নালিতাবাড়ী সীমান্তের ধানক্ষেত থেকে মৃত হাতি উদ্ধার
jugantor
নালিতাবাড়ী সীমান্তের ধানক্ষেত থেকে মৃত হাতি উদ্ধার

  নালিতাবাড়ী (শেরপুর) প্রতিনিধি  

১৯ নভেম্বর ২০২১, ১৮:১৬:১৫  |  অনলাইন সংস্করণ

শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার পাহাড়ি এলাকায় একটি বন্যহাতির মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। হাতিটির মৃত্যুর কারণ জানা যায়নি।

এর আগে গত ৯ নভেম্বর শ্রীবরদী উপজেলার গারো পাহাড়ের মালাকোচা গ্রাম থেকে বনবিভাগ আরও একটি বন্যহাতির মৃতদেহ উদ্ধার করেছিল।

বন বিভাগ ও স্থানীয়রা জানান, গত কয়েক দিন ধরে প্রায় ৪০টি বন্যহাতি নালিতাবাড়ীর পাহাড়ি এলাকার পানিহাটায় পাকা আমন ধানের ক্ষেতে ধান খেতে আসে। বৃহস্পতিবার রাতে হাতির দলটি পানিহাটার ফেঁকামারি গ্রামের ধানক্ষেতে নামে। সকালে ঘুম থেকে উঠে চাঁন মিয়া নামে এক কৃষক ধানক্ষেতে একটি বন্যহাতির মরদেহ পড়ে থাকতে দেখেন। পরে স্থানীয় লোকজন ঘটনা বন বিভাগে অবহিত করেন। বন বিভাগের কর্মকর্তারা দ্রুত ঘটনাস্থলে এসে হাতিটির মৃত্যুর কারণ উদঘাটনের জন্য চেষ্টা চালান।

বন বিভাগের মধুটিলা রেঞ্জের রেঞ্জ কর্মকর্তা আব্দুল করিম বলেন, মৃত হাতিটির বয়স আনুমানিক দুই বছর হবে। তবে মৃত্যুর কারণ জানা যায়নি। প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের লোকজনকে খবর দেওয়া হয়েছে। বন বিভাগকেও জানানো হয়েছে।

নালিতাবাড়ী সীমান্তের ধানক্ষেত থেকে মৃত হাতি উদ্ধার

 নালিতাবাড়ী (শেরপুর) প্রতিনিধি 
১৯ নভেম্বর ২০২১, ০৬:১৬ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

শেরপুরের নালিতাবাড়ী উপজেলার পাহাড়ি এলাকায় একটি বন্যহাতির মৃতদেহ উদ্ধার করা হয়েছে। হাতিটির মৃত্যুর কারণ জানা যায়নি।

এর আগে গত ৯ নভেম্বর শ্রীবরদী উপজেলার গারো পাহাড়ের মালাকোচা গ্রাম থেকে বনবিভাগ আরও একটি বন্যহাতির মৃতদেহ উদ্ধার করেছিল।

বন বিভাগ ও স্থানীয়রা জানান, গত কয়েক দিন ধরে প্রায় ৪০টি বন্যহাতি নালিতাবাড়ীর পাহাড়ি এলাকার পানিহাটায় পাকা আমন ধানের ক্ষেতে ধান খেতে আসে। বৃহস্পতিবার রাতে হাতির দলটি পানিহাটার ফেঁকামারি গ্রামের ধানক্ষেতে নামে। সকালে ঘুম থেকে উঠে চাঁন মিয়া নামে এক কৃষক ধানক্ষেতে একটি বন্যহাতির মরদেহ পড়ে থাকতে দেখেন। পরে স্থানীয় লোকজন ঘটনা বন বিভাগে অবহিত করেন। বন বিভাগের কর্মকর্তারা দ্রুত ঘটনাস্থলে এসে হাতিটির মৃত্যুর কারণ উদঘাটনের জন্য চেষ্টা চালান।

বন বিভাগের মধুটিলা রেঞ্জের রেঞ্জ কর্মকর্তা আব্দুল করিম বলেন, মৃত হাতিটির বয়স আনুমানিক দুই বছর হবে। তবে মৃত্যুর কারণ জানা যায়নি। প্রাণিসম্পদ অধিদপ্তরের লোকজনকে খবর দেওয়া হয়েছে। বন বিভাগকেও জানানো হয়েছে।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন