বসতঘরে স্বামীর ঝুলন্ত লাশ, মেঝেতে স্ত্রীর
jugantor
বসতঘরে স্বামীর ঝুলন্ত লাশ, মেঝেতে স্ত্রীর

  নেত্রকোনা ও মদন প্রতিনিধি  

১২ অক্টোবর ২০২১, ১২:৩২:৫৪  |  অনলাইন সংস্করণ

লাশ উদ্ধার

নেত্রকোনার মদন উপজেলায় নিজ বসতঘর থেকে স্বামী-স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ।

মঙ্গলবার সকালে উপজেলার ত্রিয়শ্রী ইউনিয়নের বালালী গ্রাম থেকে তাদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ওই বসতঘরে স্বামীর ঝুলন্ত লাশ ও তার স্ত্রীকে রক্তাক্ত অবস্থায় মেঝেতে পড়ে থাকতে দেখা যায় বলে জানায় পুলিশ।

নিহতরা হলেন— মদন উপজেলার বালালী গ্রামের নানু মিয়া (৪৮) এবং তার স্ত্রী মেরাজ আক্তার (৩৫)।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ফখরুল ইসলাম জানান, সকালে ঘরের দরজা বন্ধ পেয়ে স্থানীয়রা ডাকাডাকি করলে তার শিশু ছেলে দরজা খোলে। এ সময় নানু মিয়ার ঝুলন্ত ও তার স্ত্রীকে রক্তাক্ত অবস্থায় নিচে পড়ে থাকতে দেখেন স্থানীয়রা।

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। ঘটনাটির তদন্তের স্বার্থে সিআইডির ক্রাইমসিন টিমের অপেক্ষায় ঘরের দরজা বন্ধ করে রাখা হয়।

নেত্রকোনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) মনিরুল হক জানান, পুলিশ ঘটনাস্থলে রয়েছে। ময়মনসিংহ থেকে সিআইডির তদন্ত দল এলে পরে মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য জেলা হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হবে। তবে এখন পর্যন্ত ঘটনার কোনো কারণ জানতে পারেনি পুলিশ।

বসতঘরে স্বামীর ঝুলন্ত লাশ, মেঝেতে স্ত্রীর

 নেত্রকোনা ও মদন প্রতিনিধি 
১২ অক্টোবর ২০২১, ১২:৩২ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
লাশ উদ্ধার
ছবি: যুগান্তর

নেত্রকোনার মদন উপজেলায় নিজ বসতঘর থেকে স্বামী-স্ত্রীর মরদেহ উদ্ধার করেছে পুলিশ। 

মঙ্গলবার সকালে উপজেলার ত্রিয়শ্রী ইউনিয়নের বালালী গ্রাম থেকে তাদের মরদেহ উদ্ধার করা হয়। ওই বসতঘরে স্বামীর ঝুলন্ত লাশ ও তার স্ত্রীকে রক্তাক্ত অবস্থায় মেঝেতে পড়ে থাকতে দেখা যায় বলে জানায় পুলিশ।

নিহতরা হলেন— মদন উপজেলার বালালী গ্রামের নানু মিয়া (৪৮) এবং তার স্ত্রী মেরাজ আক্তার (৩৫)।

স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান ফখরুল ইসলাম জানান, সকালে ঘরের দরজা বন্ধ পেয়ে স্থানীয়রা ডাকাডাকি করলে তার শিশু ছেলে দরজা খোলে। এ সময় নানু মিয়ার ঝুলন্ত ও তার স্ত্রীকে রক্তাক্ত অবস্থায় নিচে পড়ে থাকতে দেখেন স্থানীয়রা। 

খবর পেয়ে পুলিশ ঘটনাস্থলে যায়। ঘটনাটির তদন্তের স্বার্থে সিআইডির ক্রাইমসিন টিমের অপেক্ষায় ঘরের দরজা বন্ধ করে রাখা হয়।

নেত্রকোনার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ) মনিরুল হক জানান, পুলিশ ঘটনাস্থলে রয়েছে। ময়মনসিংহ থেকে সিআইডির তদন্ত দল এলে পরে মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য জেলা হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করা হবে। তবে এখন পর্যন্ত ঘটনার কোনো কারণ জানতে পারেনি পুলিশ।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও খবর
 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন