আপত্তিকর অবস্থায় পরকীয়া প্রেমিকসহ প্রবাসীর স্ত্রী আটক, গণধোলাই
jugantor
আপত্তিকর অবস্থায় পরকীয়া প্রেমিকসহ প্রবাসীর স্ত্রী আটক, গণধোলাই

  ধামরাই (ঢাকা) প্রতিনিধি  

২৫ নভেম্বর ২০২১, ২০:৪৯:২৮  |  অনলাইন সংস্করণ

আপত্তিকর অবস্থায় পরকীয়া প্রেমিকসহ প্রবাসীর স্ত্রীকে ধরে গণধোলাই দিয়েছেন এলাকাবাসী। বৃহস্পতিবার ভোরে ওই প্রবাসীর স্ত্রী পরকীয়া প্রেমিকসহ গ্রামবাসীর হাতে আটক হয়। পরে এক রশিতে বেঁধে উপর্যুপরি গণধোলাইয়ের পর ওই প্রেমিক যুগলকে পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন গ্রামবাসী। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার গাঙ্গুটিয়াপ ইউনিয়নের কাওয়াখোলা গ্রামে।

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, কয়েক বছর আগে বিয়ে হয় ওই গৃহবধূর। অভাবের সংসারে বিয়ের পর সবার সুখের কথা ভেবে সৌদি আরবে পাড়ি জমান তার স্বামী। এই সুযোগে তার স্ত্রীর পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে তার বাবার গ্রামের বান্ধু মিয়ার ছেলে ভুবন আলীর সঙ্গে।

এর ফলে ওই পরকীয়া প্রেমিক মাঝে মধ্যেই ওই প্রবাসীর পিত্রালয়ে ভাই পরিচয়ে গিয়ে তার স্ত্রীর সঙ্গে একই ঘরে একই বিছানায় রাতযাপন করে। বিষয়টি স্থানীয় লোকজনের সন্দেহ হলে ওই প্রেমিক যুগলকে আটকের পরিকল্পনা করেন তারা।

বৃহস্পতিবার ভোর ৪টার দিকে গ্রামবাসী ওই প্রেমিক যুগলকে একই বিছানায় আপত্তিকর অবস্থায় আটক করেন। এরপর তাদের উপর্যুপরি গণধোলাইয়ের পর কাওয়ারীপাড়া বাজার পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে খবর দেওয়া হলে এসআই মো. মনিরুজ্জামান সঙ্গীয় ফোর্সসহ ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই প্রেমিক যুগলকে আটক করে তদন্ত কেন্দ্রে নিয়ে যান।

এ ব্যাপারে এসআই মো. মনিরুজ্জামান বলেন, এলাকাবাসী প্রেমিক যুগলকে আটকের খবর দিলে সঙ্গীয় ফোর্সসহ ঘটনাস্থলে যাই। এরপর জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাদের পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে আনা হয়।

আপত্তিকর অবস্থায় পরকীয়া প্রেমিকসহ প্রবাসীর স্ত্রী আটক, গণধোলাই

 ধামরাই (ঢাকা) প্রতিনিধি 
২৫ নভেম্বর ২০২১, ০৮:৪৯ পিএম  |  অনলাইন সংস্করণ

আপত্তিকর অবস্থায় পরকীয়া প্রেমিকসহ প্রবাসীর স্ত্রীকে ধরে গণধোলাই দিয়েছেন এলাকাবাসী। বৃহস্পতিবার ভোরে ওই প্রবাসীর স্ত্রী পরকীয়া প্রেমিকসহ গ্রামবাসীর হাতে আটক হয়। পরে এক রশিতে বেঁধে উপর্যুপরি গণধোলাইয়ের পর ওই প্রেমিক যুগলকে পুলিশের কাছে সোপর্দ করা হয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন গ্রামবাসী। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার গাঙ্গুটিয়াপ ইউনিয়নের কাওয়াখোলা গ্রামে। 

সংশ্লিষ্ট সূত্র জানায়, কয়েক বছর আগে বিয়ে হয় ওই গৃহবধূর। অভাবের সংসারে বিয়ের পর সবার সুখের কথা ভেবে সৌদি আরবে পাড়ি জমান তার স্বামী। এই সুযোগে তার স্ত্রীর পরকীয়া প্রেমের সম্পর্ক গড়ে উঠে তার বাবার গ্রামের বান্ধু মিয়ার ছেলে ভুবন আলীর সঙ্গে। 

এর ফলে ওই পরকীয়া প্রেমিক মাঝে মধ্যেই ওই প্রবাসীর পিত্রালয়ে ভাই পরিচয়ে গিয়ে তার স্ত্রীর সঙ্গে একই ঘরে একই বিছানায় রাতযাপন করে। বিষয়টি স্থানীয় লোকজনের সন্দেহ হলে ওই প্রেমিক যুগলকে আটকের পরিকল্পনা করেন তারা।

বৃহস্পতিবার ভোর ৪টার দিকে গ্রামবাসী ওই প্রেমিক যুগলকে একই বিছানায় আপত্তিকর অবস্থায় আটক করেন। এরপর তাদের উপর্যুপরি গণধোলাইয়ের পর কাওয়ারীপাড়া বাজার পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে খবর দেওয়া হলে এসআই মো. মনিরুজ্জামান সঙ্গীয় ফোর্সসহ ঘটনাস্থলে গিয়ে ওই প্রেমিক যুগলকে আটক করে তদন্ত কেন্দ্রে নিয়ে যান।

এ ব্যাপারে এসআই মো. মনিরুজ্জামান বলেন, এলাকাবাসী প্রেমিক যুগলকে আটকের খবর দিলে সঙ্গীয় ফোর্সসহ ঘটনাস্থলে যাই। এরপর জিজ্ঞাসাবাদের জন্য তাদের পুলিশ তদন্ত কেন্দ্রে আনা হয়।

যুগান্তর ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
আরও খবর
 
জেলার খবর
অনুসন্ধান করুন