বিস্কুট খেতে ১০ টাকা দিয়ে শিশুকে নিপীড়ন, বৃদ্ধ গ্রেফতার
jugantor
বিস্কুট খেতে ১০ টাকা দিয়ে শিশুকে নিপীড়ন, বৃদ্ধ গ্রেফতার

  নাটোর প্রতিনিধি  

২১ অক্টোবর ২০২১, ১৫:০১:০৮  |  অনলাইন সংস্করণ

শিশু নিপীড়ন

নাটোর সদর উপজেলায় সাত বছরের এক শিশুকে নিপীড়নের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় সিরাজুল ইসলাম (৬৫) নামে এক বৃদ্ধকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার ভোরে অভিযান চালিয়ে নাটোর শহরতলির দত্তপাড়া থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

এর আগে বুধবার বিকালে উপজেলার ছাতনী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। অসুস্থ শিশুটিকে নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আটক সিরাজুল ইসলাম নাটোর সদরের ছাতনী মধ্যপাড়া গ্রামের নুরুল ইসলামের ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, সিরাজুল ইসলাম বুধবার বিকালে প্রতিবেশীর ছেলেকে বিস্কুট খাওয়ার জন্য ১০ টাকা দিয়ে বাড়িতে ডেকে নিয়ে বলাৎকার করে। শিশুটির রক্তক্ষরণ হওয়ায় সে তার বাবা-মাকে বিষয়টি জানায়। এর পর বুধবার সন্ধ্যায় তাকে পরিবারের লোকজন নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করে।

বিষয়টি জানাজানি হলে বৃদ্ধ বাড়ি ছেড়ে নাটোর শহরতলির দত্তপাড়ায় তার এক ধর্ম মেয়ের বাড়িতে আত্মগোপন করে। রাতে এ বিষয়ে ও শিশুর বাবা নাটোর থানায় মামলা করে।

বৃহস্পতিবার ভোরে অভিযান চালিয়ে পুলিশ তাকে আটক করেছে।

নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার মঞ্জুর রহমান বলেন, শিশুটির চিকিৎসা চলছে। বৃহস্পতিবার তার শরীরের বেশ কিছু বিষয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়েছে। রিপোর্ট পাওয়া গেলে বিস্তারিত বলা যাবে।

নাটোর থানার ওসি মো. মনসুর রহমান যুগান্তরকে বলেন, অভিযুক্ত বৃদ্ধকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

বিস্কুট খেতে ১০ টাকা দিয়ে শিশুকে নিপীড়ন, বৃদ্ধ গ্রেফতার

 নাটোর প্রতিনিধি 
২১ অক্টোবর ২০২১, ০৩:০১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ
শিশু নিপীড়ন
ফাইল ছবি

নাটোর সদর উপজেলায় সাত বছরের এক শিশুকে নিপীড়নের অভিযোগ উঠেছে। এ ঘটনায় সিরাজুল ইসলাম (৬৫) নামে এক বৃদ্ধকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার ভোরে অভিযান চালিয়ে নাটোর শহরতলির দত্তপাড়া থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়। 

এর আগে বুধবার বিকালে উপজেলার ছাতনী এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। অসুস্থ শিশুটিকে নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে।

আটক সিরাজুল ইসলাম নাটোর সদরের ছাতনী মধ্যপাড়া গ্রামের নুরুল ইসলামের ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, সিরাজুল ইসলাম বুধবার বিকালে প্রতিবেশীর ছেলেকে বিস্কুট খাওয়ার জন্য ১০ টাকা দিয়ে বাড়িতে ডেকে নিয়ে বলাৎকার করে। শিশুটির রক্তক্ষরণ হওয়ায় সে তার বাবা-মাকে বিষয়টি জানায়। এর পর বুধবার সন্ধ্যায় তাকে পরিবারের লোকজন নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালে ভর্তি করে। 

বিষয়টি জানাজানি হলে বৃদ্ধ বাড়ি ছেড়ে নাটোর শহরতলির দত্তপাড়ায় তার এক ধর্ম মেয়ের বাড়িতে আত্মগোপন করে। রাতে এ বিষয়ে ও শিশুর বাবা নাটোর থানায় মামলা করে।

বৃহস্পতিবার ভোরে অভিযান চালিয়ে পুলিশ তাকে আটক করেছে। 

নাটোর আধুনিক সদর হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার মঞ্জুর রহমান বলেন, শিশুটির চিকিৎসা চলছে। বৃহস্পতিবার তার শরীরের বেশ কিছু বিষয় পরীক্ষা-নিরীক্ষা করা হয়েছে। রিপোর্ট পাওয়া গেলে বিস্তারিত বলা যাবে। 

নাটোর থানার ওসি মো. মনসুর রহমান যুগান্তরকে বলেন, অভিযুক্ত বৃদ্ধকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন