছড়ানোর আগেই তা নিভিয়ে ফেলা হয়। কিন্তু ধোঁয়ার কারণে আতঙ্ক ছড়িয়ে পড়ে।

ফায়ার সার্ভিসের উপ-পরিচালক শিপলু আহমেদ জানান, বেলা ৩টায় আমরা ম্যাসেজ রিসিভ করি, ঘটনাস্থল ফায়ার সার্ভিসের পাশে হওয়ায় সঙ্গে সঙ্গে পুরো টিম নিয়ে উপস্থিত হয়ে আগুন নেভানোর কাজ শুরু করি। বেলা ৩টা ১৫ মিনিটে আগুন নেভাতে সক্ষম হই। আমরা একই সঙ্গে আগুন নেভানো ও হাসপাতালের বিভিন্ন ফ্লোরে থাকা রোগীদের সরিয়ে নিতেও কাজ করি। এ সময় ধোঁয়ায় আচ্ছন্ন হয়ে আমাদের দুই কর্মী আহত হন। তাদের প্রাথমিক চিকিৎসা দেয়া হয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন