মেঘনায় ট্রলারডুবিতে শিশুর মৃত্যু
jugantor
মেঘনায় ট্রলারডুবিতে শিশুর মৃত্যু

  চরফ্যাশন দক্ষিণ (ভোলা) প্রতিনিধি  

১৭ অক্টোবর ২০২১, ২২:০৭:০০  |  অনলাইন সংস্করণ

ভোলার চরফ্যাশন উপজেলার দক্ষিণ আইচা থানার চরকুকরী-মুকরী ইউনিয়নের চরপাতিলা এলাকার মেঘনা নদীতে ট্রলারডুবিতে এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। রোববার দুপুরে এ ঘটনায় ২ জন নিখোঁজ রয়েছেন।

চরমানিকা আউটপোস্ট কোস্টগার্ড কমান্ডার এম ওয়ালিউল্লাহ জানান, দুপুরে চরপাতিলা থেকে মালবোঝাই একটি ট্রলারে করে ৯ জন চর কচ্ছপিয়া ঘাটে আসার সময় ঘূর্ণিঝড়ের কবলে পড়ে ট্রলারডুবির সংবাদ পেয়ে উদ্ধার অভিযান পরিচালনা করা হয়। এ সময় জোনায়েদকে (৩) মৃত, রোজিনা (২৫), জোবায়েরকে (২) আহত অবস্থায় নদী থেকে উদ্ধার করা হয়।

উদ্ধার টিমের নেতৃত্ব দানকারী কোস্টগার্ড এলএস আবদুল্লাহ আল মামুন জানান, পানির তীব্র স্রোত ও উত্তাল ঢেউয়ে স্বপন (৩০) বিলকিস বেগম (৫০) পানির গভীরে হারিয়ে যায় ফলে তাদের উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি। জোবায়েরকে উদ্ধার করে আউটপোস্টে নিয়ে আসলে কোস্টগার্ড লে. সার্জেন্ট মেডিকেল অফিসার শাহনেওয়াজ মৃত ঘোষণা ও আহতদের প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রেরণ করেন।

নিখোঁজ স্বপন ও তার মা বিলকিস বেগমকে উদ্ধার করতে দুপুর ২টা থেকে চরকুকরী-মুকরী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আবুল হাসেম মহাজন, দক্ষিণ আইচা থানার ওসি শাখাওয়াত হোসেন, ইউপি সদস্য বাদশা, ঘাট ইজারাদার ফারুক, সাংবাদিক নাফিজ চৌধুরী উদ্ধার অভিযান অব্যাহত রেখেছেন।

দক্ষিণ আইচা থানার ওসি জানান, আমরা এখনো উদ্ধার অভিযান অব্যাহত রেখেছি। কোনো কারণে ব্যর্থ হলে ডুবুরি আনা হবে।

মেঘনায় ট্রলারডুবিতে শিশুর মৃত্যু

 চরফ্যাশন দক্ষিণ (ভোলা) প্রতিনিধি 
১৭ অক্টোবর ২০২১, ১০:০৭ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

ভোলার চরফ্যাশন উপজেলার দক্ষিণ আইচা থানার চরকুকরী-মুকরী ইউনিয়নের চরপাতিলা এলাকার মেঘনা নদীতে ট্রলারডুবিতে এক শিশুর মৃত্যু হয়েছে। রোববার দুপুরে এ ঘটনায় ২ জন নিখোঁজ রয়েছেন।

চরমানিকা আউটপোস্ট কোস্টগার্ড কমান্ডার এম ওয়ালিউল্লাহ জানান, দুপুরে চরপাতিলা থেকে মালবোঝাই একটি ট্রলারে করে ৯ জন চর কচ্ছপিয়া ঘাটে আসার সময় ঘূর্ণিঝড়ের কবলে পড়ে ট্রলারডুবির সংবাদ পেয়ে উদ্ধার অভিযান পরিচালনা করা হয়। এ সময় জোনায়েদকে (৩) মৃত, রোজিনা (২৫), জোবায়েরকে (২) আহত অবস্থায় নদী থেকে উদ্ধার করা হয়।

উদ্ধার টিমের নেতৃত্ব দানকারী কোস্টগার্ড এলএস আবদুল্লাহ আল মামুন জানান, পানির তীব্র স্রোত ও উত্তাল ঢেউয়ে স্বপন (৩০) বিলকিস বেগম (৫০) পানির গভীরে হারিয়ে যায় ফলে তাদের উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি। জোবায়েরকে উদ্ধার করে আউটপোস্টে নিয়ে আসলে কোস্টগার্ড লে. সার্জেন্ট মেডিকেল অফিসার শাহনেওয়াজ মৃত ঘোষণা ও আহতদের প্রাথমিক চিকিৎসা দিয়ে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রেরণ করেন।

নিখোঁজ স্বপন ও তার মা বিলকিস বেগমকে উদ্ধার করতে দুপুর ২টা থেকে চরকুকরী-মুকরী ইউনিয়নের চেয়ারম্যান আবুল হাসেম মহাজন, দক্ষিণ আইচা থানার ওসি শাখাওয়াত হোসেন, ইউপি সদস্য বাদশা, ঘাট ইজারাদার ফারুক, সাংবাদিক নাফিজ চৌধুরী উদ্ধার অভিযান অব্যাহত রেখেছেন।

দক্ষিণ আইচা থানার ওসি জানান, আমরা এখনো উদ্ধার অভিযান অব্যাহত রেখেছি। কোনো কারণে ব্যর্থ হলে ডুবুরি আনা হবে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন