ঝোপের ভেতর পড়েছিল ৬ বছরের শিশু
jugantor
ঝোপের ভেতর পড়েছিল ৬ বছরের শিশু

  ভৈরব  (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি  

১৫ অক্টোবর ২০২১, ২১:৫৬:৪১  |  অনলাইন সংস্করণ

শিশু ধর্ষণ

ভৈরবের লক্ষ্মীপুর এলাকায় ছয় বছর বয়সী এক শিশু ধর্ষণের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। শুক্রবার দুপুরে এ ঘটনা ঘটে।

ধর্ষণের শিকার শিশুর পরিবার সূত্রে জানা যায়, দুপুরে পৌর শহরের লক্ষ্মীপুর এলাকার একটি ঝোপের ভেতর শিশুটি রক্তাক্ত ও অচেতন অবস্থায় পড়েছিল। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শিশুটির বাবা পেশায় রাজমিস্ত্রি। পরিবারের সদস্যদের লক্ষ্মীপুর এলাকায় নিয়ে থাকেন। বেলা দুইটার পর থেকে শিশুটিকে আর ঘরে পাওয়া যাচ্ছিল না। পরে বেলা তিনটায় তাকে ঝোপের মধ্য থেকে উদ্ধার করা হয়।

ভুক্তভোগী শিশুর বাবা বলেন, শিশুটি ঠিকমতো কথা বলতে পারছে না। ফলে এই বিষয়ে তেমন কিছু জানতে পারেননি।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মো. খুরশীদ আলম বলেন, শিশুটির যৌনাঙ্গ কেটে গেছে। রক্তপাত হয়েছে। প্রাথমিক স্বাস্থ্য পরীক্ষায় ধর্ষণের আলামত পাওয়া গেছে। সেই কারণে পরীক্ষার জন্য পুলিশের মাধ্যমে শিশুটিকে কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতালে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

ভৈরব থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. শাহিন জানান,উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে ঘটনা শোনার পর শিশুটিকে পরীক্ষার জন্য কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তবে এ বিষয়ে শিশুটির পরিবার থেকে এখন পর্যন্ত অভিযোগ পায়নি। অভিযোগ পেলে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

ঝোপের ভেতর পড়েছিল ৬ বছরের শিশু

 ভৈরব  (কিশোরগঞ্জ) প্রতিনিধি 
১৫ অক্টোবর ২০২১, ০৯:৫৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
শিশু ধর্ষণ
প্রতীকী ছবি

ভৈরবের লক্ষ্মীপুর এলাকায় ছয় বছর বয়সী এক শিশু ধর্ষণের শিকার হয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে। শুক্রবার দুপুরে এ ঘটনা ঘটে।

ধর্ষণের শিকার শিশুর পরিবার সূত্রে জানা যায়, দুপুরে পৌর শহরের লক্ষ্মীপুর এলাকার একটি ঝোপের ভেতর শিশুটি রক্তাক্ত ও অচেতন অবস্থায় পড়েছিল। স্থানীয়রা তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়। 

পুলিশ ও স্থানীয়  সূত্রে জানা যায়, শিশুটির বাবা পেশায় রাজমিস্ত্রি। পরিবারের সদস্যদের লক্ষ্মীপুর এলাকায় নিয়ে থাকেন। বেলা দুইটার পর থেকে শিশুটিকে আর ঘরে পাওয়া যাচ্ছিল না। পরে বেলা তিনটায় তাকে ঝোপের মধ্য থেকে উদ্ধার করা হয়। 

ভুক্তভোগী শিশুর বাবা বলেন, শিশুটি ঠিকমতো কথা বলতে পারছে না। ফলে এই বিষয়ে তেমন কিছু জানতে পারেননি।

উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা মো. খুরশীদ আলম বলেন, শিশুটির যৌনাঙ্গ কেটে গেছে। রক্তপাত হয়েছে। প্রাথমিক স্বাস্থ্য পরীক্ষায় ধর্ষণের আলামত পাওয়া গেছে। সেই কারণে পরীক্ষার জন্য পুলিশের মাধ্যমে শিশুটিকে কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতালে পাঠিয়ে দেওয়া হয়েছে।

ভৈরব থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মো. শাহিন জানান,উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স থেকে ঘটনা শোনার পর শিশুটিকে পরীক্ষার জন্য কিশোরগঞ্জ সদর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। তবে এ বিষয়ে শিশুটির পরিবার থেকে এখন পর্যন্ত অভিযোগ পায়নি।  অভিযোগ পেলে দোষীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। 
 

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন