বিএনপির কমিটি গঠনের একদিন পরই সদস্য সচিবসহ ৩ নেতাকে শোকজ
jugantor
বিএনপির কমিটি গঠনের একদিন পরই সদস্য সচিবসহ ৩ নেতাকে শোকজ

  কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি  

১১ অক্টোবর ২০২১, ২১:১০:৩৪  |  অনলাইন সংস্করণ

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটি গঠনের একদিন পরই কমিটির সদস্য সচিবসহ ৩ নেতাকে শোকজ করেছে নোয়াখালী জেলা বিএনপি। গত ৮ অক্টোবর জেলা বিএনপি উপজেলা আহ্বায়ক কমিটির অনুমোদন দেয়ার পর ১০ অক্টোবর ৩ নেতাকে দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে শোকজ করলেন।

এ তিন নেতা হচ্ছেন- সদ্য গঠিত উপজেলা বিএনপি আহ্বায়ক কমিটির সদস্য সচিব মাহমুদুর রহমান রিপন, সদস্য আবদুল হক শাহাজাহান ও মানছুরুল হক বাবর।

রোববার সকালে ঘোষিত কমিটির সদস্য সচিব মাহমুদুর রহমান রিপন সরকারি দলের ছত্রছায়ায় নেতাকর্মীদের ভুল বুঝিয়ে বিএনপির সর্বোচ্চ নেতৃত্বের বিরুদ্ধে মিছিলের আয়োজন করে তাতে অশালীন মর্যাদা হানিকর স্লোগান দেয়া হয়েছে। যাতে দলের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ হয়েছে। প্রত্যক্ষভাবে জড়িত থেকে দলীয় শৃঙ্খলাবিরোধী কাজে লিপ্ত থাকায় কেন সাংগঠনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে না তা ৩ কার্য দিবসের মধ্যে কারণ দর্শানোর জন্য বলা হয়েছে।

দলীয় প্যাডে নোয়াখালী জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবদুর রহমান স্বাক্ষরিত ১০ অক্টোবরের শোকজের ওই চিঠির অনুলিপি বিএনপির চট্টগ্রাম বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবের রহমান শামীমকেও দেয়া হয়েছে। অনুরূপ শোকজ সম্বলিত চিঠি অপর দুই নেতা আবদুল হক শাহজাহান ও মানছুলরুল হক বাবরকেও দেয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে সদ্য গঠিত আহ্বায়ক কমিটির সদস্য সচিব মাহমুদুর রহমান রিপন মোবাইল ফোনে তার ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে বলেন, অচিরেই সংবাদ সম্মেলন করে তিনি পদত্যাগ করবেন।

বিএনপির কমিটি গঠনের একদিন পরই সদস্য সচিবসহ ৩ নেতাকে শোকজ

 কোম্পানীগঞ্জ (নোয়াখালী) প্রতিনিধি 
১১ অক্টোবর ২০২১, ০৯:১০ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

নোয়াখালীর কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা বিএনপির আহ্বায়ক কমিটি গঠনের একদিন পরই কমিটির সদস্য সচিবসহ ৩ নেতাকে শোকজ করেছে নোয়াখালী জেলা বিএনপি। গত ৮ অক্টোবর জেলা বিএনপি উপজেলা আহ্বায়ক কমিটির অনুমোদন দেয়ার পর ১০ অক্টোবর ৩ নেতাকে দলীয় শৃঙ্খলা ভঙ্গের অভিযোগে শোকজ করলেন।

এ তিন নেতা হচ্ছেন- সদ্য গঠিত উপজেলা বিএনপি আহ্বায়ক কমিটির সদস্য সচিব মাহমুদুর রহমান রিপন, সদস্য আবদুল হক শাহাজাহান ও মানছুরুল হক বাবর।

রোববার সকালে ঘোষিত কমিটির সদস্য সচিব মাহমুদুর রহমান রিপন সরকারি দলের ছত্রছায়ায় নেতাকর্মীদের ভুল বুঝিয়ে বিএনপির সর্বোচ্চ নেতৃত্বের বিরুদ্ধে মিছিলের আয়োজন করে তাতে অশালীন মর্যাদা হানিকর স্লোগান দেয়া হয়েছে। যাতে দলের ভাবমূর্তি ক্ষুণ্ণ হয়েছে। প্রত্যক্ষভাবে জড়িত থেকে দলীয় শৃঙ্খলাবিরোধী কাজে লিপ্ত থাকায় কেন সাংগঠনিক ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে না তা ৩ কার্য দিবসের মধ্যে কারণ দর্শানোর জন্য বলা হয়েছে।

দলীয় প্যাডে নোয়াখালী জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক অ্যাডভোকেট আবদুর রহমান স্বাক্ষরিত ১০ অক্টোবরের শোকজের ওই চিঠির অনুলিপি বিএনপির চট্টগ্রাম বিভাগীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবের রহমান শামীমকেও দেয়া হয়েছে। অনুরূপ শোকজ সম্বলিত চিঠি অপর দুই নেতা আবদুল হক শাহজাহান ও মানছুলরুল হক বাবরকেও দেয়া হয়েছে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে সদ্য গঠিত আহ্বায়ক কমিটির সদস্য সচিব মাহমুদুর রহমান রিপন মোবাইল ফোনে তার ক্ষুব্ধ প্রতিক্রিয়া ব্যক্ত করে বলেন, অচিরেই সংবাদ সম্মেলন করে তিনি পদত্যাগ করবেন।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন