‘তালতো’ ভাইকে হত্যা মামলায় যুবকের মৃত্যুদণ্ড
jugantor
‘তালতো’ ভাইকে হত্যা মামলায় যুবকের মৃত্যুদণ্ড

  সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি  

০৫ অক্টোবর ২০২১, ১৭:৩৫:০৫  |  অনলাইন সংস্করণ

সুনামগঞ্জ সদর উপজেলায় তালতো ভাই (ভাবির ভাই) হত্যার দায়ে লুৎফর মিয়া নামের এক যুবকের মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত। মঙ্গলবার দুপুরে সুনামগঞ্জ অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মহিউদ্দিন মুরাদ এ রায় ঘোষণা করেন।

রায় ঘোষণার সময় আসামি আদালতে অনুপস্থিত ছিলেন। মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত লুৎফর মিয়া সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার আদর্শ গ্রাম (গুচ্ছগ্রাম) এলাকার মৃত কুদরত উল্ল্যার ছেলে।

আদালত সূত্রে জানা যায়, ২০০৮ সালে সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার আদর্শ গ্রাম এলাকায় পারিবারিক কলহের জেরে তৈয়বুর রহমানের বোন সিতারুন নেসার সঙ্গে তার স্বামীর পারিবারিক বিরোধ চলছিল। ঘটনার দিন তাদের বিরোধ মেটাতে পারিবারিক সালিশে বসেন দুই পক্ষের লোকজন।

সালিসে দুই পক্ষের মধ্যে কথাকাটাকাটি ও ঝগড়া হয়। একপর্যায়ে সিতারুন নেসার দেবর লুৎফর রহমান ক্ষিপ্ত হয়ে তার তালতো ভাই (ভাবির ভাই) তৈয়বুর রহমানকে ছুরিকাঘাত করলে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।

এ ঘটনায় সিতারুন নেসা নিজে বাদী হয়ে স্বামীসহ ৭ জনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের করলে দীর্ঘদিন বিচারকার্য শেষে আদালত একজনের মৃত্যুদণ্ডের রায় প্রদান করেন।

সুনামগঞ্জ জেলা দায়রা জজের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) অ্যাডভোকেট খায়রুল কবির রুমেন যুগান্তরকে রায়ের তথ্যটির সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

‘তালতো’ ভাইকে হত্যা মামলায় যুবকের মৃত্যুদণ্ড

 সুনামগঞ্জ প্রতিনিধি 
০৫ অক্টোবর ২০২১, ০৫:৩৫ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

সুনামগঞ্জ সদর উপজেলায় তালতো ভাই (ভাবির ভাই) হত্যার দায়ে লুৎফর মিয়া নামের এক যুবকের মৃত্যুদণ্ডাদেশ দিয়েছেন আদালত। মঙ্গলবার দুপুরে সুনামগঞ্জ অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মহিউদ্দিন মুরাদ এ রায় ঘোষণা করেন।

রায় ঘোষণার সময় আসামি আদালতে অনুপস্থিত ছিলেন। মৃত্যুদণ্ডপ্রাপ্ত লুৎফর মিয়া সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার আদর্শ গ্রাম (গুচ্ছগ্রাম) এলাকার মৃত কুদরত উল্ল্যার ছেলে।

আদালত সূত্রে জানা যায়, ২০০৮ সালে সুনামগঞ্জ সদর উপজেলার আদর্শ গ্রাম এলাকায় পারিবারিক কলহের জেরে তৈয়বুর রহমানের বোন সিতারুন নেসার সঙ্গে তার স্বামীর পারিবারিক বিরোধ চলছিল। ঘটনার দিন তাদের বিরোধ মেটাতে পারিবারিক সালিশে বসেন দুই পক্ষের লোকজন।

সালিসে দুই পক্ষের মধ্যে কথাকাটাকাটি ও ঝগড়া হয়। একপর্যায়ে সিতারুন নেসার দেবর লুৎফর রহমান ক্ষিপ্ত হয়ে তার তালতো ভাই (ভাবির ভাই) তৈয়বুর রহমানকে ছুরিকাঘাত করলে ঘটনাস্থলেই তার মৃত্যু হয়।

এ ঘটনায় সিতারুন নেসা নিজে বাদী হয়ে স্বামীসহ ৭ জনের বিরুদ্ধে হত্যা মামলা দায়ের করলে দীর্ঘদিন বিচারকার্য শেষে আদালত একজনের মৃত্যুদণ্ডের রায় প্রদান করেন। 

সুনামগঞ্জ জেলা দায়রা জজের পাবলিক প্রসিকিউটর (পিপি) অ্যাডভোকেট খায়রুল কবির রুমেন যুগান্তরকে রায়ের তথ্যটির সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও খবর
 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন