নারী শ্রমিককে পিটিয়ে আহত করে ধর্ষণ
jugantor
নারী শ্রমিককে পিটিয়ে আহত করে ধর্ষণ

  রাজবাড়ী প্রতিনিধি  

৩১ অক্টোবর ২০২১, ২২:৫১:৫৩  |  অনলাইন সংস্করণ

রাজবাড়ীতে এক নারী শ্রমিককে (৩৫) পিটিয়ে আহত করে ধর্ষণ করেছে মো. সাবু নামের এক যুবক। শুক্রবার রাতের এ ঘটনায় রোববার সকালে ধর্ষক সাবুকে (৩২) গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

গ্রেফতার সাবু রাজবাড়ী সদর উপজেলার রামকান্তপুর ইউনিয়নের কৈডাঙ্গা গ্রামের মৃত আমোদ আলীর ছেলে।

এ ঘটনায় ধর্ষণের শিকার ২ সন্তানের জননী নারী শ্রমিক বাদী হয়ে গ্রেফতারকৃত সাবুর বিরুদ্ধে রাজবাড়ী থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা দায়ের করেছেন।

ভিকটিম নারী শ্রমিক জানান, তার বাড়ি রাজবাড়ী পৌরসভায়। তিনি একজনের বাড়িতে থেকে তার বাড়ি ও মাছ চাষের পুকুর পাহারা দেন। সাবু ওই পুকুর থেকে বিভিন্ন সময় মাছ মারার চেষ্টা করলে তিনি বাধা দেন এবং পুকুরের মালিককে অবহিত করেন। এতে সাবু তার ওপর ক্ষুব্ধ হয়।

তিনি জানান, শুক্রবার বিকালে তিনি বাজার করার জন্য পার্শ্ববর্তী কুটির হাটে যান। সেখান থেকে ফেরার পথে সন্ধ্যা ৭টার দিকে কৈডাঙ্গা গ্রামের একটি বাঁশবাগানের সামনে পৌঁছলে সাবু জোরপূর্বক তার মুখ চেপে ধরে বাঁশবাগানের মধ্যে নিয়ে যায়। তিনি চিৎকার করার চেষ্টা করলে সাবু বাঁশের লাঠি দিয়ে তার শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত করে দুর্বল করে তাকে ধর্ষণ করে।

রাজবাড়ী থানার ওসি মোহাম্মদ শাহাদাত হোসেন যুগান্তরকে জানান, অভিযুক্ত সাবুকে রোববার সকালে গ্রেফতার করে দুপুরে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে সে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছে। ওই নারী শ্রমিককে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে পাঠিয়ে ডাক্তারি পরীক্ষা করানো হয়েছে বলেও তিনি জানান।

নারী শ্রমিককে পিটিয়ে আহত করে ধর্ষণ

 রাজবাড়ী প্রতিনিধি 
৩১ অক্টোবর ২০২১, ১০:৫১ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

রাজবাড়ীতে এক নারী শ্রমিককে (৩৫) পিটিয়ে আহত করে ধর্ষণ করেছে মো. সাবু নামের এক যুবক। শুক্রবার রাতের এ ঘটনায় রোববার সকালে ধর্ষক সাবুকে (৩২) গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

গ্রেফতার সাবু রাজবাড়ী সদর উপজেলার রামকান্তপুর ইউনিয়নের কৈডাঙ্গা গ্রামের মৃত আমোদ আলীর ছেলে।

এ ঘটনায় ধর্ষণের শিকার ২ সন্তানের  জননী নারী শ্রমিক বাদী হয়ে গ্রেফতারকৃত সাবুর বিরুদ্ধে রাজবাড়ী থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা দায়ের করেছেন।

ভিকটিম নারী শ্রমিক জানান, তার বাড়ি রাজবাড়ী পৌরসভায়। তিনি একজনের বাড়িতে থেকে তার বাড়ি ও মাছ চাষের পুকুর পাহারা দেন। সাবু ওই পুকুর থেকে বিভিন্ন সময় মাছ মারার চেষ্টা করলে তিনি বাধা দেন এবং পুকুরের মালিককে অবহিত করেন। এতে সাবু তার ওপর ক্ষুব্ধ হয়।

তিনি জানান, শুক্রবার বিকালে তিনি বাজার করার জন্য পার্শ্ববর্তী কুটির হাটে যান। সেখান থেকে ফেরার পথে সন্ধ্যা ৭টার দিকে কৈডাঙ্গা গ্রামের একটি বাঁশবাগানের সামনে পৌঁছলে সাবু জোরপূর্বক তার মুখ চেপে ধরে বাঁশবাগানের  মধ্যে নিয়ে যায়। তিনি চিৎকার করার চেষ্টা করলে সাবু বাঁশের লাঠি দিয়ে তার শরীরের বিভিন্ন স্থানে আঘাত করে দুর্বল করে তাকে ধর্ষণ করে।

রাজবাড়ী থানার ওসি মোহাম্মদ শাহাদাত হোসেন যুগান্তরকে জানান, অভিযুক্ত সাবুকে রোববার সকালে গ্রেফতার করে দুপুরে আদালতে সোপর্দ করা হয়েছে। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে সে ধর্ষণের কথা স্বীকার করেছে। ওই নারী শ্রমিককে রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে পাঠিয়ে ডাক্তারি পরীক্ষা করানো হয়েছে বলেও তিনি জানান।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন