আ.লীগের ২ পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ, গুলিবিদ্ধসহ আহত ২০
jugantor
আ.লীগের ২ পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ, গুলিবিদ্ধসহ আহত ২০

  নরসিংদী প্রতিনিধি  

২৫ অক্টোবর ২০২১, ২২:৫১:১৭  |  অনলাইন সংস্করণ

নরসিংদী রায়পুরায় আধিপত্য বিস্তার ও ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষ হয়েছে। এতে ৫ জন গুলিবিদ্ধসহ কমপক্ষে ২০ জন আহত হয়েছে।

সোমবার বিকালে রায়পুরার দুর্গম চরাঞ্চল বাঁশগাড়ী ইউনিয়নের নতুন বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছেন, এলাকার আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে রায়পুরা উপজেলার দুর্গম চরাঞ্চল বাঁশগাড়ী ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের মধ্যে দ্বন্দ্ব চলে আসছিল। এরই মধ্যে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন পাওয়া না পাওয়া নিয়ে বর্তমান চেয়ারম্যান আশ্রাফুল হক ও বাঁশগাড়ী ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হাসান মিয়ার ছেলে জাকির গ্রুপের মধ্যে বিরোধ চাঙ্গা হয়।

এরই মধ্যে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন পায় বর্তমান চেয়ারম্যান আশ্রাফুল হক। এ নিয়ে এক পক্ষের মধ্যে আনন্দ বিরাজ করলেও অপর পক্ষের মধ্যে ক্ষোভ দেখা দেয়। এরই জের ধরে সোমবার বিকালে বাঁশগাড়ীর নতুন বাজার এলাকায় দুই পক্ষ মুখোমুখি অবস্থান নেয়। এসময় দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ সময় ৫ জন ছিটা গুলিবিদ্ধসহ প্রায় ২০ জন আহত হয়। আহতদের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

রায়পুরা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আতাউর রহমান বলেন, এলাকার আধিপত্য ও সামনে ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দুইপক্ষের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। এ নিয়ে একটু হট্টগোল দেখা দেয়। এখনো গুলিবিদ্ধের কোনো খবর পাওয়া যায়নি। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

আ.লীগের ২ পক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ, গুলিবিদ্ধসহ আহত ২০

 নরসিংদী প্রতিনিধি 
২৫ অক্টোবর ২০২১, ১০:৫১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

নরসিংদী রায়পুরায় আধিপত্য বিস্তার ও ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষ হয়েছে। এতে ৫ জন গুলিবিদ্ধসহ কমপক্ষে ২০ জন আহত হয়েছে।

সোমবার বিকালে রায়পুরার দুর্গম চরাঞ্চল বাঁশগাড়ী ইউনিয়নের নতুন বাজার এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনতে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

পুলিশ জানিয়েছেন, এলাকার আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে  রায়পুরা উপজেলার দুর্গম চরাঞ্চল বাঁশগাড়ী ইউনিয়নের আওয়ামী লীগের দুই পক্ষের মধ্যে দ্বন্দ্ব চলে আসছিল। এরই মধ্যে ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে চেয়ারম্যান পদে মনোনয়ন পাওয়া না পাওয়া নিয়ে বর্তমান চেয়ারম্যান আশ্রাফুল হক ও বাঁশগাড়ী ইউনিয়নের ভারপ্রাপ্ত সভাপতি হাসান মিয়ার ছেলে জাকির গ্রুপের মধ্যে বিরোধ চাঙ্গা হয়।

এরই মধ্যে আওয়ামী লীগের দলীয় মনোনয়ন পায় বর্তমান চেয়ারম্যান আশ্রাফুল হক। এ নিয়ে এক পক্ষের মধ্যে আনন্দ বিরাজ করলেও অপর পক্ষের মধ্যে ক্ষোভ দেখা দেয়। এরই জের ধরে সোমবার বিকালে বাঁশগাড়ীর নতুন বাজার এলাকায় দুই পক্ষ মুখোমুখি অবস্থান নেয়। এসময় দুই পক্ষের মধ্যে ধাওয়া পাল্টা ধাওয়া ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটে। এ সময় ৫ জন ছিটা গুলিবিদ্ধসহ  প্রায় ২০ জন আহত হয়। আহতদের বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।

রায়পুরা থানার পরিদর্শক (তদন্ত) আতাউর রহমান বলেন, এলাকার আধিপত্য ও সামনে ইউপি নির্বাচনকে কেন্দ্র করে দুইপক্ষের মধ্যে উত্তেজনা দেখা দেয়। এ নিয়ে একটু হট্টগোল দেখা দেয়। এখনো গুলিবিদ্ধের কোনো খবর পাওয়া যায়নি। পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে এলাকায় পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন