নৌকার শোচনীয় পরাজয়, মেয়র হলেন বিদ্রোহী নান্নু
jugantor
নৌকার শোচনীয় পরাজয়, মেয়র হলেন বিদ্রোহী নান্নু

  বগুড়া ব্যুরো  

০২ নভেম্বর ২০২১, ২২:২২:০৫  |  অনলাইন সংস্করণ

বগুড়ার সোনাতলা পৌরসভায় নৌকা মার্কার প্রার্থী শাহিদুল বারী খান রব্বানীর শোচনীয় পরাজয় হয়েছে। দ্বিতীয়বারের মতো বিদ্রোহী হিসেবে বিপুল ভোটে মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন জেলা আওয়ামী লীগের নির্বাহী সদস্য পদ থেকে অব্যাহতি পাওয়া জাহাঙ্গীর আলম নান্নু।

তিনি পেয়েছেন সাত হাজার ৯৬৩ ভোট। তার নিকটতম আওয়ামী লীগ প্রার্থী পেয়েছেন পাঁচ হাজার ২২১ ভোট। স্বতন্ত্র আদলে বিএনপি প্রার্থী শাকিল রেজা বাবলা পেয়েছেন এক হাজার ২৮৬ ভোট।

নির্বাচন অফিস ও স্থানীয় সূত্র জানায়, সোনাতলা পৌরসভায় মঙ্গলবার উৎসবমুখর পরিবেশে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। দ্বিতীয়বারের মতো ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) পদ্ধতিতে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে ভোট গ্রহণ করা হয়।

সকাল সাড়ে ৯টার দিকে কানুপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে নৌকা মার্কায় ভোট দিতে ভোটারদের বাধ্য করার চেষ্টা করলে অপ্রীতিকর ঘটনার আশঙ্কা দেখা দেয়। পরে প্রশাসন, র্যা ব, বিজিবি ও পুলিশের যৌথ উদ্যোগে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে। এছাড়া কোনো কেন্দ্রে কোনো অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি। সকাল থেকে ভোটাররা কেন্দ্রে আসতে শুরু করেন। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ভোটার উপস্থিতি বৃদ্ধি পায়। প্রতিটি কেন্দ্রে মহিলা ভোটারের উপস্থিতি ছিল চোখে পড়ার মতো।

নির্বাচনে মেয়র পদপ্রার্থী ছিলেন নৌকা মার্কার শাহিদুল বারী খান রব্বানী, বর্তমান মেয়র জেলা আওয়ামী লীগের নির্বাহী সদস্য পদ থেকে অব্যাহতিপ্রাপ্ত জাহাঙ্গীর আলম আকন্দ নান্নু (নারিকেল গাছ) ও বিএনপি নেতা একেএম শাকিল রেজা বাবলা (জগ)। ৯টি কাউন্সিলর পদে ৪০ জন ও তিনটি সংরক্ষিত আসনে ১১ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতায় অংশ নেন।

পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ডে ভোটার ১৯ হাজার ৫২৩ জন। এর মধ্যে নারী ১০ হাজার ১১৯ জন ও পুরুষ নয় হাজার ৪০৪ জন। ১১টি কেন্দ্রে ৭০ বুথে ইভিএম পদ্ধতিতে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রাত সাড়ে ৭টায় সোনাতলা উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও সহকারী রিটার্নিং অফিসার আশরাফ হোসেন জানান, শান্তিপূর্ণ এবং উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। স্বতন্ত্র প্রার্থী জাহাঙ্গীর আলম নান্নু মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন। মোট ভোট পড়েছে ১৪ হাজার ৪৭০। শতকরা হার ৭৪ শতাংশ।

নৌকার শোচনীয় পরাজয়, মেয়র হলেন বিদ্রোহী নান্নু

 বগুড়া ব্যুরো 
০২ নভেম্বর ২০২১, ১০:২২ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

বগুড়ার সোনাতলা পৌরসভায় নৌকা মার্কার প্রার্থী শাহিদুল বারী খান রব্বানীর শোচনীয় পরাজয় হয়েছে। দ্বিতীয়বারের মতো বিদ্রোহী হিসেবে বিপুল ভোটে মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন জেলা আওয়ামী লীগের নির্বাহী সদস্য পদ থেকে অব্যাহতি পাওয়া জাহাঙ্গীর আলম নান্নু।

তিনি পেয়েছেন সাত হাজার ৯৬৩ ভোট। তার নিকটতম আওয়ামী লীগ প্রার্থী পেয়েছেন পাঁচ হাজার ২২১ ভোট। স্বতন্ত্র আদলে বিএনপি প্রার্থী শাকিল রেজা বাবলা পেয়েছেন এক হাজার ২৮৬ ভোট।

নির্বাচন অফিস ও স্থানীয় সূত্র জানায়, সোনাতলা পৌরসভায় মঙ্গলবার উৎসবমুখর পরিবেশে নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়েছে। দ্বিতীয়বারের মতো ইলেকট্রনিক ভোটিং মেশিন (ইভিএম) পদ্ধতিতে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। সকাল ৮টা থেকে বিকাল ৪টা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে ভোট গ্রহণ করা হয়।

সকাল সাড়ে ৯টার দিকে কানুপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে নৌকা মার্কায় ভোট দিতে ভোটারদের বাধ্য করার চেষ্টা করলে অপ্রীতিকর ঘটনার আশঙ্কা দেখা দেয়। পরে প্রশাসন, র্যা ব, বিজিবি ও পুলিশের যৌথ উদ্যোগে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে। এছাড়া কোনো কেন্দ্রে কোনো অপ্রীতিকর ঘটনার খবর পাওয়া যায়নি। সকাল থেকে ভোটাররা কেন্দ্রে আসতে শুরু করেন। বেলা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে ভোটার উপস্থিতি বৃদ্ধি পায়। প্রতিটি কেন্দ্রে মহিলা ভোটারের উপস্থিতি ছিল চোখে পড়ার মতো।

নির্বাচনে মেয়র পদপ্রার্থী ছিলেন নৌকা মার্কার শাহিদুল বারী খান রব্বানী, বর্তমান মেয়র জেলা আওয়ামী লীগের নির্বাহী সদস্য পদ থেকে অব্যাহতিপ্রাপ্ত জাহাঙ্গীর আলম আকন্দ নান্নু (নারিকেল গাছ) ও বিএনপি নেতা একেএম শাকিল রেজা বাবলা (জগ)। ৯টি কাউন্সিলর পদে ৪০ জন ও তিনটি সংরক্ষিত আসনে ১১ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতায় অংশ নেন।

পৌরসভার ৯টি ওয়ার্ডে ভোটার ১৯ হাজার ৫২৩ জন। এর মধ্যে নারী ১০ হাজার ১১৯ জন ও পুরুষ নয় হাজার ৪০৪ জন। ১১টি কেন্দ্রে ৭০ বুথে ইভিএম পদ্ধতিতে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে।

রাত সাড়ে ৭টায় সোনাতলা উপজেলা নির্বাচন কর্মকর্তা ও সহকারী রিটার্নিং অফিসার আশরাফ হোসেন জানান, শান্তিপূর্ণ এবং উৎসবমুখর পরিবেশে ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হয়েছে। স্বতন্ত্র প্রার্থী জাহাঙ্গীর আলম নান্নু মেয়র নির্বাচিত হয়েছেন। মোট ভোট পড়েছে ১৪ হাজার ৪৭০। শতকরা হার ৭৪ শতাংশ।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন